Bengal 7th Phase Election: রাত পোহালেই আরও একদফা, গোটা বাংলার নজর থাকবে ওঁদের দিকে

Bengal 7th Phase Election: রাত পোহালেই আরও একদফা, গোটা বাংলার নজর থাকবে ওঁদের দিকে

কাল লড়াইয়ের ময়দানে, ফিরহাদ হাকিম, রুদ্রনীল ঘোষ, ঐশী, সায়নীরা।

৫ জেলার ৩৪ আসনে ভোট হবে এই দফায়, ভাগ্যপরীক্ষায় বসবেন পুরনো নতুন মিলিয়ে মোট ২৩৪ জন।

  • Share this:

    #কলকাতা: শিয়রে করোনার শমন। তার মধ্যেই রাত পোহালে সপ্তম দফা ভোট। ৫ জেলার ৩৪ আসনে ভোট হবে এই দফায়, ভাগ্যপরীক্ষায় বসবেন পুরনো নতুন মিলিয়ে মোট ২৩৪ জন। তবে এর মধ্যে নজর থাকবে এরই মধ্যে কয়েকজনের দিকে।

    নির্বাচনী রাজনীতিতে পদার্পনের সুবর্ণজয়ন্তীতেও অগ্নিপরীক্ষা দেবেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়। বালিগঞ্জ কেন্দ্রে তাঁর বিরুদ্ধে সিপিআই-এম প্রার্থী ফুয়াদ হালিম। জনসমর্থনের প্রশ্নে তিনিও কোনও ভাবেই কম যান না। ইতিমধ্যেই এই করোনা যুদ্ধে আক্রান্ত হয়ে সেরে উঠেই প্লাজমা দান করে নজর কেড়েছেন আমজনতার। কাজেই বালিগঞ্জে লড়াই এবার অভিজ্ঞতা বনাম তরুণের স্বপ্নের।

    এই পর্বে ভোটগ্রহণ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ঘরের মাঠ ভবানীপুরেও। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিজে এই কেন্দ্রে না দাঁড়ালেও, তাঁর হয়ে যিনি লড়ছেন, সেই শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়ের জনপ্রিয়তা, বিশ্বাসযোগ্যতা প্রশ্নাতীত। মৃদুভাষী কাজের মানুষ বলে পরিচিত, রাজ্যের বিদ্যুৎমন্ত্রী শোভনদেবের পরিবার দক্ষিণ কলকাতার বাসিন্দা দুই শতকের বেশি সময় ধরে। তাঁর সঙ্গে লড়াইয়ের ময়দানে কাল অগ্নিপরীক্ষা দেবেন, ভোটের মুখে দলত্যাগ করে বিজেপিতে যোগ দেওয়া অভিনেতা রুদ্রনীল ঘোষ। এই লড়াইয়ের শেষে তাঁর মুখে হাসিটুকু ধরা থাকে কিনা তা দেখতে অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করবে সাধারণ মানুষ।

    এই দফাতেই ভাগ্য পরীক্ষা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের অতি ঘনিষ্ঠজন, রাজ্যের পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমেরও। এবার জিতলে কলকাতা বন্দর অঞ্চলে জয়ের হ্যাট্রিক করবেন ফিরহাদ।

    আসানসোল উত্তরে এবারে তৃতীয় বারের জন্য প্রার্থী রাজ্যের আরেক মন্ত্রী মলয় ঘটক। আইন ও শ্রমমন্ত্রীও এবার জিতলে হ্যাট্রিক করবেন। যদিও জনতার নজরে সমান ভাবে থাকবে আসানসোল দক্ষিণ। তার কারণ নির্বাচনের ঠিক আগেই তৃণমূলে যোগ দিয়ে টিকিট নিয়েছেন সায়নী ঘোষ। প্রাণবন্ত সায়নী এক কথায় প্রচারে ঝড় তুলেছেন। সেই ঝড় ব্যালেটবক্সে প্রভাব ফেলে কিনা সেটাই দেখতে চাইবে মানুষ। সায়নীর বিরুদ্ধে যিনি লড়ছেন, বিজেপির প্রার্থী অগ্নিমিত্রা পালও ধারে ও ভারে কম যান না।

    উৎসাহ থাকবে পাণ্ডবেশ্বর কেন্দ্রটি নিয়েও। কেননা এবারেও সেখানে প্রার্থী জীতেন্দ্র তিওয়ারি। তবে তৃণমূল নয় বিজেপির হয়ে লড়ছেন জীতেন্দ্র। অন্য দিকে সুদূর দিল্লির জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এসে মাটি কামড়ে পড়ে রয়েছেন ঐশী ষোষ। জামুরিয়ার মাটিতে আগামী কাল লড়াই তাঁর।

    এছাড়া দেশজোড়া খ্যাতিসম্পন্ন অর্থনীতিবিদ অশোক লাহিড়ি বিজেপির হয়ে লড়ছেন বালুরঘাট থেকে। তিনি এই ছোট ময়দানে কতটা সাফল্য পান তা জানতে উন্মুখ বাংলার সাধারণ ভোটাররা।

    Published by:Arka Deb
    First published: