Home /News /kolkata /
Kolkata: ধর্মতলা বাসস্ট্যান্ডে ট্রলি ব্যাগ নিয়ে দুই যুবক, পুলিশ ব্যাগ খুলতেই যা দেখলেন, কল্পনাও করতে পারবেন না...

Kolkata: ধর্মতলা বাসস্ট্যান্ডে ট্রলি ব্যাগ নিয়ে দুই যুবক, পুলিশ ব্যাগ খুলতেই যা দেখলেন, কল্পনাও করতে পারবেন না...

তদন্তকারীরা মনে করছেন এই পাচারের নেপথ্যে বড় চক্র রয়েছে

  • Share this:

#কলকাতা: ধর্মতলা বাসস্ট্যান্ডে দাঁড়িয়ে দুই যুবক, সঙ্গে দুটি বড় ট্রলি ব্যাগ। অনেকক্ষণ সময় ধরে দাঁড়িয়ে নিজেদের মধ্যে কথা বলছেন আবার মাঝে মাঝে নিজেদের মোবাইল বার করে দেখে নিচ্ছেন। সন্দেহ হওয়ায় ময়দান থানার পুলিশ ওই দুই সন্দেহজনক ব্যক্তির কাছে জানতে চান, কেন দাঁড়িয়ে রয়েছেন ? সঙ্গে থাকার ট্রলি ব্যাগ দুটি খুলতে বলেন পুলিশ।

ব্যাগ খুলতেই চক্ষু চড়কগাছ পুলিশের। ট্রলি ব্যাগের ভিতর কাপড়ের বস্তার মত করে কিছু বাঁধা অবস্থায় রয়েছে। ট্রলি ব্যাগ থেকে বাঁধা কাপড়গুলি বার করে  খুলতেই বেরিয়ে এল Indian star tortoise বা কচ্ছপ। দুটি ট্রলি ব্যাগ ভরে রয়েছে ৫০০ টির বেশি কচ্ছপ।

সূত্রের খবর, দক্ষিণ ভারত থেকে কচ্ছপগুলি আনা হয়। দুই যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ধৃতরা তামিলনাড়ুর বাসিন্দা বলে জানা গিয়েছে। বিদেশে পাচার করার উদ্দেশ্যে কচ্ছপগুলি তামিলনাড়ু হয়ে পূর্ব ভারতে নিয়ে যাওয়ার পরিকল্পনা করা হয়েছিল। ধৃত দুই যুবক ছাড়াও এই চক্রে আর কারা জড়িত আছে, তদন্ত শুরু করেছে কলকাতা পুলিশ। ইতিমধ্যে উদ্ধার হওয়া ৫০০টির বেশি কচ্ছপ রাখা হয়েছে আলিপুর চিড়িয়াখানায়। এই চক্র কতদিন ধরে চলছে, নেপথ্যে কারা রয়েছে তা জানতে ধৃতদের জেরা করছে পুলিশ।

কচ্ছপগুলি কত টাকার বিনিময়ে কাদের কাছে পৌঁছে দেওয়া হত, তা নিয়েও জেরা চলছে। মনে করা হচ্ছে, ভারত বাংলাদেশ সীমান্ত পেরিয়ে দেশের বাইরে কচ্ছপগুলি পাচার করার জন্য এ'রাজ্যকে করিডর হিসেবে ব্যবহার করার লক্ষ্য নিয়ে তামিলনাড়ু থেকে ওই দুই যুবক কলকাতা আসে। এমনকি এই রাজ্য হয়ে উত্তর-পূর্ব ভারতে পাচারের সম্ভাবনাও উড়িয়ে দিচ্ছে না পুলিশ। সাম্প্রতিক সময়ে আশপাশের রাজ্যে কোথাও এই ধরনের কচ্ছপ পাচারের ঘটনা ঘটেছে কিনা, তা নিয়েও খোঁজ খবর শুরু করেছে কলকাতা পুলিশ। তদন্তকারীরা মনে করছেন এই পাচারের নেপথ্যে বড় চক্র রয়েছে। সেই চক্রের মাথাকে ধরতে সমস্ত দিক খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

Amit Sarkar
Published by:Rukmini Mazumder
First published:

Tags: Kolkata

পরবর্তী খবর