পথে নামতেই বড় বাস দুর্ঘটনা কলকাতার রেড রোডে, আহত অন্তত ১৯

এভাবেই পাঁচিল ভেঙে ভিতরে ঢুকে যায় এই বাসটি।

ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে কলকাতা পুলিশের বড় দল। পৌঁছেছে সেনাবাহিনীর বিশেষ দল। দ্রুত গতিতে উদ্ধারকাজ সেরেছেন তারা।

  • Share this:

    #কলকাতা: বাস চলাচল শুরুর প্রথম দিনেই বড়সড় দুর্ঘটনা ঘটল রেড রোডে। নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফোর্ট উইলিয়ামের পাঁচিলে সজোরে ধাক্কা মারল হাওড়া মেটিয়াবুরুজ রুটের একটি মিনিবাস। দুর্ঘটনার সময়ে বাসে অন্তত ৩০ জন যাত্রী ছিলেন। আহত হয়েছেন এদের মধ্যে অন্তত ১৯ জন। আহতদের তড়িঘড়ি এসএসকেএম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, অত্যন্ত আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছেন এদের মধ্যে এক ব্যক্তি। গুরুতর আহত তিনজন। দুর্ঘটনায় মিনিবাসটি কার্যত দুমড়ে-মুচড়ে গিয়েছে। ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে কলকাতা পুলিশের বড় দল। পৌঁছেছে সেনাবাহিনীর বিশেষ দল। দ্রুত গতিতে উদ্ধারকাজ সেরেছেন তাঁরা। বাসটিকে সরানোর তোরজোর চলছে। ঘটনাস্থলে রয়েছে কলকাতা পুলিশের অ্যাক্সিডেন্ট রিসার্চ টিম। গার্ডরেল দিয়ে ঘটনাস্থলটিকে ঘিরে রাখা হয়েছে।

    প্রত্যক্ষদর্শীদের মতে, হাওড়া-মেটিয়াবুরুজ রুটের বাসটির গতি ছিল অত্যন্ত বেশি। উল্টো দিক থেকে আসা একটি বাইক সামনে চলে আসায় গতি নিয়ন্ত্রণ করতে না পেরে হঠাৎ বাসটি সোজা রেড রোডের পাঁচিলে ধাক্কা মারে। ওই বাইক আরোহীও নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বাসের তলায় চলে যান। সূত্রের খবর ওই বাইক আরোহীর নাম বিবেকানন্দ ডাক। তিনি কলকাতা পুলিশের কর্মী ছিলেন।

    ঘটনায় আহত বাসচালক-সহ অন্যান্যদের প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই ধরাধরি করে পাতালের নিয়ে যাওয়া হয়। বাসটিকে সরাতে নিয়ে আসা হয় ক্রেন। ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন পুলিশ কমিশনার সৌমেন মিত্র।

    ফোর্ট উইলিয়াম এলাকায় বেশ কয়েকটি সিসিটিভি রয়েছে। সেখানেই ফুটেজ খতিয়ে দেখা হচ্ছে, ঠিক কী ভাবে অ্যাক্সিডেন্ট ঘটল। বাসচালক মদ্যপ অবস্থায় ছিলেন কিনা তা খতিয়ে দেখা হবে আশ্বাস তদন্তকারীদের।

    এই ঘটনায় রেড রোডে বেশ কিছুক্ষণ যানচলাচল ব্যহত হয়। ক্রেন এনে বাসটি সরানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে ইতিমধ্যেই। আপাতত ওই এলাকায় যান চলাচল স্বাভাবিক হয়েছে।

    Published by:Arka Deb
    First published: