কলকাতা

corona virus btn
corona virus btn
Loading

ফের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় ধাক্কা, প্রাথমিকে নিয়োগের নতুন বিজ্ঞপ্তিকে চ্যালেঞ্জ করে মামলা দায়ের

ফের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় ধাক্কা, প্রাথমিকে নিয়োগের নতুন বিজ্ঞপ্তিকে চ্যালেঞ্জ করে মামলা দায়ের

প্রাথমিক টেট 'অনলাইন অ্যাপ্লিকেশন' বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয় ২৩ নভেম্বর ২০২০। সেই বিজ্ঞপ্তিকেই চ্যালেঞ্জ করে মামলা করেছেন টেট উত্তীর্ণ এক পরীক্ষার্থী ৷

  • Share this:

#কলকাতা: ফের রাজ্যের শিক্ষক নিয়োগে বড়সড় ধাক্কা ৷ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের নতুন বিজ্ঞপ্তি চ্যালেঞ্জ করে মামলা দায়ের কলকাতা হাইকোর্টে।প্রাথমিক টেট 'অনলাইন অ্যাপ্লিকেশন' বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয় ২৩ নভেম্বর ২০২০। সেই বিজ্ঞপ্তিকেই চ্যালেঞ্জ করে মামলা করেছেন টেট উত্তীর্ণ এক পরীক্ষার্থী ৷  জরুরি ভিত্তিতে মামলার অনুমতি হাইকোর্টের বিচারপতি সব্যসাচী ভট্টাচার্যের।  শুক্রবার মামলার শুনানি হবে হাইকোর্টে।

২৩ নভেম্বর নতুন করে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের জন্য নোটিফিকেশন দেয় রাজ্য সরকার ৷ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে নয়া নিয়োগ প্রক্রিয়ার জন্য ২০১৪ সালের টেট উত্তীর্ণ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত প্রার্থীরাই আবেদন করতে পারবেন । পর্ষদ বিজ্ঞপ্তিতে এও জানিয়েছে যে সমস্ত প্রার্থীরা চূড়ান্ত বর্ষের প্রশিক্ষণ হওয়ার জন্য পরীক্ষা দিয়েছেন তারাও ন্যাশনাল কাউন্সিল ফর টিচার এডুকেশন এর নিয়ম অনুযায়ী আবেদন করতে পারবেন। ২০১৪ সালে যে সমস্ত প্রার্থীদের টেট উত্তীর্ণ এবং প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত হয়ে রয়েছেন তাদের নথি যাচাই করা হবে।

এই বিজ্ঞপ্তিকেই চ্যালেঞ্জ করে আদালতের দ্বারস্থ পায়েল বাগে নামে এক পরীক্ষার্থী ৷ তাঁর আবেদনের ভিত্তিতে মামলার শুনানি ৷ তিনি বলেন ২০১৪ সালে যে টেট পরীক্ষা হয়েছিল সেই পরীক্ষায় ৬টি প্রশ্ন ভুল ছিল ৷ যা নিয়ে কলকাতা হাইকোর্টে মামলাও হয় ৷ সেই রায়ে বলা হয় যে সমস্ত পরীক্ষার্থী ওই প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার চেষ্টা করেছেন তাদের সকলকে পুরো ওই ৬ প্রশ্নের মার্কস দিতে হবে ৷ দ্রুত নম্বর দিয়ে চাকরি দেওয়ার নির্দেশ ছিল কোর্টের ৷ পায়েল বাগের আইনজীবী সুদীপ্ত দাশগুপ্ত জানান," বিচারপতি সমাপ্তি চট্টোপাধ্যায়ের নির্দেশে আমার মক্কেল চাকরি পাওয়ার দাবিদার ২০১৪ টেট। তাকে বঞ্চিত করে এই প্রক্রিয়া আদতে হাইকোর্টের নির্দেশের পরিপন্থী।"

২০১৪ টেটের ওপর পর্ষদের নতুন বিজ্ঞপ্তি চ্যালেঞ্জ করে মামলা করেছেন মফিকুল ইসলামও। তাঁর আইনজীবী ফিরদৌস শামিম জানান, " একটি নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ না করে নতুন এই প্রক্রিয়া কিসের ভিত্তিতে। আমার মক্কেল নতুন করে টেট নিয়ে নতুন নিয়োগ প্রক্রিয়ার আবেদন করেছে।"

হাইকোর্টে ভর্ৎসনা ও নির্দেশ থাকার পরও সাতশোরও বেশি মামলাকারীদের চাকরি দেয়নি বোর্ড।এরপর একই নিয়োগ প্রক্রিয়ায় নতুন করে আবেদন গ্রহণ করে নিয়োগ প্রক্রিয়া কীভাবে!! এই প্রশ্ন তুলেই মামলা পায়েল বাগের । এই মামলার ফলে আরও একবার মামলা জটে রাজ্যের প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ ৷

Arnab Hazra

Published by: Elina Datta
First published: November 26, 2020, 1:28 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर