• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • অ্যাপোলো তদন্তে এবার সাইবার সেল

অ্যাপোলো তদন্তে এবার সাইবার সেল

অ্যাপোলো তদন্তে এবার লালবাজারের সাহায্য নিচ্ছেন তদন্তকারীরা ৷

অ্যাপোলো তদন্তে এবার লালবাজারের সাহায্য নিচ্ছেন তদন্তকারীরা ৷

অ্যাপোলো তদন্তে এবার লালবাজারের সাহায্য নিচ্ছেন তদন্তকারীরা ৷

  • Share this:

    #কলকাতা: অ্যাপোলো তদন্তে এবার লালবাজারের সাহায্য নিচ্ছেন তদন্তকারীরা ৷ অ্যাপোলো হাসপাতালে সঞ্জয় রায়ের মৃত্যুতে কার গাফিলতি এবং কার নির্দেশে অতিরিক্ত বিল বানানো হয় তা জানতেই সাইবার সেলের সাহায্য নিচ্ছে যৌথ তদন্তকারী দল ৷

    বিলে কারচুপিতে কর্তৃপক্ষের কী ভূমিকা? নিজেদের মধ্যে ই-মেল ও SMS-এ কী কথা হয়েছিল তাদের? সাইবার বিশেষজ্ঞদের সাহায্যে তা জানতেই চেষ্টা করছেন তদন্তকারীরা ৷

    অন্যদিকে, অ্যাপোলোর COO জয় বসুকে বুধবার সাড়ে ৪ ঘণ্টা ধরে জেরা করে ফুলবাগান থানার পুলিশ ৷ রাত সাড়ে ১২টা নাগাদ ছাড়া হয় তাঁকে ৷

    স‍‍ঞ্জয় রায়ের মৃত্যু তদন্তে আরও চাপে অ্যাপোলো। পদত্যাগ করেও রেহাই মেলেনি অ্যাপোলোর প্রাক্তন পূর্বাঞ্চলীয় অধিকর্তা রূপালি বসুর। মঙ্গলবার সিইও রানা দাশগুপ্ত ও রূপালি বসুকে ফুলবাগান থানায় তলব করে বয়ান রেকর্ড করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে একাধিক অসঙ্গতি মিলেছে। বাড়তি বিল যে নেওয়া হয়েছিল, তা একপ্রকার মেনে নিয়েছেন সিইও রানা দাশগুপ্ত।

    বাড়তি বিলের চাপ, চিকিৎসায় গাফলিতি থেকে এফডি জমা রাখা। সঞ্জয় রায়ের মৃত্যু তদন্তে ইতিমধ্যেই কাঠগড়ায় অ্যাপোলো। চিকিৎসায় গাফিলতিতে উঠে এসেছে মূল অভিযুক্ত ৩ চিকিৎসকের নাম। স্বাস্থ্য দফতরের তদন্ত কমিটির রিপোর্ট বলছে, অ্যাঞ্জিও এমবোলাইজেশন না করেই বিল করা হয়েছে। বিলে একাধিক কারচুপির প্রমাণও মিলেছে। কিন্তু কাদের নির্দেশে এই বিল। তা জানতে এবার অ্যাপোলোর মাথা-দের তলব করল পুলিশ। মঙ্গলবার অ্যাপোলোর প্রাক্তন পূর্বাঞ্চলীয় অধিকর্তা রূপালি বসুকে ডেকে পাঠায় ফুলবাগান থানা।

    'ওপরতলা'-র নির্দেশে এফডি জমা রাখা হয় ৷ কর্মীদের বিভিন্ন সময় জিজ্ঞাসাবাদে এই তথ্য পায় পুলিশ ৷ রূপালি বসুকে জেরায় বারবার এই প্রশ্নই উঠে এসেছে ৷ 'ওপরতলা' বলতে কাদের ইঙ্গিত? রূপালি বসু এই প্রশ্নের উত্তর এড়িয়ে যান ৷ জানতে চাওয়া হয়, বিলিং সেকশনে কারা ছিলেন ? হাসপাতালের ট্যারিফ তালিকার সঙ্গে কেন মিলছে না বিলের রেট? প্রায় ৫ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় রূপালিকে ৷

    মঙ্গলবার অ্যাপোলোর সিইও রানা দাশগুপ্তকেও ডেকে পাঠায় ফুলবাগান থানা। সাড়ে তিন ঘণ্টা জেরা করা হয় অ্যাপোলোর সিইওকে। বাড়তি বিলের অভিযোগ একপ্রকার মেনেও নিয়েছেন তিনি।

    বাড়তি বিল নিয়ে প্রশ্নে চুপ রানা দাশগুপ্ত ৷ বিল বাড়ানোর গাফিলতি প্রায় একপ্রকার মেনে নিয়েছেন অ্যাপোলো সিইও ৷ সঞ্জয় রায়ের চিকিৎসায় অভ্যন্তরীণ কমিটি গঠন হয় ৷ সেই কমিটিতে কারা ছিলেন তা নিয়ে তথ্য নেওয়া হয় ৷

    এখনও পর্যন্ত বিলের গরমিল অনেকটাই সামনে এসেছে বলে মনে করছেন তদন্তকারীরা। তবে অ্যাপোলো কর্তাদের বিরুদ্ধে চূড়ান্ত কোনও পদক্ষেপ নিতে আরও কয়েকবার জিজ্ঞাসাবাদ প্রয়োজন বলেই মনে করা হচ্ছে।

    First published: