Mamata Banerjee: দিল্লি থেকে টালিগঞ্জ! স্থানীয় কেউ ছিল না? বাবুলকে বহিরাগত খোঁচা দিয়ে মমতা-সভা

Mamata Banerjee: দিল্লি থেকে টালিগঞ্জ! স্থানীয় কেউ ছিল না? বাবুলকে বহিরাগত খোঁচা দিয়ে মমতা-সভা

টালিগঞ্জে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ছবি ফেসবুক ভিডিও থেকে নেওয়া।

গড় বাঁচানোর লড়াইয়ে নেমে অন্তিমপ্রহরে টালিগঞ্জের সভায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সর্বশক্তি দিয়ে আক্রমণ করলেন বিজেপিকে।

  • Share this:

#কলকাতা: হাতের তালুর মতো চেনা জায়গা। ২০১১-২০১৬ তাঁকে ঝুলি উপরে দিয়েছিল টলিপাড়া। কিন্তু এবার লড়াই কঠিন। শিবির দুইভাগে বিভক্ত। গড় বাঁচানোর লড়াইয়ে নেমে অন্তিমপ্রহরে টালিগঞ্জের সভায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সর্বশক্তি দিয়ে আক্রমণ করলেন বিজেপিকে। আক্রমণের অভিমুখে রইলেন টালিগ‌ঞ্জের বিজেপি প্রার্থী বাবুল সুপ্রিয়।

মমতা বাবুলের নাম নেননি কিন্তু তাঁকেও বহিরাগত তকমা দিলেন। সাংসদ পদ থেকে নেমে এসে বিধায়ক পদে লড়াইয়ে নামানো  জন্য উপহাস করলেন বাবুলের দলকে। মমতার কথায়, "টালিগঞ্জে লোকাল কেউ ছিল না! বহিরাগতকে নিয়ে আসতে হল!" স্থানীয়দের সঙ্গে গলা মিলিয়ে স্লোগান তুললেন, "হায় হায়  এ কী হল! আসানসোল থেকে পালিয়ে এল!"

কিন্তু কেন বাবুল সুপ্রিয়কে এ হেন আক্রমণ! মমতার যুক্তি, "শিল্পী হিসেবে সম্মান দিই। কিন্তু অত্যন্ত নীচু স্তরের কথা বলে, রাজনীতি জায়গা নেই।" বাবুলদের জনসংযোগের চেষ্টাকেও বিঁধলেন মমতা। তাঁর কথায়, "এরা কারা! এক কাপ চা খেলে লোক ভোট দেবে! ৩৬৫ দিন কাজ করবে ঘরের ছেলে! লজ্জা করে না ভোট চাইতে!"

প্রসঙ্গত এদিনই হাওড়া থেকে অমিত শাহ বলেছেন, বাংলায় ৬৩-৬৭টা আসন পেতে পারেন তাঁরা। অমিত শাহের ধারণাকে নস্যাৎ করে মমতা পাল্টা পরিসংখ্যান আনলেন সাম্প্রতিক অতীত থেকেই। মমতার যুক্তি, "ছত্তীশগড়ে বলেছিল ৬৫টি আসন পাবে পেয়েছে ১৫টি আসন। ঝাড়খন্ডে বলেছিল ৮১টি আসনস, ২৫টি আসন পেল। দিল্লিতে ৭০ পাবে বলে ৮ পেল। এরপরেই বিজেপিকে তার কটাক্ষ, বাংলায় তুই আগে ১০-১২টা পেয়ে আয়।" মমতার যুক্তি,  "যদি এত আসন জিততেন তাহলে বাইরের রাজ্য থেকে লোক এনে মিছিল করতে হত না।"

মমতা অভিযোগ করলেন, টলিপাড়ায়  শিল্পীদের ক্রমাগত কেনার চেষ্টা করছে বিজেপি। তাঁর কথায়, আমাদের দল করে এমন ফিল্ম স্টারকে বলেছে ২৫ কোটি দেব প্রচার করবে না।

শেষ করলেন ২০০ আসনের লক্ষ্যমাত্রা তৈরি করে। বললেন, এবারে ২০০ আসন পেতে হবে। না হলে ওরা আবার কিছু গদ্দার আছে তাদের কিনবে।

Published by:Arka Deb
First published:

লেটেস্ট খবর