• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • IND vs NZ 3rd T20 ‍| Kolkata Police: ইডেনে মহারণ, কলকাতার যান চলাচলে বিরাট রদবদল! না জানলে পস্তাতে হবে...

IND vs NZ 3rd T20 ‍| Kolkata Police: ইডেনে মহারণ, কলকাতার যান চলাচলে বিরাট রদবদল! না জানলে পস্তাতে হবে...

যান চলাচলে বড় বদল আজ

যান চলাচলে বড় বদল আজ

IND vs NZ 3rd T20 ‍| Kolkata Police: রবিবার বিকেল চারটে থেকে ইডেন ও ময়দান সংলগ্ন রাস্তায় পন্যবাহী গাড়ি চলাচল বন্ধ রাখা হচ্ছে। করা হচ্ছে অন্য যানেও নিয়ন্ত্রণ।

  • Share this:

    #কলকাতা: শহরে ইডেন গার্ডেন্সে ভারত- নিউ জিল্যান্ড ম্যাচ ঘিরে উন্মাদনা তুঙ্গে। রবিবাসরীয় এই ম্যাচের নিরাপত্তার জন্য প্রস্তুত কলকাতা পুলিশও। প্রায় আড়াই হাজার ফোর্স মোতায়েন থাকছে এই ম্যাচের নিরাপত্তায়। অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার থেকে জয়েন্ট পুলিস কমিশনার, ডিসি সমস্ত র্যাঙ্কের আধিকারিকরা থাকছেন নিরাপত্তার নজরদারিতে। একইসঙ্গে রবিবার বিকেল চারটে থেকে ইডেন ও ময়দান সংলগ্ন রাস্তায় পন্যবাহী গাড়ি চলাচল বন্ধ রাখা হচ্ছে। করা হচ্ছে অন্য যানেও নিয়ন্ত্রণ।

    ভারত নিউ জিল্যান্ড রবিবাসরীয় ম্যাচে কড়া নিরাপত্তা বলয়ে থাকছে ইডেন ও সংলগ্ন এলাকা। মাঠের ভিতর ও বাইরে মিলিয়ে ২০০০-২৫০০ পুলিস কর্মী মোতায়েন করছে কলকাতা পুলিশ। থাকছে বিপর্যয় মোকাবিলা দলও। লালবাজার সূত্রে খবর, এই ম্যাচের সম্পূর্ণ নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকছেন অ্যাডিশনাল সিপি (১)। এছাড়াও মাঠের ভিতরে নিরাপত্তার সামগ্রিক দায়িত্বে থাকছেন অ্যাডিশনাল সিপি (৪)। একইভাবে বাইরে নিরাপত্তা দেখবেন জয়েন্ট সিপি (ই)। এছাড়াও মোট ১০জন ডিসি মাঠের ভিতর ও বাইরে সামগ্রিক ভাবে নজরদারি চালাবেন।

    ইডেনের বাইরে তৈরি হয়েছে পুলিশ সহায়তা কেন্দ্র। ওয়াচ টাওয়ার থেকেও চলবে নজরদারি। শুধু নিরাপত্তা নয়, রবিবার এই ম্যাচ ঘিরে ইতিমধ্যেই ইডেন সংলগ্ন এলাকায় যান চলাচলের ওপর নিয়ন্ত্রণ করা হচ্ছে ওই দিন বিকেল চারটে থেকে রাত একটা পর্যন্ত। লালবাজার ট্রাফিক বিভাগ সূত্রে জানা গিয়েছে, রবিবার বিকেল চারটে থেকে রাত ১টা পর্যন্ত ইডেন গার্ডেন্স ও ময়দান এলাকায় সম্পূর্ণ ভাবে পন্যবাহী গাড়ি চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা।

    আরও পড়ুন: বাংলার সংগঠনে ফাঁকফোঁকর কোথায়, সুকান্ত মজুমদারের সঙ্গে ফোনে অমিত শাহ

    আরও পড়ুন:  করোনার কোপ এখনও কমেনি, এরই মধ্যে বাংলার 'এই' অঞ্চলে নতুন দুশ্চিন্তা হাজির!

    পন্যবাহী গাড়ি চলবে না ভিক্টারিয়া মেমোরিয়াল লাগোয়া সংশ্লিষ্ট রাস্তা ক্যাথিড্রাল রোড, হসপিটাল রোড, কুইনসওয়ে, লাভারস লেনের মতও রাস্তাগুলোতে। তবে হাওড়া থেকে বিদ্যাসাগর সেতু হয়ে যে গাড়িগুলো পোস্তা মার্কেটে যায়, সেগুলি স্ট্র্যান্ড রোড হয়ে যাবে। তবে রাস্তায় কোনও পার্কিং, পন্য ওঠা-নামা করতে পারবে না। অকল্যান্ড রোড, নর্থ ব্রুক রোড, গোষ্ঠপাল সরণিতে রবিবার বিকেল চারটে থেকে সমস্ত রকম গাড়ি চলাচল নিষিদ্ধ থাকবে। ম্যাচ শেষ হওয়ার পর দর্শক খালি হওয়া পর্যন্ত এই নির্দেশিকা জারি থাকবে।

    বাস মিনিবাস ও অন্য গাড়িগুলো চলাচলেও পথ পরিবর্তন করা হচ্ছে। দক্ষিণ থেকে যে গাড়িগুলো উত্তরে যাবে সেগুলো ধর্মতলা থেকে গভর্নমেন্ট প্লেস ইস্ট থেকে বিবাদি বাগের দিকে ঘুরিয়ে দেওয়া হবে। আবার কিছু গাড়ি ধর্মতলা থেকে বেন্টিং স্ট্রিট হয়ে ম্যাঙ্গোলেনের দিকে ঘুরিয়ে দেওয়া হবে।দক্ষিণ থেকে যে গাড়িগুলো হাওড়া যাবে, সেগুলো মূলত আলিপুর হয়ে জিরাট ব্রিজ হয়ে এজেসি বোস রোডে এজেসি বোস র্যাম্পে উঠে স্ট্র্যান্ড রোড হয়ে হাওড়া বেরিয়ে যাবে।

    বেহালা থেকে হাওড়াগামী যে গাড়িগুলো আসবে সেগুলো ডায়মন্ড হারবার রোড হয়ে খিদিরপুর রোড ধরবে। এরপর হেস্টিংস হয়ে স্ট্র্যান্ড রোডের দিকে বেরিয়ে যাবে। মৌলালির দিক থেকে যে বাসগুলো হাওড়া যাবে, সেগুলো এসএন ব্যানার্জি হয়ে রাণী রাসমনি অ্যাভিনিউ থেকে ডান দিকে ঘু্রিয়ে বিবাদি বাগের দিকে পাঠিয়ে দেওয়া হবে। যে সকল গাড়ি উত্তর থেকে আসবে, সেগুলো সেন্ট্রাল অ্যাভিনিউ থেকে গণেশচন্দ্র অ্যাভিনিউ- ম্যাঙ্গোলেন হয়ে বিবাদি বাগ বেরিয়ে যাবে।

    পার্কিংয়ের ওপরও থাকছে নিষেধাজ্ঞা। গোষ্ঠপাল সরণি, অকল্যান্ড রোড, গভর্নমেন্ট প্লেস ইস্ট, গভর্নমেন্ট প্লেস ওয়েস্ট, রাণী রাসমণি অ্যাভিনিউ, রেড রোড, মেয়ো রোড ও ডাউরিন রোডে গাড়ি পার্ক করা যাবে না।

    Published by:Suman Biswas
    First published: