নিমতা খুনে রাতভর জেরা, চলছে খুনে ব্যবহৃত আগ্নেয়াস্ত্রের খোঁজ

দেবাঞ্জন খুনে দোষ কবুল প্রিন্সের। পুলিশের তেমনই দাবি। শনিবার বিরাটিতে দেবাঞ্জন খুনে শনিবার বজবজ থেকে গ্রেফতার করা হয় দুর্গানগরের বাসিন্দা প্রিন্স সিং-কে

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Oct 21, 2019 09:53 AM IST
নিমতা খুনে রাতভর জেরা, চলছে খুনে ব্যবহৃত আগ্নেয়াস্ত্রের খোঁজ
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Oct 21, 2019 09:53 AM IST

#কলকাতা: নিমতা খুনে রাতভর জেরা ! নিমতা থানায় মুখোমুখি বসিয়ে গভীর রাত পর্যন্ত জেরা প্রিন্স ও বিশালকে। সিসিটিভি ফুটেজ দেখিয়ে জেরা করা হয় দু’জনকে। পাশাপাশি, বেলঘরিয়া থানায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় আরও দু’জনকে। খুনে ব্যবহৃত আগ্নেয়াস্ত্রের খোঁজ চলছে।

দেবাঞ্জন খুনে দোষ কবুল প্রিন্সের। পুলিশের তেমনই দাবি। শনিবার বিরাটিতে দেবাঞ্জন খুনে শনিবার বজবজ থেকে গ্রেফতার করা হয় দুর্গানগরের বাসিন্দা প্রিন্স সিং’কে। ঘটনায় গ্রেফতার বিশাল মারুর কাছ থেকেই প্রিন্সের ডেরার হদিশ পায় পুলিশ। রাতেই বেলঘরিয়া থানায় শুরু হয় প্রিন্সকে জেরা। প্রথমে তথ্য দিতে অস্বীকার করায় বিশালকে মুখোমুখি বসিয়ে জেরা করা হয়। পুলিশের দাবি,  প্রথমে খুনের হুমকিতে কাজ না হওয়ায়, নবমীর রাতেই বিরাটি রেলগেটের কাছে দেবাঞ্জনের উপর হামলা করে প্রিন্স। দেশি বন্দুক দিয়ে দেবাঞ্জনকে গুলি করা হয়।

কিন্তু কেন এই হামলা? জেরায় প্রিন্স জানিয়েছে, তিন মাস আগে প্রেম ভেঙে যায়। তার বান্ধবীর সঙ্গেই সম্পর্ক তৈরি হয় দমদমের দাগা কলোনির বাসিন্দা দেবাঞ্জনের। যা মেনে নিতে পারেনি প্রিন্স। দেবাঞ্জন খুনে প্রিন্সকে সাহায্য করে দমদমের বাসিন্দা বিশাল মারু। নবমীর রাতে প্রেমিকাকে নিয়ে সল্টলেকের পাবে যায় দেবাঞ্জন। সেখানে ছিল বিশালও। সেক্টর থ্রির আরেকটি রেস্তোরাঁয় বসে বিশালের কাছ থেকেই দেবাঞ্জনের গতিবিধির খবর পাচ্ছিল প্রিন্স। দেবাঞ্জন প্রেমিকাকে পৌঁছে দিয়ে ফেরার সময় স্কুটার নিয়ে তার গাড়িকে ধাওয়া করে প্রিন্স। বিরাটি পাঁচ নম্বর রেলগেটের কাছে দেবাঞ্জনকে দু-দুটো গুলি করা হয়। সিসিটিভি ফুটেজে একটি বাইকের ছবিও ধরা পড়েছে বলে পুলিশের দাবি।

First published: 09:53:35 AM Oct 21, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर