Home /News /kolkata /
Perished Deadbody Rescued In Kolkata: স্বামীর পর স্ত্রী...একই বাড়ি থেকে পাঁচ মাস অন্তর দুটি পচা-গলা দেহ উদ্ধার

Perished Deadbody Rescued In Kolkata: স্বামীর পর স্ত্রী...একই বাড়ি থেকে পাঁচ মাস অন্তর দুটি পচা-গলা দেহ উদ্ধার

গত বছর ২২নভেম্বর গড়ফার ৩২এ কেপি রায় লেনের বাড়ি থেকে বছর ৭০-এর সংগ্রাম দে-র মৃত দেহ কঙ্কাল অবস্থায় উদ্ধার হয়েছিল

  • Share this:

#কলকাতা: পাশের বিছানায় মায়ের পচা-গলা দেহ, তার পাশেই শুয়ে রয়েছে ছেলে। এই দৃশ্য যেন শহর কলকাতার প্রচলিত ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে। গত ছ মাসে বেশ কয়েকটি মৃতদেহ একই ভাবে উদ্ধার করা হয়েছে। কোথাও মৃত ছেলে-মেয়ের দেহ আগলে রয়েছে মা, কোথাও আবার মা-বাবার মৃতদেহ আগলে রয়েছে ছেলে কিংবা মেয়ে (Perished Deadbody Rescued In Kolkata)।

গত বছর ২২নভেম্বর গড়ফার ৩২এ কেপি রায় লেনের বাড়ি থেকে বছর ৭০-এর সংগ্রাম দে-র মৃত দেহ কঙ্কাল অবস্থায় উদ্ধার হয়েছিল। সোমবার  তাঁর স্ত্রী অরুণা দে-র পচা গলা দেহ উদ্ধার করা হয় সেই বাড়ি থেকেই (Perished Deadbody Rescued In Kolkata)। ৬৮ বছরের বৃদ্ধা অরুণা দে দীর্ঘদিন ধরেই অসুস্থ ছিলেন। স্বামীর মৃত্যুর পর এলাকার লোকজন খোঁজখবর রাখতেন। ছেলে কৌশিক(৪০) মানসিক ভারসাম্যহীন। বলা বাহুল্য, পরিবারের সার্বিক পরিস্থিতি খুব খারাপ ছিল।

আরও পড়ুন: মহিলা মন্ত্রীদের আচরণে প্রশ্ন, তিন দিনে বৈঠক ডাকতে বললেন রাজ্যপাল! নাকচ স্পিকারের

স্থানীয়দের দাবি, সংগ্রাম দে বেঁচে থাকাকালীন সবার সঙ্গে যোগাযোগ রাখতেন। উনি মারা যাওয়ার পর তাঁর বাড়ির কেউ আর পাড়া-প্রতিবেশীদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতেন না।  গত ৬-৭ দিন ওই বাড়িতে আলো জ্বলেনি, দরজা-জানালা বন্ধ ছিল। মঙ্গলবার সকালে স্থানীয়রা ডাকাডাকি করে কোনও সাড়া না পেয়ে  পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ এসে দরজা ভেঙে বাড়িতে ঢোকে এবং অরুণার মৃতদেহ উদ্ধার করে।

আরও পড়ুন: বিছানায় স্বামীর দেহ, ঘরে বন্দি স্ত্রী! পুলিশ গ্রেফতার করল স্ত্রীকেই, মারাত্মক ঘটনা চক্রবেড়িয়ায়

পুলিশের ধারণা অরুণার দেহ আনুমানিক তিন দিন আগের মৃত। গড়ফা থানার পুলিশ দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালে পাঠায়। জানা যায়, ছেলে কৌশিক পাশের বিছানায় একেবারে অসাড় ভাবে পড়েছিল। বিছানা থেকে ওঠা কিংবা কাউকে খবর দেওয়ার ক্ষমতা তাঁর ছিল না। পুলিশ তাঁকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য এসএসকেএম হাসপাতালে পাঠিয়েছে।   একই বাড়িতে পাঁচ মাস অন্তর পরপর দুটি পচা-গলা মৃতদেহ পাওয়া গেল।

Published by:Rukmini Mazumder
First published:

Tags: Kolkata

পরবর্তী খবর