কলকাতা

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

বেসরকারি বাসে উঠলেই ১২? ন্যূনতম ভাড়া বৃদ্ধি নিয়ে কাটল না জট  

বেসরকারি বাসে উঠলেই ১২? ন্যূনতম ভাড়া বৃদ্ধি নিয়ে কাটল না জট  
প্রতীকী বাস৷

বাস মালিকরা বলতে শুরু করেছেন, জ্বালানির দাম বৃদ্ধি পেতে শুরু করেছে। ফলে বাসের ভাড়া বাড়াতেই হবে এই দাবিতে বাস মালিক সংগঠনের প্রতিনিধিরা অনড়।

  • Share this:

#কলকাতা: রেল চালু হলে বাড়বে বাসে যাত্রী। আপাতত এই বক্তব্যই বাস মালিক সংগঠনের প্রতিনিধিদের জানালেন এক্সপার্ট কমিটির সদস্যরা। যারা বাস ভাড়া বাড়ানোর দাবিতে দীর্ঘদিন ধরে আন্দোলন করে যাচ্ছেন। সেই সংগঠনের প্রতিনিধিদের ডেকে শুক্রবার এক্সপার্ট কমিটির সদস্যরা বৈঠক করেন। যদিও সংগঠনের সদস্যরা আলোচনা ইতিবাচক বললেও ভাড়া যে আপাতত বাড়ছে না তা তারা বুঝতে পেরেছেন। ফলে বাস ভাড়া বৃদ্ধি নিয়ে জটিলতা অব্যাহত  থাকল।

দু'সপ্তাহ আগেই বাসের ভাড়া বৃদ্ধি নিয়ে আলোচনার জন্যে রাজ্য সরকার তিন সদস্যের কমিটি তৈরি করে। সেই কমিটি আগেই বিভিন্ন বাস সংগঠনের কাছ থেকে তাদের প্রস্তাব আগেই জমা পড়েছিল। সেখানে ১০ থেকে ১২ টাকা অবধি ন্যূনতম ভাড়া বাড়ানোর দাবি জানিয়ে দিয়েছিল। যদিও সংগঠনের কাছ থেকে রাজ্য সরকার জানতে চায়, ২৭ মে থেকে ৩১ মে অবধি বাসের আয়। ১ জুন থেকে ১০ জুন অবধি বাসের আয়।  ১১ জুন থেকে ১৮ জুন অবধি আয় কত। এক্ষেত্রে স্টেজ পিছু ভাড়া, কত সংখ্যক যাত্রী হচ্ছে। তার সব কিছু জমা দেওয়া হয়। যদিও এর সাথে বাস মালিকরা বলতে শুরু করেছেন, জ্বালানির দাম বৃদ্ধি পেতে শুরু করেছে। ফলে বাসের ভাড়া বাড়াতেই হবে এই দাবিতে বাস মালিক সংগঠনের প্রতিনিধিরা অনড়। যদিও রাজ্যের দাবি, যাত্রী সংখ্যার অনুপাতে বাসের ভাড়া যথাযথ আছে। বাসের যাত্রী রেল চালু হলেই বাড়বে বলে তারা জানিয়েছেন সংগঠনের প্রতিনিধিদের।

সারা বাংলা বাস মিনিবাস সমন্বয় সমিতির সাধারণ সম্পাদক রাহুল চ্যাটার্জি জানিয়েছেন, "আলোচনা অবশ্যই ইতিবাচক। তবে রেল চালু হওয়া অবধি তারা অপেক্ষা করতে বলছেন। তবে এখন সত্যি বাস চালাতে গিয়ে আমাদের অসুবিধার মধ্যে পড়তে হচ্ছে।" বেঙ্গল বাস সিন্ডিকেটের সহ সভাপতি টিটু সাহা জানিয়েছেন, "যাত্রী সংখ্যার নিরিখে বাসের ভাড়া স্থির হবে তা পরিষ্কার করে দেওয়া হয়েছে। একইসঙ্গে রেল চালু হলে যাত্রী আসবে এই বিষয় আমাদের জানিয়ে দিয়েছেন।" মিনিবাস অপারেটর অ্যাসোসিয়েশনের সদস্যরা অবশ্য অভিনব সাজে আসেন বৈঠকে যোগ দিতে। সেখানে তারা বিভিন্ন দাবি নিয়ে প্ল্যাকার্ড বানিয়ে গলায় ঝুলিয়ে আসেন।

সংগঠনের যুগ্ম সম্পাদক প্রদীপ নারায়ণ বসু জানান, "ভাড়া না বাড়ানোয় অনেকে বাস কিন্তু বসিয়ে দিয়েছেন। সরকার দ্রুত সিদ্ধান্ত নিক নাহলে সমস্যা হবে।" অন্যদিকে জয়েন্ট কাউন্সিল অফ বাস সিন্ডিকেটের সাধারণ সম্পাদক তপন বন্দোপাধ্যায়ের দাবি, "লিখিত আকারে, আলোচনা করে সব সমস্যার কথা বলা হল৷ সরকার যদি এখনো সমস্যার সমাধান না করে তাহলে রাস্তায় বাস নামানো সম্ভব নয়।" বাসের ভাড়া বাড়ানোর দাবিতে সব সংগঠন সরব হলেও, সরকার এখনও ভাড়া নিয়ে চটজলদি সিদ্ধান্ত নেবে না এদিন অবশ্য তা পরিষ্কার করে দেওয়া হয়েছে।

Abir Ghosal

Published by: Elina Datta
First published: June 19, 2020, 10:00 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर