Home /News /kolkata /
Covid 19: বাড়ছে সংক্রমণ! করোনা রুখতে একগুচ্ছ নতুন নির্দেশিকা জারি করা হল রাজ্যে

Covid 19: বাড়ছে সংক্রমণ! করোনা রুখতে একগুচ্ছ নতুন নির্দেশিকা জারি করা হল রাজ্যে

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

Covid 19: রাজ্য সরকারের প্রকাশ করা কোভিড বুলেটিনে দেখা গিয়েছে, এখনও আক্রান্তের তুলনায় দৈনিক সুস্থতার পরিমাণ অনেকটা কম রয়েছে।

  • Share this:

#কলকাতা: রাজ্যে নতুন করে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। সেই পরিস্থিতিতে সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে একগুচ্ছ নির্দেশিকা জারি করল রাজ্য। রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতরের তরফ থেকে এই নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। রাজ্যে দৈনিক করোনা সংক্রমণের হার আগের থেকে অনেকটাই বেড়েছে। প্রায় দেড় হাজার পেরিয়ে গিয়েছে রাজ্যের দৈনিক করোনা সংক্রমণ। শেষ ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে রাজ্যে ১ হাজার ৫২৪ জন করোনা আক্রান্তের সন্ধান পাওয়া গিয়েছে। উল্লেখযোগ্য ভাবে বেড়েছে করোনা সংক্রমণের হারও। শেষ ২৪ ঘণ্টায় মোট ১১ হাজার ৮২৭ জনের করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে, ফলে সংক্রমণের হার চোখ রাঙাচ্ছে ১২ শতাংশের উপরে।

এক নজরে দেখে নেওয়া যাক, রাজ্যে করোনা সংক্রমণ রুখতে নতুন করে কী কী নির্দেশিকা জারি করেছে রাজ্য সরকার।

* একমাত্র উপসর্গহীন এবং সমস্ত ডোঝ ভ্যাকসিন নেওয়া ব্যক্তিরাই কোনও জনসমাগমে হাজির হতে পারবেন।

* প্রত্যেকের প্রাথমিক ভাবে টিকাকরণ জরুরি এবং বুস্টার ডোজ দিতে হবে। সরকারকে প্রয়োজনে বাড়ি বাড়ি পৌঁছে টিকাকরণের কাজ সম্পূর্ণ করতে হবে।

আরও পড়ুন: মহারাষ্ট্রের নতুন মুখ্যমন্ত্রী একনাথ শিন্ডে, সমর্থন জানিয়ে ঘোষণা বিজেপি-র! আজই শপথ

* বয়স্ক মানুষদের, যাদের কো- মর্বিডিটি আছে, তাঁদের অবশ্যই বুস্টার ডোজ সম্পূর্ণ করতে হবে

* স্বাস্থ্যকর্মী এবং প্রথম সারির করোনা যোদ্ধারা, যাঁরা সাধারণ মানুষের সংস্পর্শে আসছেন, তাঁদের অবশ্যই সম্পূর্ণ টিকাকরণ করতে হবে।

* সাধারণ মানুষ, যাঁরা বিভিন্ন জনসমাগমে উপস্থিত হবেন, তাঁদের অবশ্যই মাস্ক পরা, স্যানিটাইজার বা সাবান ব্যবহার করা এবং শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখতে হবে।

* জনসমাগম, গণপরিবহণ এবং বাজার ও শপিং মল অবশ্যই সঠিকভাবে স্যানিটাইজ করতে হবে, ভেন্টিলেশন অর্থাৎ হাওয়া বাতাস চলাচলক করতে পারে, এমন ব্যবস্থা ভালভাবে থাকতে হবে।

* পাবলিক প্লেসে বা সাধারণের জন্য যে স্থান, সেখানে থার্মাল স্ক্যানিং এবং সঠিক স্যানিটাইজেশনের ব্যবস্থা থাকতে হবে।

আরও পড়ুন - এই মুহূর্তে দেশের পরিস্থিতি দেখে আমার ভয় করে, শুধু সহিষ্ণুতা নয়, ভারতে ঐক্য চাই

রাজ্য সরকারের প্রকাশ করা কোভিড বুলেটিনে দেখা গিয়েছে, এখনও আক্রান্তের তুলনায় দৈনিক সুস্থতার পরিমাণ অনেকটা কম রয়েছে। শেষ ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে সুস্থ হয়েছেন ৪১৪ জন। যদিও শতাংশের বিচারে করোনার সুস্থতার পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৯৮.৬১ শতাংশে। শেষ ২৪ ঘণ্টায ১ জনের করোনায় মৃত্যু হয়েছে। রাজ্যে এখন সক্রিয় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ৯৯৪। এর মধ্যে হোম আইসোলেশনে রয়েছেন ৬ হাজার ৬৯১ জন ও হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে ৩০৩ জনকে।

Abhijit Chanda

Published by:Uddalak B
First published:

Tags: Coronavirus

পরবর্তী খবর