'শুধু ভোটের সময় নয়, বসু পরিবারের সঙ্গে ৩৬৫ দিন যোগাযোগ', নেতাজি ভবনে বললেন মমতা

'শুধু ভোটের সময় নয়, বসু পরিবারের সঙ্গে ৩৬৫ দিন যোগাযোগ', নেতাজি ভবনে বললেন মমতা
নেতাজিকে শ্রদ্ধার্ঘ্য মমতার৷

  • Share this:

    #কলকাতা: শুধু ভোটের সময় নয়, তাঁর সঙ্গে নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসুর পরিবারের সবসময় যোগাযোগ থাকে৷ নেতাজি ভবনে গিয়ে এমনই মন্তব্য করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ ফলে, রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচনের আগে নেতাজি স্মরণও যে আসলে রাজনীতির ইস্যু হয়ে উঠেছে, তা আরও একবার স্পষ্ট হয়ে গেল৷

    নেতাজির ১২৫ তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে নেতাজি ভবনে যান মুখ্যমন্ত্রী৷ নেতাজিকে শ্রদ্ধা জানানোর পর বক্তৃতা দিতে গিয়ে তিনি বলেন, 'নেতাজি একটা আবেগ৷ তিনি ছিলেন প্রকৃত দেশনায়ক৷ নির্বাচনের আগে একদিন আমি নেতাজি পরিবারের খোঁজ নিই না৷ আমার সঙ্গে তাঁদের ৩৬৫ দিন যোগাযোগ থাকে৷ আমরা বুঝি এই পরিবারটা আমাদের গর্বের৷' নেতাজি ভবনে গিয়েও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মনে করিয়ে দেন, নেতাজির জন্মদিনকে জাতীয় ছুটি হিসেবে ঘোষণার জন্য দীর্ঘদিন ধরে দাবি জানিয়ে আসছে তৃণমূল৷ যদিও সেই দাবি মানা হয়নি৷ জাতি, ধর্ম, নির্বিশেষে যে নেতাজি সবাইকে নিয়ে কাজ করেছিলেন, সেকথাও মনে করিয়ে দেন মুখ্যমন্ত্রী৷ কেন্দ্র নেতাজির জন্মদিনকে পরাক্রম দিবস হিসেবে ঘোষণা করলেও তিনি যে তাতে খুশি নন তাও স্পষ্ট করেন মুখ্যমন্ত্রী৷ তিনি বলেন, 'পরাক্রম দিবস বুঝি না৷'

    এর পাশাপাশি নেতাজির প্রতি মোদি সরকার সত্যিই কতটা শ্রদ্ধাশীল, তা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন মমতা৷ তিনি বলেন, 'নেতাজির প্রতি এত শ্রদ্ধা থাকলে কেন প্ল্যানিং কমিশনকে তুলে দেওয়া হল? '


    নেতাজির জন্মদিনকে কেন্দ্র করে কার্যত কেন্দ্র- রাজ্যের টক্কর শুরু হয়েছে৷ বিধানসভা নির্বাচনের আগে নেতাজিকে কেন্দ্রকের বাঙালি আবেগকে অস্ত্র করেই রাজনৈতিক সুফল ঘরে তুলতে মরিয়া শাসক- বিরোধী দু' পক্ষ৷ নেতাজির জন্মদিন উপলক্ষে এ দিনই কলকাতায় আসার কথা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির৷ পাল্টা নেতাজির জন্মদিনকে দেশনায়ক দিবস হিসেবে ঘোষণা করেছে রাজ্য সরকার৷ এর পাশাপাসি রাজ্য সরকারের উদ্য়োগে নেতাজিকে শ্রদ্ধা জানিয়ে  শ্য়ামবাজার থেকে গাঁধি মূর্তি পর্যন্ত পদযাত্রায় অংশ নেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ পাশাপাশি নেতাজির নামে বিশ্ববিদ্যালয় এবং আজাদ হিন্দ ফৌজের সম্মানে রাজারহাটে সৌধ তৈরির ঘোষণাও করেছেন মুখ্যমন্ত্রী৷ কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে নেতাজির জন্মদিনের বর্ষব্যাপী উদযাপনের ঘোষণা করা হয়েছে৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: