Home /News /kolkata /
বকেয়া ডিএ নিয়ে আদালতে রাজ্য সরকারের মন্তব্যে ক্ষুব্ধ রাজ্য সরকারি কর্মীরা

বকেয়া ডিএ নিয়ে আদালতে রাজ্য সরকারের মন্তব্যে ক্ষুব্ধ রাজ্য সরকারি কর্মীরা

বকেয়া ডিএ নিয়ে আদালতে রাজ্য সরকারের মন্তব্যে ক্ষুব্ধ রাজ্য সরকারি কর্মীরা

  • Share this:

    #কলকাতা: রাজ্য প্রশাসনিক ট্রাইব্যুনাল বা SAT জানিয়েছিল, রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের ডিএ দেওয়া বা না দেওয়া রাজ্য সরকারের ইচ্ছের উপর নির্ভরশীল ৷ সেই রায়ের বিরোধিতা করে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন সরকারি কর্মচারীরা ৷ এবার আদালতে সেই মামলাতেই রাজ্য সরকার জানাল আদপে রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের ডিএ অর্থাৎ মহার্ঘ ভাতা চাওয়ার কোনও অধিকারই নেই ৷

    বেশ কয়েক বছর ধরে বকেয়া রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের DA ৷ সেই বকেয়া মহার্ঘ ভাতার পরিমাণ জানিয়ে কলকাতা হাইকোর্টে হলফনামা জমা দিতে হবে বলে নির্দেশ দিয়েছিলেন হাইকোর্টের অস্থায়ী প্রধান বিচারপতি নিশীথা মাত্রে ও তপোব্রত চক্রবর্তীর ডিভিশন বেঞ্চ ৷ সোমবার কোর্টে সেই হলফনামা জমা দেন অর্থ দফতরের উপসচিব উজ্জ্বল গোস্বামী।

    একইসঙ্গে হাইকোর্টে রাজ্য জানায় তিন লক্ষ ৩৩ হাজার কোটিরও বেশি ঋণ মাথায় নিয়েও কর্মীদের বেতন, পেনশন ও ঋণের সুদ মেটায় সরকার ৷ রাজস্ব থেকে যা আয় হয় তার দেড় গুণ খরচ হয় সরকারি কর্মীদের বেতনে ৷ এরপর বকেয়া ডিএ দেওয়া সরকারের পক্ষে কষ্টকর ৷ তবুও কর্মীদের নিয়মিত বকেয়া মহার্ঘ ভাতা দেওয়ার চেষ্টা করা হয় বলে দাবি সরকারের ৷ তাই রাজ্যের কোষাগারের এমন করুণ পরিস্থিতিতে মহার্ঘ ভাতা দাবি করার কোনও অধিকারই নেই রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের বলে রাজ্য সরকারের দাবি ৷

    রাজ্য সরকারের এই মন্তব্যেই প্রবল ক্ষুব্ধ সরকারি কর্মচারীরা ৷ ২০০৯-এর পর অনিয়মিত রাজ্য সরকারি কর্মীদের মহার্ঘ ভাতা ৷ বকেয়া মহার্ঘ্য ভাতা দিতে রাজ্যকে নির্দেশ দিক আদালত। এই আবেদন করে আদালতের দ্বারস্থ হয় সরকারি কর্মচারীদের সংগঠন। মামলার শুনানিতে তাদের দাবি, গ্রুপ-ডি কর্মীদের ১.৬১ লক্ষ টাকা ও গ্রুপ-সি-কর্মীদের প্রায় ২.১৬ লক্ষ টাকা মহার্ঘ ভাতা বাকি ফেলেছে রাজ্য।

    ইতিমধ্যেই সপ্তম বেতন কমিশনের সুপারিশে দফায় দফায় ডিএ বেড়েছে কেন্দ্রীয় সরকারী কর্মচারীদের ৷ কিন্তু রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের জন্য সে গুড়ে বালি ৷ রাজ্যে ষষ্ঠ পে কমিশনের কাজও সম্পূর্ণ হয়নি ৷ সম্প্রতি কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের ভাতা প্রায় ১৫৭% বৃদ্ধি পেয়েছে ৷ কেন্দ্র ও রাজ্যের ডিএ-র ফারাক ৫৪ শতাংশ ছাড়িয়ে গিয়েছে। বর্তমানে রাজ্যের সরকারি কর্মচারীদের ৪৮ শতাংশ ডিএ বকেয়া পড়ে রয়েছে ৷

    এর আগে বকেয়া পেতে SAT-এর দ্বারস্থ হয়েও আশাহত হন রাজ্যের কর্মচারীরা ৷ ডিএ নিয়ে রাজ্য সরকারী কর্মচারীদের দায়ের করা মামলার পরিপ্রেক্ষিতে বিচারপতি মলয় দে ও অমিত তালুকদারের বেঞ্চ স্পষ্টই জানিয়ে দেয়, রাজ্য সরকারী কর্মীদের DA সম্পূর্ণ সরকারের ইচ্ছাধীন ৷ এরপরই হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের সংগঠন ৷

    এই মামলার পরবর্তী শুনানি ৫ সেপ্টেম্বর ৷

    First published:

    Tags: Calcutta High Court, Calcutta High Court Chief Justice, DA, Dearness Allowance, Pending DA, State Government Employee

    পরবর্তী খবর