Home /News /kolkata /

বিজেপিতে গুরুত্বপূর্ণ পদ পাচ্ছেন শোভন চট্টোপাধ্যায়! পদ পাচ্ছেন বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ও: সূত্র

বিজেপিতে গুরুত্বপূর্ণ পদ পাচ্ছেন শোভন চট্টোপাধ্যায়! পদ পাচ্ছেন বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ও: সূত্র

শোভনের নজরে ৫১ টি আসন ৷ মোট ৫১টি বিধানসভা কেন্দ্র নিয়ে বিজেপির কলকাতা জোন ৷ জোনে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ৩১, কলকাতার ১১ এবং উত্তর ২৪ পরগনার ৯ আসন ৷ এরমধ্যে ২০১৬-র বিধানসভা ভোটে ৪৭ আসনে জেতে তৃণমূল ২০১৯-র লোকসভা ভোটের নিরিখে দক্ষিণ ২৪ পরগনার সব আসনে এগিয়ে তৃণমূল ৷ কলকাতায় ৮ আসনে এগিয়ে তৃণমূল, ৩ আসনে বিজেপি ৷ উত্তর ২৪ পরগনার ৯ আসনের মধ্যে ২ আসনে বিজেপি এগিয়ে ছিল ৷ ২ বিধায়ক শোভন চট্টোপাধ্যায়, সব্যসাচী দত্ত এখন বিজেপি নেতা ৷ কলকাতার প্রাক্তন মেয়র শোভন তৃণমূলের দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার সভাপতিও ছিলেন কলকাতার জোনের কমপক্ষে অর্ধেক আসন জেতার টার্গেটে নামছে বিজেপি ৷ তথ্য- সোমরাজ বন্দ্যোপাধ্যায়

শোভনের নজরে ৫১ টি আসন ৷ মোট ৫১টি বিধানসভা কেন্দ্র নিয়ে বিজেপির কলকাতা জোন ৷ জোনে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ৩১, কলকাতার ১১ এবং উত্তর ২৪ পরগনার ৯ আসন ৷ এরমধ্যে ২০১৬-র বিধানসভা ভোটে ৪৭ আসনে জেতে তৃণমূল ২০১৯-র লোকসভা ভোটের নিরিখে দক্ষিণ ২৪ পরগনার সব আসনে এগিয়ে তৃণমূল ৷ কলকাতায় ৮ আসনে এগিয়ে তৃণমূল, ৩ আসনে বিজেপি ৷ উত্তর ২৪ পরগনার ৯ আসনের মধ্যে ২ আসনে বিজেপি এগিয়ে ছিল ৷ ২ বিধায়ক শোভন চট্টোপাধ্যায়, সব্যসাচী দত্ত এখন বিজেপি নেতা ৷ কলকাতার প্রাক্তন মেয়র শোভন তৃণমূলের দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার সভাপতিও ছিলেন কলকাতার জোনের কমপক্ষে অর্ধেক আসন জেতার টার্গেটে নামছে বিজেপি ৷ তথ্য- সোমরাজ বন্দ্যোপাধ্যায়

ঠিক কী পদ দেওয়া হতে পারে শোভন চট্টোপাধ্যায়কে, এ নিয়ে কৌতুহল এখন চরমে উঠেছে।

  • Share this:

#কলকাতা: বিজেপিতে গুরুত্ব বাড়ছে শোভন চট্টোপাধ্যায়ের। অন্তত শুক্রবার রাতে অরবিন্দ মেনন দের সঙ্গে বৈঠকের পর সেই সম্ভাবনাটাই জোরালো হচ্ছে। সূত্রের খবর সব ঠিকঠাক থাকলে চলতি বছরের শেষের দিক থেকেই বিজেপির হয়ে সক্রিয়ভাবে দেখা যেতে পারে শোভন চট্টোপাধ্যায় কে।দেখা যেতে পারে বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায় কেও। বিধানসভা নির্বাচনকে মাথায় রেখে বিজেপি নেতৃত্ব শোভন চট্টোপাধ্যায় কে গুরুত্বপূর্ণ পদ দিতে চলেছেন। শুক্রবার এর বৈঠকের পর তেমনটাই খবর সূত্র মারফত। শোভন চট্টোপাধ্যায়ের পাশাপাশি বিজেপিতে পদ পাচ্ছেন বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ও। সূত্রের খবর, শুক্রবারের বৈঠক ইতিবাচক হয়েছে। শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়কে পদ দেওয়া নিয়ে খুব শীঘ্রই ঘোষণা হতে পারে বলেও সূত্র মারফত জানা গিয়েছে। জানা গিয়েছে শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ের পদ ঘোষণার পরপরই আনুষ্ঠানিকভাবে বিজেপির প্রচার ময়দানে দেখা যেতে পারে এই দুইজনকে। যদিও এই বিষয় নিয়ে কোনও কথা বলতে চাননি বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়।

শোভন চট্টোপাধ্যায়কে সক্রিয় করার চেষ্টায় বিজেপি নেতৃত্ব শুক্রবার ফের পৌঁছে যান গোলপার্কের ফ্ল্যাটে। ওই দিন রাতেই শোভন চট্টোপাধ্যায় বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ের ফ্ল্যাটে যান বিজেপির কেন্দ্রীয় পর্যবেক্ষক অরবিন মেনন এবং রাজ্য সাধারণ সম্পাদক ( সংগঠন) অমিতাভ চক্রবর্তী। ভাই ফোটার পর শুক্রবার রাতে অরবিন্দ মেননরা যাওয়ায় তাদেরকে উপহার তুলে দেন বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়। মূলত বিজেপিতে যোগদানের পর থেকেই সক্রিয় ভাবে দেখা যায়নি শোভন চট্টোপাধ্যায় কে। বরং রাজ্য বিজেপি নেতাদের একাংশের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়। এমনকি সেই ক্ষোভের কথা পৌঁছে গিয়েছিল অমিত শাহ পর্যন্ত।

এরপরে রাজ্য বিজেপির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে অমিতাভ চক্রবর্তী দায়িত্ব নেওয়ার পর পরেই কার্যত হাওয়া ঘুরতে থাকে। দায়িত্ব নেওয়ার পরে তিনি বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায় এর সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেন  বলেই জানা গিয়েছিল। এমনকি কলকাতায় সম্প্রতি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ যখন এসেছিলেন তখন শোভন-বৈশাখী সঙ্গে দেখা করিয়ে দেওয়ার হিসেবে মূল কাজটি করেছিলেন অমিতাভ চক্রবর্তী বলেই সূত্রের খবর। সেই বৈঠকে অমিত সাহার কাছে বেশ কিছু খবর জানানো হয় শোভন-বৈশাখী তরফে বলেই জানা গেছিল। যদিও সেই বৈঠকের পরেরদিন বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায় দাবি করেছিলেন বৈঠক অত্যন্ত ইতিবাচক ও ফলপ্রসূ হয়েছে।

কিন্তু খোদ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকের পরেও শোভন চট্টোপাধ্যায় কে রাজ্য বিজেপির কোনো কর্মসূচিতে সে অর্থে দেখা যায়নি গত কয়েকদিন। গত ১৮ থেকে ২০ নভেম্বর কলকাতায় বিজেপির জোন ভিত্তিক সাংগঠনিক বৈঠকেও গরহাজির ছিলেন তিনি। শুক্রবার সাংগঠনিক বৈঠক শেষ হতেই রাত সাড়ে নটা নাগাদ শোভন-বৈশাখী দক্ষিণ কলকাতার ফ্ল্যাটে পৌঁছে যান অরবিন্দ মেনন ও অমিতাভ চক্রবর্তীরা।

তবে শুক্রবারের সাক্ষাতের পর বিজেপিতে সক্রিয়ভাবে শোভন চট্টোপাধ্যায়কে দেখতে পাবার সম্ভাবনা অনেকটাই উজ্জ্বল হয়েছে বলেই ওয়াকিবহাল মহল মনে করছে। যদিও বিজেপিতে গুরুত্বপূর্ণ পদ দেওয়া হলেও ঠিক কী পদ দেওয়া হতে পারে শোভন চট্টোপাধ্যায়কে, এ নিয়ে কৌতুহল এখন চরমে উঠেছে। কারণ বিজেপিতে যোগদানের পর থেকেই তার সঙ্গে দলীয় নেতাদের মান অভিমান পর্ব চলছেই। অনেকবারই নেতারা মনে করেছেন সব জটিলতা কাটিয়ে সক্রিয় হবেন শোভন চট্টোপাধ্যায়। কিন্তু আদতে গত কয়েক মাস ধরে শোভন চট্টোপাধ্যায় কে সক্রিয় ভাবে দেখা যায়নি বিজেপি শিবিরে। তাই এবার বিধানসভা নির্বাচনের প্রাক্কালে শোভন চট্টোপাধ্যায় কে সক্রিয়ভাবে চাইছেন বিজেপি নেতারা। তাই এখন শুধু সময়ের অপেক্ষা কি গুরুত্বপূর্ণ পদ পেতে চলেছেন শোভন চট্টোপাধ্যায় বিজেপিতে।

-সোমরাজ বন্দ্যোপাধ্যায়

Published by:Arka Deb
First published:

Tags: Bengal Election 2021, BJP, Sovon Chatterjee

পরবর্তী খবর