১৩ তলা থেকে পড়ে রহস্যমৃত্যু কল সেন্টারের কর্মীর

১৩ তলা থেকে পড়ে রহস্যমৃত্যু কল সেন্টারের কর্মীর

সেক্টর ফাইভের কল সেন্টার কর্মীর মৃত্যু ঘিরে রহস্য ৷ বুধবার সল্টলেক গোদরেজ ওয়াটারসাইড বিল্ডিংয়ের ১৩ তলা থেকে পড়ে মৃত্যু হয় অভিষেক বাউড়ি নামে এক ব্যক্তির ৷

  • Share this:

#কলকাতা: সল্টলেকের সেক্টর ফাইভে কল সেন্টার কর্মীর মৃত্যুতে বাড়ছে রহস্য। অভিষেক বাউড়িকে খুন করা হয়েছে বলে অভিযোগ পরিবারের। অফিসে তাঁর উপর মানসিক অত্যাচার চলত বলেও দাবি। বুধবার রাতে সল্টলেকের গোদরেজ ওয়াটার সাইড বিল্ডিংয়ের দশতলায় দেহ পড়ে থাকতে দেখা যায় অভিষেক বাউড়ির। তদন্তে ইলেকট্রনিক কমপ্লেক্স থানার পুলিশ। 

আত্মহত্যা নয়, খুন করা হয়েছে অভিষেককে। এমনই দাবি অভিষেকের বাড়ির লোকের। প্রায় এক বছর ধরে গোদরেজ ওয়াটারসাইড বিল্ডিংয়ের কল সেন্টারে চাকরি করছিলেন অভিষেক। বাঁকুড়ার বাসিন্দা হলেও কাজের জন্য বাগুইআটির জোড়ামন্দিরে পরিবারের সঙ্গে থাকতেন বছর তেইশের অভিষেক।

পরিবারের অভিযোগ ২৯ অগাস্ট জন্মদিন ছিল অভিষেকের। সেদিন অফিস থেকে কাঁদতে কাঁদতে ফেরে অভিষেক। অফিসে তার উপর মানসিক অত্যাচার হয় বলে জানায়। বুধবার রাত সাড়ে আটটা নাগাদ সেই অফিসেরই দশতলায় রক্তাক্ত দেহ পড়ে থাকতে দেখেন অফিসের নিরাপত্তারক্ষীরা। ঘটনার পরে অফিসের কেউ বাড়ির লোকের সঙ্গে কথা বলেনি বলে অভিযোগ। অফিসে কোনও ঝামেলা হয়েছিল কিনা সে ব্যাপারে স্পষ্ট কিছু জানা যায়নি।

পুলিশ দেহ উদ্ধার করে নিয়ে যায় বেসরকারি হাসপাতালে। সেখানে তাকে মৃত বলে ঘোষণা করে। অফিস কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে তার পরিবার।

বৃহস্পতিবার ঘটনাস্থলে যায় চার সদস্যের ফরেনসিক দল। খতিয়ে দেখা হয় সিসিটিভি ফুটেজও। তেরোতলার করিডরে যাওয়ার সময় তার সঙ্গে অন্য কেউ ছিল কিনা, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। দেহ যেখানে পড়ে ছিল, সেই জায়গাও চিহ্নিত করেছে পুলিশ।

তবে সত্যি অফিসে অভিষেকের উপর মানসিক অত্যাচার করা হত কি না, নাকি মৃত্যুর পিছনে অন্য কোনও কারণ আছে, তা জানতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

First published: 12:41:58 PM Aug 31, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर