হাইকোর্টে বিসর্জন মামলার শুনানিতে তীব্র বাদানুবাদ

হাইকোর্টে বিসর্জন মামলার শুনানিতে তীব্র বাদানুবাদ
Representational Image
  • Share this:

 #কলকাতা: দুপুর দুটোয় কলকাতা হাইকোর্টে বিসর্জন মামলার রায় দান। আজ শুনানির শুরুতেই রাজ্যের বিজ্ঞপ্তি নিয়ে প্রশ্ন তোলে হাইকোর্ট। প্রধান বিচারপতি প্রশ্ন, কোনও লোক বা বিক্ষোভ নেই। তার আগেই কি গুলি চালানো ঠিক? রাজ্যের বিজ্ঞপ্তি ভিত্তিহীন বলে মন্তব্য ডিভিশন বেঞ্চের। কীসের ভিত্তিতে বিজ্ঞপ্তি? প্রশ্ন করেন বিচারপতিরা। এরপর ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতির সঙ্গে বাদানুবাদে জড়ান রাজ্যের এডভোকেট জেনারেল। রাজ্য চারদিন বিসর্জন করতে দিচ্ছে। রাজ্য শুধু পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। পাল্টা মন্তব্য এজির।

বিসর্জন নির্দেশ নিয়ে রাজ্যকে প্রবল ভর্ৎসনা হাইকোর্টের। কী কারণে বিসর্জন নিষেধাজ্ঞা? আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি যে বিঘ্নিত হবে না তা কী নিশ্চয়তা আছে? রাজ্যের নির্দেশ নিয়ে এমনই প্রশ্ন তুলেছে হাইকোর্ট। ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতির বেঞ্চের মত, প্রশাসন নিজের দুর্বলতা ঢাকতেই এই নির্দেশ জারি করেছে।

এদিন হাইকোর্টে বিসর্জন মামলার শুনানির শুরুতেই ফের রাজ্যকে তোপ ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতির ৷ এজিকে ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি বলেন, ‘প্রয়োজন ছাড়াই চূড়ান্ত ক্ষমতা ব্যবহার করছে রাজ্য ৷ নিয়ন্ত্রণ করা ও নিষেধাজ্ঞায় পার্থক্য আছে ৷ কোনও লোক বা বিক্ষোভ নেই ৷ তার আগেই কি গুলি চালানো ঠিক? রাজ্যের বিজ্ঞপ্তি ভিত্তিহীন ৷ কীসের ভিত্তিতে বিজ্ঞপ্তি, স্পষ্ট করুক রাজ্য ৷' অ্যাডভোকেট জেনারেলের পাল্টা মন্তব্য, ‘ধাপে ধাপে নিয়ন্ত্রণ শেষপর্যন্ত নিষেধাজ্ঞা হতে পারে ৷’

এদিন দুপুর দুটোয় বিসর্জন মামলার রায় ঘোষণা করবে কলকাতা হাইকোর্ট ৷

First published: 01:18:45 PM Sep 21, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर