• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • KOLKATA POLICE ARRESTED 37 PEOPLE FROM PARK HOTEL FOR ORGANISING PARTY IN CORONAVIRUS SITUATION SB

Park Hotel: করোনা-কালে 'অভিনব' পার্টির আয়োজন পার্ক হোটেলে, পুলিশি অভিযানে গ্রেফতার ৩৭!

পার্ক হোটেলে ভয়ঙ্কর ঘটনা

Park Hotel: শনিবার গভীর রাতে পার্ক হোটেলে হানা দেয় কলকাতা পুলিশ। সেখানে তখন মদ্যপ অবস্থায় পার্টি করছিলেন ওই ৩৭ জন। তাঁদের গ্রেফতার করে পুলিশ।

  • Share this:

    #কলকাতা: করোনা বিধি উপেক্ষা করেই কলকাতার অভিজাত হোটেলে লাউড স্পিকার বাজিয়ে দিনের পর দিন পার্টি! মারাত্মক সেই অভিযোগে পার্ক হোটেল থেকে কলকাতা পুলিশ গ্রেফতার করল ৩৭ জনকে। অভিযোগ, কোভিড বিধিকে তোয়াক্কা না করেই পার্টি চলছিল শহরের এই পাঁচতারা হোটেলে। শনিবার গভীর রাতে পার্ক হোটেলে হানা দেয় পুলিশ। সেখানে তখন মদ্যপ অবস্থায় পার্টি করছিলেন ওই ৩৭ জন। তাঁদের গ্রেফতার করে পুলিশ। হোটেল কর্তৃপক্ষকেও ডেকে পাঠানো হয়েছে।

    জানা গিয়েছে, পার্ক হোটেলে যে এভাবে পার্টি চলছে, সেই খবর গোপন সূত্রে পুলিশের কাছে যায়। এরপরই শনিবার গভীর রাতে ৩ জন আইপিএস-র নেতৃত্বে ৫০ জনের একটি দল তল্লাশি অভিযান চালায়। তখন পুরোদমে চলছিল পার্টি। চলছিল লাউড স্পিকারও। সঙ্গেসঙ্গে বাকিদের গ্রেফতার করে পুলিশ। ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করা হয় মার্সিডিজ-সহ বেশ কয়েকটি দামি গাড়ি।

    অভিযোগ উঠেছে, পুলিশ যখন তল্লাশি চালাতে যায় ওই হোটেলে, তখন তাঁদের কাজে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করা হয়। এরপরই মোকাবিলা আইনের পাশাপাশি সরকারি কর্মীর কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগেও ওই ৩৭ জনকে গ্রেফতার করা হয়। পুলিশের সঙ্গে অভিযুক্তদের ধাক্কাধাক্কি লেগে যায় বলে অভিযোগ। জামিন অযোগ্য ধারায় মামলা করা হয়েছে গ্রেফতার হওয়া ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে।

    সূত্রের খবর, পার্ক হোটেলে তল্লাশি চালিয়ে এখনও পর্যন্ত গাঁজা, মদ, একাধিক মোবাইল সহ বেশ কিছু জিনিস বাজেয়াপ্ত করেছে পুলিশ। ডিজে সাউন্ড বক্স সহ একাধিক জিনিস বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। ইতিমধ্যেই পুলিশ জানতে পেরেছে, শুধু শনিবারই নয়, আগে থেকেই চলছিল এই পার্টি। ধৃতদের আজই আদালতে তোলা হবে।

    সূত্রের খবর, পার্ক হোটেলের দুই এবং তিন তলায় উদ্দাম পার্টি চলছিল শনিবার রাতে। ওই হোটেলে ঘর বুকিংয়ের নাম করে ওই পার্টি চালানো হত বলে প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছে পুলিশ। ফলে এবার জেরা করা হবে হোটেল কর্তৃপক্ষকেও।

    Published by:Suman Biswas
    First published: