বিচারপতি কারনানের মানসিক স্বাস্থ্য পরীক্ষার নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের– News18 Bengali

বিচারপতি কারনানের মানসিক স্বাস্থ্য পরীক্ষার নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের

বিচারপতি সি এস কারনানের শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্যপরীক্ষার নির্দেশ দিল শীর্ষ আদালত ৷

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:May 02, 2017 01:22 PM IST
বিচারপতি কারনানের মানসিক স্বাস্থ্য পরীক্ষার নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:May 02, 2017 01:22 PM IST

#নয়াদিল্লি: কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি সি এস কারনানের মানসিক সুস্থতা নিয়েই সংশয়।এবার তার স্বাস্থ্য পরীক্ষার নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট। শীর্ষ আদালত জানায়, ৮ ফেব্রুয়ারির পর কারনানের দেওয়া সব নির্দেশ গুরুত্বহীন। বিচারপতি কারনানের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগের মামলায় সুপ্রিম কোর্টের সাত বিচারপতিকে নিয়ে গড়া বেঞ্চ সোমবার কারনানের স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য একটি বোর্ড গঠনের নির্দেশ দিয়েছে ৷

সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে ৪ মে একটি মেডিক্যাল বোর্ড গঠন করা হবে। কারনানের স্বাস্থ্য পরীক্ষার সেই রিপোর্ট ৮ মে-এর মধ্যে সুপ্রিম কোর্টে পাঠাতে হবে। সেই রিপোর্টর ভিত্তিতে ৯ মে পরবর্তী সিদ্ধান্ত জানাবে শীর্ষ আদালত। শীর্ষ আদালতের নির্দেশ পালনে সাহায্য করবে ডিজি। মেডিক্যাল বোর্ডকেও সাহায্য করবে ডিজি।

একইসঙ্গে পশ্চিমবঙ্গের ডিজি-কে বিশেষ দল তৈরির নির্দেশ দিয়েছে শীর্ষ আদালত ৷ কোর্টের নির্দেশ পালনে সাহায্য করবে ডিজি-র তৈরি এই বিশেষ দল ৷

৫ মে বিচারপতি সি এস কারনানের স্বাস্থ্য পরীক্ষার দিন হিসেবে ধার্য করেছে সুপ্রিম কোর্ট ৷ মেডিক্যাল বোর্ডকে ৮ মে বা তার আগে শীর্ষ আদালতের কাছে রিপোর্ট জমা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে ৷

একইসঙ্গে ৮ ফেব্রুয়ারির পর কারনানের দেওয়া সমস্ত নির্দেশ গুরুত্বহীন বলে জানিয়েছে সু্প্রিম কোর্ট ৷ সেই মর্মে সব আদালত, কমিশনকে নির্দেশিকা পাঠাল কোর্ট ৷

বিচারপতি সি এস কারনানের বিরুদ্ধে ১০ মার্চ জামিনযোগ্য গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে সুপ্রিম কোর্ট। পশ্চিমবঙ্গের ডিজিকে পরোয়ানা জারির নির্দেশ দেয় শীর্ষ আদালত। ১০ হাজার টাকার বন্ড দিয়ে জামিন নেওয়ার নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের। আজ সেই পরোয়ানারই নোটিস দিতে যান ডিজি ও বিধাননগরের সিপি। আদালত অবমাননার অভিযোগে কারনানকে শোকজ করা হয়। ১৩ ফেব্রুয়ারি সুপ্রিম কোর্টে হাজিরার নির্দেশ দেওয়া হয়। সুপ্রিম কোর্টের ৭ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চের সামনে হাজিরা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়। সুপ্রিম কোর্টে হাজিরা দেননি কারনান। তারপরেই জামিনযোগ্য গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে সুপ্রিম কোর্ট।

Loading...

আদালত বসিয়ে গ্রেফতারি পরোয়ানা খারিজ করলেন সি এস কারনান। নিউটাউনে নিজের বাড়িতে আদালত বসিয়ে গ্রেফতারি পরোয়ানা খারিজ করলেন হাই কোর্টের বিচারপতি সিএস কারনান। তাঁর বাড়িতে গ্রেফতারি পরোয়ানার নোটিস দিতে যান ডিজি।

এর আগে বেশ কয়েকজন বিচারপতির বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ উঠলেও বিচারপতি কারনানের ঘটনা

রীতিমতো নজিরবিহীন।

- চেন্নাই হাইকোর্টের বিচারপতি সঞ্জয় রঞ্জন কলকে আদালত আদালত অবমাননা যোগ্য হুমকির অভিযোগ

- চেন্নাই হাইকোর্ট থেকে নিজের রুটিল বদলির সিদ্ধান্তে নিজেই স্থগিতাদেশ দেন

- তৃতীয় ঘটনাটি এরাজ্যের। পোস্তা উড়ালপুল কাণ্ডের অভিযুক্তের জামিন নাকচ করেও ভরা আদালতে ১৮০ ডিগ্রি ঘুরে জামিন মঞ্জুর করেন

- সর্বশেষ বোমাটি ফাটিয়েছেন ২৩ জানুয়ারি --------

- সূত্রের খবর, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বিমুদ্রাকরণকে দরাজ সার্টিফিকেট দিয়ে ২০ জন বিচারপতির বিরুদ্ধে

দুর্নীতির অভিযোগ করেন

- এর মধ্যে সদ্য প্রাক্তন প্রধান বিচারপতি টিএস ঠাকুর ছাড়াও ছিলেন চেন্নাই হাইকোর্টের একাধিক বিচারপতি

এই মামলার পরবর্তী শুনানি ৯ মে ৷

First published: 02:45:52 PM May 01, 2017
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर