কলকাতা

corona virus btn
corona virus btn
Loading

‘শাহরুখ বাংলার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হয়, সৌমিত্রের কথা মনে থাকে না, বহিরাগত কি ধর্ম দেখে হয়?’ প্রশ্ন দিলীপ ঘোষের

‘শাহরুখ বাংলার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হয়, সৌমিত্রের কথা মনে থাকে না, বহিরাগত কি ধর্ম দেখে হয়?’ প্রশ্ন দিলীপ ঘোষের
দিলীপ ঘোষ। ফাইল চিত্র

ধর্মীয় কারণে শাহরুখকে বাংলার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর বানানো হয়েছে কি বলে প্রশ্ন তোলেন বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

  • Share this:

#কলকাতা: শাহরুখ খানকে বাংলার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর বানানোর সময় কি বহিরাগত তত্ব মনে ছিল না।যে সৌমিত্র জন্য রাস্তায় কাঁদলেন তার কথা তো তখন মনে ছিল না। মুখ্যমন্ত্রীর নাম না করে তীব্র আক্রমণ বিজেপির রাজ্য সভাপতি  দিলীপ ঘোষের। ধর্মীয় কারণে শাহরুখকে বাংলার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর বানানো হয়েছে কি বলে  প্রশ্ন তোলেন বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

আজ রবিবার দত্তপুকুরের সন্তোষপুরে গোপাস্টমী উপলক্ষে রাজস্থান গো ট্রাস্টের একটি গোশালায় আসেন তিনি। সম্প্রতি বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতারা বারবার রাজ্য আসাকে কটাক্ষ করে তৃণমূলের বহিরাগত তত্বের  আক্রমনের জবাব দেন এই দিন দিলীপ ঘোষ।তিনি এদিন বলেন, ‘সারা ভারত জুড়ে বাঙালি ছড়িয়ে রয়েছে। তাদের কেউ বহিরাগত বলে না।আর কাউকে বহিরাগত বলার সংস্কৃতি বাংলার  নয় । আর দেশের সংবিধানও সেই কথা বলছে না।’

এদিন দিলীপ ঘোষ অভিযোগ করে বলেন, ‘সবাই জানে কে কাকে দাবিয়ে রাখছে।কেউ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে কিছু বললে তাকে পুলিশ তুলে নিয়ে যায়। রাজ্যে গণতন্ত্র নেই। তার মুখে দাবিয়ে রাখার কথা মানায় না’, বলে দাবী দিলীপ ঘোষের।‘ সারা দেশে যেখানে খুশি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মিটিং করতে পারেন।কেউ তাকে আটকাবে না।’ মত দিলীপ ঘোষের।কিন্তুু বাংলায় বিরোধীরা কোন মিটিং করতে পারছে না।তাহলে কে কাদের দাবিয়ে রাখছে? প্রশ্ন দিলীপ ঘোষের।

এদিনও আরো একবার বাংলাকে গুজরাট বানাবই কারো হিম্মত থাকলে রুখে দেখাক হুঙ্কার ছাড়েন দিলীপ ঘোষ ।তার আরো অভিযোগ যারা বাংলাকে গুজরাট বানাবার বিরোধিতা করছেন, তারা আগে ভোটে জিতে আসুক।নাম না করে কলকাতার মেয়র ফিরাদ হাকিমকে চ্যালেঞ্জ বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষের।‘ পিছনের দরজা দিয়ে কলকাতার মেয়র হয়েছেন।আগে জিতে আসুক।তারপর এধরনের কথা বলবেন উনি’, বলে মন্তব্য করেন তিনি ।

বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ গুজরাট নিয়ে এদিন বলতে গিয়ে বলেন ২০০২ সালের কথা ভুলে যান। বর্তমানে গুজরাটে কারো বাপের হিম্মত আছে ওখানে দাঙ্গা বাঁধাবে।বাংলায় দাঙ্গা হয়।এদিন দত্তপুকুরের সন্তোষপুরে গোশালায় গোস্টমীর গো পূজনে এসে তিনি এই কথা বলেন।তার দাবী গোপূজন সারা ভারতের সংস্কৃতি। বাংলার সীমান্ত দিয়ে যাদের মদতে গরু পাচার হয় তারা গরুর গুরুত্ব বোঝে না।তাই তার গোস্টমী ও গোপূজনও জানে না।

এখানেই উঠে আসে শোভন বৈশাখী প্রসঙ্গ ৷ সে সম্পর্কে দিলীপ ঘোষের প্রতিক্রিয়া, ‘শোভন চট্টোপাধ্যায় জানেন রাজনীতিতে কখন কি করতে হয়।সঠিক সময়ে উনি দলে হয়ে মাঠে নামবেন।আর দলে প্রত্যেকের দায়িত্ব নির্দিষ্ট। ’ তাই শোভনের সঙ্গে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব যোগাযোগ রাখছে বলে মত বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের।

Rajarshi Roy

Published by: Elina Datta
First published: November 22, 2020, 8:06 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर