Cyclone Yaas: আগাম সতর্কতা কলকাতা বিমানবন্দরে, দুর্বার গতিতে এগোচ্ছে ইয়াস

Kolkata airport is on high alert about cyclone yaas

আমফানের থেকে শিক্ষা নিয়ে প্রস্তুত কলকাতা বিমান বন্দর৷

  • Share this:

#কলকাতা: বুধবার সকাল থেকেই পশ্চিমবঙ্গের উপকূলে আছড়ে পড়তে পারে ইয়াস ঘূর্ণিঝড়। সে কথা মাথায় রেখে সময় থাকতেই 'লাল সতর্কতা' জারি করার পাশাপাশি যাবতীয় ব্যবস্থাও নেওয়া হয়েছে। রবিবার সে কথা জানিয়েও দিয়েছেন বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ।

গত বছর আমফানে বিমানবন্দরের পার্কিং লটে দাঁড়িয়ে থাকা বেশ কয়েকটি বিমান ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এ বার তাই আগেভাগেই বিমান যাতে কোনও ভাবেই ক্ষতিগ্রস্ত না হয়, সেই ব্যবস্থা করা হয়েছে।

কলকাতা বিমানবন্দর পুরোটাই কাচের তৈরি কাঠামো। প্রচণ্ড ঝড়ের অভিঘাতে যাতে কাচের কাঠামো ভেঙে না পড়ে, তার জন্য বিশেষ ব্যবস্থা নেওয়া হয়ে। প্রচুর পরিমাণে বালির বস্তা এনে বিভিন্ন জায়গায় ঝড়ের আঘাত আটকানোর ব্যবস্থা নেওয়া।

প্রচণ্ড ঝড়ে বিমানবন্দরের ট্রলি যাতে এ-দিক ও-দিক ছিটকে গিয়ে দুর্ঘটনা ঘটায়, সে জন্য সমস্ত ট্রলি বিমানবন্দরের ভিতরে ঢুকিয়ে নেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি, যাত্রীদের ট্রলি ব্যবহারের ওপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। বিমানবন্দরের এক কর্তা বলেন, "আমফান থেকে শিক্ষা নিয়ে আমরা ইতিমধ্যেই সব রকম সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিয়েছি। নিয়মিত নজরদারির ব্যবস্থাও হয়েছে। তবে এখনই কোনও কোনও উড়ান বাতিল করা হয়নি। ঝড়ের তীব্রতা এবং অভিঘাত সম্পর্কে নিশ্চিত ধারণা পাওয়ার পরেই এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।"

আলিপুর আবহাওয়া দফতর সূত্রে খবর, শনিবার উত্তর আন্দামান সাগর ও পূর্ব-মধ্য বঙ্গোপসাগরে একটি গভীর নিম্নচাপ তৈরি হয়েছে। সেটি ২৪ মে-র মধ্যে সেটি সাইক্লোনে পরিণত হবে। পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, ঘূর্ণিঝড়টি উত্তর-পশ্চিম দিকে অভিমুখী হয়ে ক্রমশ বাংলা এবং ওড়িশা উপকূলের দিকে অগ্রসর হয়ে ২৫ মে রাত থেকে ২৬ মে সকালের মধ্যে দীঘা উপকূলে আছড়ে পড়তে পারে। যার জেরে আগামী ২৫ তারিখ মঙ্গলবার, সন্ধ্যা থেকেই দুই রাজ্যের উপকূলবর্তী এলাকায় হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাত শুরু হতে পারে। কোথাও কোথাও ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে।

SHALINI DATTA

Published by:Debalina Datta
First published: