হরিদেবপুরে দম্পতির অস্বাভাবিক মৃত্যুকে ঘিরে চাঞ্চল্য

হরিদেবপুরে দম্পতির অস্বাভাবিক মৃত্যুকে ঘিরে চাঞ্চল্য
ঘুমের ওষুধ খেয়ে ওই দম্পতি আত্মহত্যা করেছেন বলে, পুলিশের প্রাথমিক অনুমান |

ঘুমের ওষুধ খেয়ে ওই দম্পতি আত্মহত্যা করেছেন বলে, পুলিশের প্রাথমিক অনুমান |

  • Share this:

    #কলকাতা : হরিদেবপুর বয়স্ক  দম্পতির অস্বাভাবিক  মৃত্যুকে  ঘিরে চাঞ্চল্য | পুলিশ  সূত্রের খবর, মৃত দম্পতির  নাম  প্রদ্যুৎ কুমার লাহিড়ী  ও প্রণতি  লাহিড়ী  | ঘুমের ওষুধ  খেয়ে ওই দম্পতি  আত্মহত্যা  করেছেন বলে, পুলিশের প্রাথমিক অনুমান |

    পুলিশ  সূত্রের খবর, ৭৪ বছরের প্রদ্যুৎ  কুমার লাহিড়ী ও ৬৮ বছরের  প্রণতি লাহিড়ী হরিদেবপুর নবপল্লিতে ফ্ল্যাটে দীর্ঘ  বছর ধরে থাকতেন | মেয়ে মধুমিতা ডিভোর্সের  পর থেকে মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন ওই বৃদ্ধ  দম্পতি|  মেয়ে বছর খানেক ধরে এখানে ছেলেকে নিয়ে থাকছিলেন | পুলিশ সূত্রের খবর, রবিবার  ওই দম্পতির দেহ বিছানায় পরে ছিল | মুখ থেকে গাঁজলা  বেরোচ্ছিল |

    মেয়ে মধুমিতার দাবি, ‘শনিবার  জন্মদিন  ছিল ফলে মা  বাবার সঙ্গে সময় কাটান | হয় হুল্লোড়  হয়, ছবি তোলেন | কিন্তু  রবিবার  তিনি ঘুম থেকে দেরি করে ওঠেন, দেখেন তার মা ও বাবা সারা শব্দ নেই, ঘরের  বিছানায় নিথর  দেহ | তিনি সঙ্গে সঙ্গে পাশের ফ্ল্যাটের বাসিন্দাদের ডাকেন |’ এরপর  হরিদেবপুর  থানাকে খবর দেওয়া হয় | পুলিশ এসে দেহ উদ্ধার করে |


    পুলিশ প্রাথমিক ভাবে জানতে পারে, ওই দম্পতি ঘুমের মেডিসিন  খেতেন | সেই মেডিসিন  বেশি পরিমান খেয়ে আত্মঘাতী  হয়েছেন তাঁরা | ঘর থেকে উদ্ধার সুইসাইড  নোট | সেখানে উল্লেখ রয়েছে, মেয়ের ডিভোর্সের পর তাঁরা মানসিক অবসাদগ্রস্থ  হয়ে পড়েন | তার জেরেই  ওই বৃদ্ধ  দম্পতি আত্মঘাতী  হয়েছেন |

    আশপাশের ফ্ল্যাটের বাসিন্দারা জানান, প্রদ্যুৎ লাহিড়ী ব্যাংকে  কাজ  করতেন  | তবে মেয়ে গত দুবছর এখানেই থাকছেন মা বাবার সঙ্গে | মেয়ের ডিভোর্সের  পর থেকেই মানসিক অবসাদগ্রস্ত  হয়ে পড়েন তাঁরা | বেশি কারো  সঙ্গে কথাও বলতেন না | স্বাভাবিকভাবে এই ঘটনায় হতবাক আশপাশের প্রতিবেশীরা |

    প্রশ্ন  উঠছে, এক এ ফ্ল্যাটে থেকে কিছু টের পেলেন না মেয়ে? পাশাপাশি ঘরে কোনো সাড়াশব্দ  মিললো  না? মা বাবার মানসিক অবসাদে ভুগছেন জানতে পেরে কেন মেয়ে কোনো মনোবিদ  বা চিকিৎসকের  কাছে নিয়ে যাননি? শুধুই  কি মেয়ের পারিবারিক  সমস্যা বা ডিভোর্সের জন্য  আত্মঘাতী ? নাকি বৃদ্ধ দম্পতির আত্মহত্যার  পিছনে লুকিয়ে রয়েছে অন্য কোনও যন্ত্রণা?

    ইতিমধ্যে  পুলিশ মেয়ের সঙ্গে কথা বলেছে | গোটা বিষয়টা তদন্ত করে দেখছে হরিদেবপুর থানার পুলিশ |  তবে  প্রতিবেশীরা বলছেন, বৃদ্ধ বয়সে ছেলে মেয়েরাই অবলম্বন  | তাই তাঁদের মানসিক অবস্থা বা শারীরিক অবস্থা  দেখভালের  দায়িত্ব নিজের সন্তানদের | এমন ঘটনা ঘটবে  কেউ ভাবতে পারেননি  |

    অর্পিতা হাজরা

    Published by:Elina Datta
    First published: