• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • পার্ক স্ট্রিটে ডাকাতির ঘটনায় নজরে জিম

পার্ক স্ট্রিটে ডাকাতির ঘটনায় নজরে জিম

ভরদুপুরে আগ্নেয়াস্ত্র দেখিয়ে প্রায় তিন কোটি টাকা ডাকাতির ঘটনায় এখনও কাউকে ধরতে পারল না পুলিশ।

ভরদুপুরে আগ্নেয়াস্ত্র দেখিয়ে প্রায় তিন কোটি টাকা ডাকাতির ঘটনায় এখনও কাউকে ধরতে পারল না পুলিশ।

ভরদুপুরে আগ্নেয়াস্ত্র দেখিয়ে প্রায় তিন কোটি টাকা ডাকাতির ঘটনায় এখনও কাউকে ধরতে পারল না পুলিশ।

  • Share this:

    #কলকাতা: ভরদুপুরে আগ্নেয়াস্ত্র দেখিয়ে প্রায় তিন কোটি টাকা ডাকাতির ঘটনায় এখনও কাউকে ধরতে পারল না পুলিশ। এমনকী ওই ঘটনায় এখনও কোনও সূত্রই মেলেনি বলে খবর। বেশ কয়েকজনকে জিজ্ঞাসাবাদের পর, এখন ওই ঋণদানকারী সংস্থার উপরতলার একটি জিমের কয়েকজন গোয়েন্দাদের সন্দেহের তালিকায়।

    বিরাশি নম্বর পার্ক স্ট্রিটের স্বর্ণ ঋণ প্রদানকারী সংস্থায় গান পয়েন্টে রেখে দুঃসাহসিক ডাকাতি। শুধু তাই নয়, সংস্থার দরজার সামনের সিসিটিভির তার কেটে, ফোন ও অ্যালার্ম বিকল করে প্রায় এক ঘণ্টার নিখুঁত অপারেশন। তদন্তে নেমে গোয়েন্দাদের অনুমান, আবাসনের ভূগোল সম্পর্কে অত্যন্ত ওয়াকিবহলা কেউই এই দুঃসাহসিক ডাকাতির নেপথ্যে রয়েছে। পুলিশের নজরে তিন তলার কিক ফিটনেস জিম। কিন্তু কেন?

    গোয়েন্দাদের দাবি, -- গোল্ড লোনের অফিসের ফ্লোরে রেসিডেন্সিয়াল ফ্ল্যাট থাকলেও সেই ফ্ল্যাটে পৌঁছনোর রাস্তা আলাদা -- একমাত্র তিনতলার কিক জিম ও ঋণদানকারী সংস্থার কমন সিঁড়ি -- সকাল ৬টা থেকে ১০টা পর্যন্ত জিম খোলা থাকে -- বৃহস্পতিবার দুপুরে ডাকাতির সময় জিমে অনেকেই উপস্থিত ছিলেন -- তাছাড়া হামেশাই জিমে ভরতি হতে বহু অচেনা ব্যক্তি যাতায়াত করেন -- ফলে সিসিটিভির তার ও অ্যালার্ম বিকল করে দিলে সহজেই পালানো সম্ভব বলে নিশ্চিত হয়েই ডাকাতি করে দুষ্কৃতীরা -- তাই আবাসনের রাস্তা অত্যন্ত ভালোভাবে জানা কেউই এই ঘটনায় জড়িত শুক্রবার ফের ঘটনাস্থলে যান ডিসি ইএসডি দেবস্মিতা দাস। জিমের কর্মীদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। ডেকে পাঠানো হয় ঘটনার সময় উপস্থিত এক মহিলা গ্রাহককেও। তাঁর বয়ান অনুযায়ী দুষ্কৃতীদের স্কেচ তৈরি করছেন গোয়েন্দারা।

    First published: