Home /News /kolkata /
Durga Puja Dhaki| মিলল না বায়না, ঢাক কাঁধে বিসর্জনের অনেক আগেই বাড়ি ফিরলেন ওঁরা

Durga Puja Dhaki| মিলল না বায়না, ঢাক কাঁধে বিসর্জনের অনেক আগেই বাড়ি ফিরলেন ওঁরা

সপ্তমীতেই ঘরমুখো বহু ঢাকি।

সপ্তমীতেই ঘরমুখো বহু ঢাকি।

Durga Puja Dhaki| বাজেটের অভাব মন্ডপে কমেছে ঢাকির সংখ্যা। 

  • Share this:

#কলকাতা: পুজোর আনন্দে অনেকে মশগুল। অনেকে আবার দুঃখ সঙ্গী করেই পুজো কাটাচ্ছেন। যাদের বাদ দিয়ে পুজোর আনন্দ হয় না। সেই ঢাকিদের অনেকেই বিষাদগ্রস্ত হয়েই ঘরে ফিরলেন। সৌজন্যে পুজোর সময়েও মন্ডপে বরাত না পাওয়া। গত তিনদিন ধরে রাতভর অপেক্ষা করেও বহু ঢাকি বরাত পাননি। ফলে খালি হাতেই ফিরতে হচ্ছে ঢাকিদের গ্রামের বাড়িতে।

তৃতীয়ার সন্ধ্যা থেকেই ভিড় জমতে শুরু করে হাওড়া-শিয়ালদহ স্টেশন চত্বর জুড়ে। বাঁকুড়া, পুরুলিয়া, বর্ধমান, বীরভূম থেকে আসা ঢাকিরা বরাত না পেয়ে তাই হতাশ হয়ে ঘরে ফিরছেন৷ বাঁকুড়া থেকে এসেছিলেন শ্যামল লোহার। তিনি বলছেন, "টানা চারদিন ধরে মশার কামড় আর শুকনো মুড়ি খেয়েই দিন কাটিয়েছি। সারা বছর রোজগার সেরকম নেই। এবার ভেবেছিলাম পুজোর সাতদিন যা টাকা পয়সা পাব তাতে সংসার চলে যাবে বেশ কিছু দিন। কিন্তু এত টাকা গাড়ি ভাড়া খরচ করে এলাম। পরিবর্তে কিছুই পেলাম না। না পাওয়া কে সঙ্গী করেই বাড়ি চলে যেতে হচ্ছে।"

আরও পড়ুন-সপ্তমী থেকে দশমী, কোথায় কতটা বৃষ্টি, পুজোর আবহাওয়া আপডেট রইল

একই বক্তব্য পিন্টু রজকের। বীরভূমের এই বাসিন্দা গত বছর বরাত পাননি। এই বছরে বরাত পাবেন এই আশা করেছিলেন। যদিও এবারে সেই আশা পূরণ হল না তার। শিয়ালদহ স্টেশনের বাইরে দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করেও মেলেনি বরাত। পিন্টু বাবু জানাচ্ছিলেন, "টাকা পেলে ভেবেছিলাম ছেলে-মেয়ে-বউয়ের জন্যে জামাকাপড় কিনে নিয়ে যাব। গত বারেও সেই নতুন জামা হয়নি। এবারও এক টাকাও পেলাম না। খালি হাতেই আমাকে ফিরে যেতে হবে।"

কমবেশি এই ছবি হাওড়া, শিয়ালদহ মতো বড় স্টেশনেও দেখা যাচ্ছে। মফঃস্বলের বড় স্টেশনেও একই ছবি ধরা পড়েছে। আসলে পুজো উদ্যোক্তারাও বলছেন এবার তাদের বাজেট কম। সাধ্যমতো ঢাকি তারা নিতে পারছেন না। অনেক সময় মেশিনে কাজ সারতে হচ্ছে। কোথাও আবার দরাদরিতে সমস্যা হয়েছে। তাই রোজগারের আশায় ঘর ছাড়লেও, বাড়ি ফিরতে হচ্ছে সেই  শূন্য হাতেই।

Published by:Arka Deb
First published:

Tags: Durga Puja 2021

পরবর্তী খবর