• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • লেকটাউনের দক্ষিণদাড়ি বাসস্ট্যান্ডে মহিলাকে শ্লীলতাহানি ! গ্রেফতার অভিযুক্ত

লেকটাউনের দক্ষিণদাড়ি বাসস্ট্যান্ডে মহিলাকে শ্লীলতাহানি ! গ্রেফতার অভিযুক্ত

অভিযুক্ত ব্যক্তি টালিগঞ্জ থানার রাসবিহারী এলাকার বাসিন্দা বলে জানিয়েছে পুলিশ।

অভিযুক্ত ব্যক্তি টালিগঞ্জ থানার রাসবিহারী এলাকার বাসিন্দা বলে জানিয়েছে পুলিশ।

অভিযুক্ত ব্যক্তি টালিগঞ্জ থানার রাসবিহারী এলাকার বাসিন্দা বলে জানিয়েছে পুলিশ।

  • Share this:

    #কলকাতা: লেকটাউনের দক্ষিণদাড়ি এলাকায় এক মহিলাকে শ্লীলতাহানি করার অভিযোগে রাম বাবু নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করল বিধাননগর গোয়েন্দা এবং লেকটাউন থানার পুলিশ। অভিযুক্ত ব্যক্তি টালিগঞ্জ থানার রাসবিহারী এলাকার বাসিন্দা বলে জানিয়েছে পুলিশ।

    পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত সেপ্টেম্বর মাসের ২২ তারিখ সন্ধ্যা বেলায় কলকাতা বিমানবন্দর থেকে কলকাতার গাঙ্গুলি বাগান যাওয়ার জন্য একটি বেসরকারি বাসে ওঠেন ওই নির্যাতিতা।  কিছুক্ষণের মধ্যে বাসের কন্ডাক্টর তাকে জানায় তিনি ভুল বাসে উঠেছেন। এরপর ওই মহিলা ভিআইপি রোডের দক্ষিণ দাঁড়ি বাসস্ট্যান্ডে নেমে যান এবং অন্য কোনও যানবাহনের জন্য বাস স্টপে অপেক্ষা করতে থাকেন। কিছুক্ষণ পরে এক ব্যক্তি মদ্যপ অবস্থায় সেখানে এসে তাঁর প্রতি কুৎসিত মন্তব্য করতে শুরু করে এবং তাঁর শ্লীলতাহানি করার চেষ্টা করে। ওই মহিলা ফেসবুক লাইভের মাধ্যমে পুরো ঘটনাটি ভিডিও করেন এবং নিজের টাইমলাইনে পোস্ট করেন। এটি দেখার পরে বিধাননগর গোয়েন্দার পুলিশ এবং লেক টাউন থানার পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে মহিলার অভিযোগের ভিত্তিতে একটি নির্দিষ্ট মামলা নথিভুক্ত করে।

    ওই মহিলা অভিযুক্তের কোনও পরিচয় বিবরণ দিতে পারেনি এবং পুলিশের কাছে কেবল অভিযুক্তের ছবি ছিল। ওই ছবি নিয়েই ঘটনার তদন্ত শুরু করে লেক টাউন থানার পুলিশ এবং বিধাননগর গোয়েন্দা বিভাগের মনিটরিং সেল প্রযুক্তিগত সাহায্য নিয়ে এগোতে থাকে। অভিযুক্ত ব্যক্তি অভিযোগকারীর সাথে কথোপকথনের সময় জানিয়েছিলেন যে তিনি রাসবিহারীর বাসিন্দা। বিধাননগর গোয়েন্দা টিম দক্ষতার সাথে রাসবিহারী অঞ্চলটির কয়েকটি ফোন নম্বর ট্রেস করে তার মধ্যে সঠিক নম্বরটি খুঁজে নিয়ে গতকাল, বুধবার (৩০.০৯.২০২০) অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে। আজ, বৃহস্পতিবার ধৃত রাম বাবুকে বিধাননগর মহকুমা আদালতে তোলা হবে।

    Anup Chakroborty

    Published by:Siddhartha Sarkar
    First published: