বাড়ছে পেটিএম -এ প্রতারিতের সংখ্যা,  উদ্বিগ্ন কলকাতা পুলিশ 

বাড়ছে পেটিএম -এ প্রতারিতের সংখ্যা,  উদ্বিগ্ন কলকাতা পুলিশ 

বছরের শুরু থেকেই লালবাজারে জসা পড়েছে একাধিক অভিযোগ, সবাই পেটিএম এ প্রতারিত। বারবার লালবাজারের তরফে টুইট করে জানালেও অসর্তকেই মাসুল

  • Share this:

#কলকাতা: বছরটা শেষ হয়েছিল এটিএম প্রতারনায়, বছরটা শুরু হল পেটিএম প্রতারণায়। বছরের শুরুতেই যে এতটা সমস্যায় পড়তে হবে তা হয়তো একটুও বুঝতে পারেননি রাষ্ট্রপতি পুরস্কার প্রাপ্ত শাস্ত্রীয় সংগীতজ্ঞ শান্তনু ভট্টাচাৰ্য থেকে কসবার ব্যাবসায়ী জিতেন্দ্র সাহা। বর্তমানে পেটিএম ব্যাবহার করেন অনেকেই, তার জন্য মেনে চলতে হয় অনেকগুলো নিয়ম। সেই নিয়মের খপ্পরে ফাঁদ পেতেছে প্রতারকরা।

KYC-র নাম করে ফোন আসছে সবার কাছে। জানানো হচ্ছে সেটি আপডেট করতে। আপডেট করা আছে জানানোর পরেও বলা হয় পুরোটা নয় কিছু বাকি। তারপরে বিভিন্ন তথ্যের আড়ালে প্রতারকের ফাঁদে পা দিচ্ছে অনেকেই। পেমেন্ট বলতে করতে হচ্ছে তিন থেকে পাঁচ টাকা। অ্যাকাউন্ট সচল দেখে ও ব্যাঙ্কের ব্যালেন্স দেখে চলে যাচ্ছে বহু টাকা। শান্তনু ভট্টাচার্যের গেছে  ৬৩ হাজার টাকা, জিতেন্দ্র সাহা হারিয়েছেন ৯৭ হাজার টাকা। এই প্রতারণার সময় মোবাইলের কাজ করছেন প্রতারকরা। চোখের সামনে কষ্টের জমানো টাকা চলে যাবার পরেও আটকানো সম্ভব হচ্ছে না।

এই ধরনের ঘটনা থেকে বাঁচতে বারবার বলা হয়েছে বিশেষ কিছু সাবধানতা মেনে চলতে। কলকাতা পুলিশের টুইট করেও জানানো হয়েছে। বৃহস্পতিবারও যুগ্ম কমিশনার (অপরাধ)  মুরলি ধর শর্মা টুইট করে একথা জানিয়েছেন।  এই ঘটনার পরে উদ্বিগ্ন কলকাতা পুলিশের কর্তারা। কিভাবে সমস্যার সমাধান হবে তার সন্ধানে গোয়েন্দারা।

First published: 10:28:33 PM Jan 09, 2020
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर