Modi Mamata on Rabindra Jayanti: রবীন্দ্রনাথই 'পাথেয়' মমতার, কবিগুরুর স্বপ্নের দেশ গড়তে চান মোদি

রবীন্দ্র-রাজনীতি

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) অবশ্য বরবারই নিজেকে রবীন্দ্র অনুরাগী হিসেবেই তুলে ধরেছেন। আর দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi) বাংলার ভোট প্রচারে বারবার কবিগুরুর কথা তুলেছেন, দাবি করেছেন ক্ষমতায় এলে রবীন্দ্রনাথের আদর্শেই বাংলা গড়বে তাঁর দল।

  • Share this:
    #কলকাতা: বঙ্গভোটে বড় ইস্যু হয়ে উঠেছিলেন তিনি। তাঁর নাম করেই দেশের প্রধানমন্ত্রী, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ভোটভিক্ষাও করেছেন। বাঙালির কাছে আজীবন বেঁচে থাকার নামই যে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর (Rabindranath Thakur)। ভোট মিটলেও নেতা-নেত্রীদের রবীন্দ্র'প্রেম'ও তাই এখনও জ্বলজ্বল করছে। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) অবশ্য বরবারই নিজেকে রবীন্দ্র অনুরাগী হিসেবেই তুলে ধরেছেন। আর দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi) বাংলার ভোট প্রচারে বারবার কবিগুরুর কথা তুলেছেন, দাবি করেছেন ক্ষমতায় এলে রবীন্দ্রনাথের আদর্শেই বাংলা গড়বে তাঁর দল। যদিও বাংলার মানুষ এ বারের তাঁকে 'সেই' সুযোগ দেননি। তা সত্ত্বেও রবিবার রবীন্দ্র জয়ন্তী উপলক্ষ্যে ট্যুইট করতে ভুললেন না প্রধানমন্ত্রী। একইভাবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও ট্যুইটে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করলেন। এদিন সকালে ট্যুইটে মমতা লিখেছেন, 'চিরনূতনেরে দিল ডাক, পঁচিশে বৈশাখ…বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জন্মদিবসে শ্রদ্ধা ও প্রণাম। ওনার আদর্শই আমাদের পাথেয় হয়ে উঠুক, এই কামনা করি। কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৬০ তম জন্মবার্ষিকীতে শ্রদ্ধা। আমাদের সমস্ত প্রয়াসে তাঁর আদর্শ প্রতিফলিত হোক।' প্রসঙ্গত, গত ২ মে পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা ভোটের ফল (West Bengal Election Results 2021) বেরোনোর পরই মমতা জানিয়েছিলেন, করোনার কারণে এবার কোনও বিজয় মিছিল হবে না। বরং ২৫ বৈশাখ ছোট-ছোট অনুষ্ঠান করবে তৃণমূল। দলনেত্রীর সেই নির্দেশ মেনেই এদিন রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে ছোট-ছোট অনুষ্ঠানের পরিকল্পনা নিয়েছে শাসক দল। একই সুরে মোদিও ট্যুইটারে বাংলায় লিখেছেন, 'রবীন্দ্রজয়ন্তীতে গুরুদেব রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের প্রতি আমার প্রণাম। প্রার্থনা করি, তাঁর স্বপ্নের ভারতবর্ষ গড়ে তুলতে তাঁর আদর্শ আমাদের উৎসাহ ও শক্তি প্রদান করবে।' মোদির বাংলায় শ্রদ্ধা জানানোর বিষয়টি চোখ টেনেছে অনেকেরই। করোনা পরিস্থিতির কারণেই রবীন্দ্র জয়ন্তী-র প্রায় সব অনুষ্ঠানই বাতিল হয়েছে। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের গান, আবৃত্তি, তাঁর লেখা পাঠের মাধ্যমে জোড়াসাঁকোর যে প্রভাতী অনুষ্ঠান প্রতি বছর হয়ে থাকে, বাতিল হয়েছে তাও। মহামারীর কারণেই সেই অনুষ্ঠান বাতিল হয়েছে। এদিন সকালে অবশ্য রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী তথা বিধায়ক ফিরহাদ হাকিম জোড়াসাঁকোয় গিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।
    Published by:Suman Biswas
    First published: