• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • MAMATA BANERJEE AND ABHISHEK BANERJEE GO TO SEE TMC YUVA LEADER SUDIP RAHA AND JAYA DUTTA ADMITTED IN SSKM SB

Mamata Banerjee Abhishek Banerjee: রং পাল্টাবে ত্রিপুরা, বদল হবে দিল্লিতেও! আহত যুব নেতাদের ছুঁয়ে শপথ মমতা-অভিষেকের

লক্ষ্যের নাম ত্রিপুরা

Mamata Banerjee Abhishek Banerjee: সোমবারের পর বৃহস্পতিবারও জয়া দত্ত, সুদীপ রাহাদের দেখতে এসএসকেএম-এ দেখতে গিয়েছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। একই সময় গিয়েছিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ও।

  • Share this:

#কলকাতা: ত্রিপুরা কাণ্ডে দুদিন আগেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নিশানায় পড়েছিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। বাংলা জয়ের পর এখন ত্রিপুরাকেই পাখির চোখ করেছে তৃণমূল। তবে, তৃণমূল নেত্রী ত্রিপুরা নিয়ে বিগত দিনে চুপই ছিলেন। তবে, ত্রিপুরায় তৃণমূল যুব নেতা দেবাংশু ভট্টাচার্য, সুদীপ রাহাদের আক্রান্ত হওয়া ও গ্রেফতারির ঘটনা নিয়ে সরাসরি আসরে নেমেছেন মমতা। সোমবার এসএসকেএম-এ সুদীপ রাহা, জয়া দত্তদের দেখতে গিয়ে মমতা বুঝিয়ে দিয়েছিলেন, ত্রিপুরাই এবার তাঁর প্রথম লক্ষ্য। সোমবারের পর বৃহস্পতিবারও জয়া দত্ত, সুদীপ রাহাদের দেখতে এসএসকেএম-এ দেখতে গিয়েছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। একই সময় গিয়েছিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ও। সেখান থেকে বেরিয়েই মমতা বলেন, 'ত্রিপুরাতেও রংবদল হবে, দিল্লিতেও রং বদল হবে।'

এদিনও অগ্নিমূর্তি ধারণ করে মমতা বলেন, 'ত্রিপুরায় বর্বরের সরকার চলছে। বিজেপির একজনকেও ভোট দেওয়া উচিৎ নয়। সংবাদমাধ্যমকে মুখ খুলতে দেওয়া হচ্ছে না। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর কাছে জানতে চাইছি, ত্রিপুরায় যা ঘটল, তারপর কোথায় মানবাধিকার কমিশন! বাইরের রাজ্য থেকে কাউকে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না।' এদিন মমতা আরও জানান, জয়াকে এদিনই ছেড়ে দেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, গত সোমবার এসএসকেএম-এ দাঁড়িয়েই মমতা বলেছিলেন, 'যেভাবে আক্রমণ হয়েছে, তাও আবার পুলিশের সামনে। ৩৬ ঘণ্টা কোনও চিকিৎসা করেনি, জলও দেয়নি। এটা সম্পূর্ণ হয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর নির্দেশে, নাহলে ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীর এত সাহস হতে পারে না। ত্রিপুরা আমাদের লোকেদের উপর নির্লজ্জ হামলা চালিয়েছে বিজেপি। সেখানে দানবীয় সরকার চালাচ্ছে বিজেপি। আমাদের কর্মীদের মারধর করে গ্রেফতার করেছে। পুলিশের সামনেই সব হয়েছে।'

মমতা এদিন সেইসঙ্গেই সংযোজন করে দেন, 'বিমানবন্দরে জানতে চাওয়া হচ্ছে আপনি দিদির সমর্থক, নাকি মোদির সমর্থক। ত্রিপুরা, অসমে কী হচ্ছে। মানবাধিকার কমিশনের যারা রাজ্যে এসেছিলেন তাঁরা কারা? সবাই তো বিজেপির লোক।'

প্রসঙ্গত, বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলও এদিন এসএসকেএম হাসপাতালে এসেছিলেন সুদীপ-জয়াদের দেখতে। আর সেখানেই তিনি বলেছেন, "বাংলাতেও গোটা কেন্দ্রীয় মন্ত্রীসভা উড়িয়ে নিয়ে এসেছিল। মোদী-শাহ একাধিকবার এসেছেন। কিন্তু কাজের কাজ কিছুই হয়নি। ত্রিপুরাতেও এবার বিজেপি সরবে।" একইভাবে এদিন জয়া-সুদীপদের দেখতে হাসপাতালে যান জুন মালিয়া, রাজ চক্রবর্তীরাও।

Published by:Suman Biswas
First published: