corona virus btn
corona virus btn
Loading

অকালবৃষ্টিতে চরম ক্ষতির মুখে ধানচাষ

অকালবৃষ্টিতে চরম ক্ষতির মুখে ধানচাষ
নিজস্ব চিত্র

হেমন্তের অকালবৃষ্টিতে চরম ক্ষতির মুখে আমন ধানের চাষ। গত দুদিনের নিম্নচাপের বৃষ্টিতে বিভিন্ন জেলায় জলে ভিজছে বিঘের পর বিঘে ধানের জমি।

  • Share this:

#কলকাতা: হেমন্তের অকালবৃষ্টিতে চরম ক্ষতির মুখে আমন ধানের চাষ। গত দুদিনের নিম্নচাপের বৃষ্টিতে বিভিন্ন জেলায় জলে ভিজছে বিঘের পর বিঘে ধানের জমি। জলে নষ্ট হয়ে কল বেরতে শুরু করেছে কেটে রাখা ধান থেকে। কিছু গাছে পোকাও ধরতে শুরু করেছে। ঋণ নিয়ে চাষ করার পর সেই টাকা শোধ করার চিন্তায় এখন ঘুম উড়েছে চাষিদের। বাজারে চালের দাম বাড়ার আশঙ্কা। এই পরিস্থিতিতে সরকারি সাহায্যের আরজি জানাচ্ছেন দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলার চাষিরা।

এমনিতেই বর্ষার অতিবৃষ্টিতে চাষের দফারফা। গোদের উপর বিষফোঁড়ার মত নিম্নচাপের নাছোড় বৃষ্টিতে নষ্ট হতে বসেছে বিঘার পর বিঘা আমন ধান ।

দুর্গাপুজোর সময়েই বন্যায় ভেসেছিল জেলা। কালীপুজোর সময়ে একদফা নিম্নচাপের বৃষ্টিতে নষ্ট হয়েছে আমনের জমি। যে জমিগুলিতে আমন ধানের গাছ বেঁচে ছিল, গত দুদিনের নিম্নচাপের বৃষ্টিতে সেগুলিও নষ্ট হতে বসেছে। এখন ধান কাটার ভরা মরসুম। হাজার হাজার বিঘের ধান কাটা অবস্থায় পড়ে আছে মাঠে। অকাল বৃষ্টিতে মাঠে কেটে রাখা ধান নষ্ট হয়ে কল বেরতে শুরু করেছে। লোকসানের আশঙ্কায় চাষিরা।

হেমন্তে অসময়ের বৃষ্টিতে ক্ষতির মুখে বারুইপুরের ধানচাষ। ধান গাছের গোড়ায় জল জমে নুয়ে পড়েছে গাছ। পোকা লাগতে শুরু করেছে। বারুইপুর ব্লকের মদারাট পঞ্চায়েতের নাজিরপুর, কালিনগর, মধুবনপুর, বিনোদপুর-সহ বিস্তীর্ণ এলাকায় ছবিটা এক। এই পরিস্থিতিতে সরকারি সাহায্যের আর্জি জানাচ্ছেন চাষিরা। বারুইপুর ব্লকের কৃষি আধিকারিক অথৈ গুপ্তর কথায়, চাষিরা রিপোর্ট দিলে দেখা হবে বিষয়টি।

কার্তিকের হঠাৎ বৃষ্টিতে আমন ধানের ক্ষতি হয়েছে ঝাড়গ্রামেও। বিঘের পর বিঘে পাকা ধান মাঠে পড়ে বৃষ্টিতে ভিজছে। ঋণ নিয়ে চাষ করার পর ভালো ফলনে খুশি ছিলেন চাষিরা। কিন্তু একদিকে হাতির তাণ্ডব, অন্যদিকে অকালবৃষ্টিতে ঋণ শোধের চিন্তায় ঘুম উড়েছে তাঁদের।

হুগলিতেও ক্ষতির মুখে আমন ধান চাষিরা। এই সময়ে আলু চাষের জন্যও মাটি তৈরি হয়। বৃষ্টির ফলে পিছিয়ে গেল আলুর চাষও। ফলে আলুর ফলন কম হওয়ার আশঙ্কা।

এই অবস্থায় বৃষ্টি কমার অপেক্ষায় এখন দক্ষিণবঙ্গের চাষিরা।

First published: November 17, 2017, 10:23 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर