টানা বৃষ্টির মাঝে জল ছাড়ার প্রতিবাদে ডিভিসি-কে কড়া চিঠি রাজ্যের

টানা বৃষ্টির মাঝে জল ছাড়ার প্রতিবাদে ডিভিসি-কে কড়া চিঠি রাজ্যের

টানা বৃষ্টির মাঝে জল ছাড়ার প্রতিবাদে ডিভিসি-কে কড়া চিঠি রাজ্যের

  • Share this:

#কলকাতা: ফের ডিভিসি-কে চিঠি দিল রাজ্য ৷ জল ছাড়ার প্রতিবাদে কড়া চিঠি দেওয়া হল ডিভিসি-কে ৷ রাজ্যের বিভিন্ন এলাকায় বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। ভারী বৃষ্টির সঙ্গে ডিভিসির জলাধারগুলি থেকে জল ছাড়ায় এই পরিস্থিতি। ইতিমধ্যেই পরিস্থিতি নিয়ে বৈঠক করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। ডিভিসিকে জল না ছাড়ার জন্য চিঠি দিয়েছিল সেচ দফতর। এদিন চিঠিতে বলা হয়, ‘যেভাবে জল ছাড়া হচ্ছে, তা ঠিক নয় ৷’

মঙ্গলবার সকালে নতুন করে জল ছাড়ায় পরিস্থিতির আরও অবনতি হয় ৷ টানা বৃষ্টির সঙ্গে না জানিয়ে বিভিন্ন জলাধার থেকে জল ছাড়া। যার জেরে রাজ্যের বিভিন্ন এলাকায় বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। মাইথন ও পাঞ্চেত ব্যারাজ থেকে আরও জল ছাড়ল ডিভিসি ৷ পাঞ্চেত ব্যারাজ থেকে ২৩ হাজার কিউসেক ও মাইথন ব্যারাজ জল ছাড়ল আড়াই হাজার কিউসেক ৷  বৃষ্টি হলে ফের জল ছাড়া হবে, জানাল ডিভিসি ৷

ব্যারাজ থেকে জল ছাড়ার পরিমাণ

- গালুডি (ঝাড়খণ্ড) ২ লক্ষ ৬৩ হাজার ৪৬৩ কিউসেক

- তারাফেনি (শিলদা) ৪৩ হাজার কিউসেক

- মাইথন ২ হাজার কিউসেক

- পাঞ্চেত ১৮ হাজার কিউসেক

- দুর্গাপুর ৩৪ হাজার ৪০০ কিউসেক

- তিলপাড়া (বীরভূম) ২ হাজার ৭৫২ কিউসেক

- বৈভরা (বীরভূম) ১ হাজার ১৬৯ কিউসেক

- দেউচা (বীরভূম) ১ হাজার ১৬২ কিউসেক

জল পরিস্থিতি নিয়ে ইতিমধ্যেই বৈঠক করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। জল না ছাড়ার জন্য ইতিমধ্যেই DVCকে চিঠি দিয়ে অনুরোধ করেছে সেচ দফতর। জল পরিস্থিতি নিয়ে সোমবার জেলাশাসকদের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্স করেন সেচমন্ত্রী রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়। নির্দেশিকা জারি করেছে স্বাস্থ্য দফতরও।

স্বাস্থ্য দফতরের নির্দেশিকা

- জল জমা এলাকায় ত্রাণ সামগ্রী পাঠানোর নির্দেশ

- বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীও তৈরি রয়েছে

- জলে আটকে পড়া দুর্গতদের উদ্ধারে বোট

- জেলার মুখ্যস্বাস্থ্য আধিকারিকদের ছুটি বাতিল

- প্রয়োজনীয় ওষুধ মজুতের নির্দেশ

সেচ দফতরের কন্ট্রোলরুম ও নবান্নের বিপর্যয় মোকাবিলা দফতরের কন্ট্রোলরুম থেকে পরিস্থিতির উপর নজর রাখা হচ্ছে।

First published: 12:12:50 PM Jul 25, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर