কলকাতা

corona virus btn
corona virus btn
Loading

Weather Report: বাড়বে আর্দ্রতা জনিত অস্বস্তি, স্বস্তির বৃষ্টি ফের রবি-সোমবার

Weather Report: বাড়বে আর্দ্রতা জনিত অস্বস্তি, স্বস্তির বৃষ্টি ফের রবি-সোমবার

কলকাতায় আজ, শুক্রবার মেঘলা আকাশ। বাতাসে জলীয়বাষ্পের পরিমাণ খুব বেশি থাকায় আর্দ্রতা জনিত অস্বস্তি বাড়বে।

  • Share this:

#কলকাতা: কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টির পরিমাণ কমতেই অস্বস্তি সূচক বাড়ল। দক্ষিণবঙ্গে আজ, শুক্রবার মেঘলা আকাশ ও বিক্ষিপ্ত বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। উত্তরবঙ্গে আগামিকাল, শনিবার থেকে বৃষ্টির পরিমাণ বাড়বে। রবিবার ফের নিম্নচাপ তৈরির সম্ভাবনা বঙ্গোপসাগরে। নিম্নচাপের প্রভাবে আবহাওয়ার পরিবর্তন হবে রাজ্যে।এমনটাই জানিয়েছে আবহাওয়া দফতর ৷

শনি ও রবিবার বিক্ষিপ্তভাবে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা উত্তরবঙ্গে। শুক্রবার থেকেই বৃষ্টি বাড়বে উত্তরবঙ্গে। শুক্রবার আলিপুরদুয়ার ও কোচবিহারে দু-এক পশলা বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। শনিবার ভারী বৃষ্টি হতে পারে দার্জিলিং, কালিম্পং এবং জলপাইগুড়িতে। রবিবার আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার ও জলপাইগুড়িতে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা। দু-এক জায়গায় ২০০ মিলিমিটার পর্যন্ত বৃষ্টি হতে পারে।

দক্ষিণবঙ্গে মৌসুমী অক্ষরেখা অবস্থান করছে। বৃষ্টির পরিমাণ কমলেও দু-এক পশলা বিক্ষিপ্ত বৃষ্টি চলবে দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জেলায়। নিম্নচাপের রেখে যাওয়া জলীয়বাষ্প থাকায় অস্বস্তি আরও বাড়বে দক্ষিণবঙ্গে। মেঘলা আকাশ, বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বৃষ্টি চলবে। রবিবার থেকে বৃষ্টির পরিমাণ বাড়তে পারে। সোমবার ওড়িশা সংলগ্ন জেলা পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর এবং ঝাড়গ্রামে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

কলকাতায় আজ, শুক্রবার মেঘলা আকাশ। বাতাসে জলীয়বাষ্পের পরিমাণ খুব বেশি থাকায় আর্দ্রতা জনিত অস্বস্তি বাড়বে। বিক্ষিপ্তভাবে দু-এক পশলা হালকা বৃষ্টির সম্ভাবনা।

কলকাতায় আজ, শুক্রবার সকালে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ২৬.৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস যা স্বাভাবিক। গতকাল, বৃহস্পতিবার বিকেলে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২৯.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস ৷ স্বাভাবিকের থেকে যা ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস কম। বাতাসে আপেক্ষিক আর্দ্রতার পরিমাণ ৯১ থেকে ৯৬ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় বৃষ্টি হয়েছে ১০.৮ মিলিমিটার।

শুক্রবার সকাল ৮টায় কলকাতা শহরের তাপমাত্রা ছিল ২৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যদিও ’ফিল লাইক টেম্পারেচার’ ৩৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। তাপমাত্রার তুলনায় গরম বেশি অনুভূত হয়েছে। বাতাসে জলীয়বাষ্পের পরিমাণ ৯১ শতাংশ। তাই অস্বস্তি বেড়েছে অনেকটাই।

রবিবার নতুন করে নিম্নচাপ তৈরির প্রবল সম্ভাবনা রয়েছে । পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও সংলগ্ন উত্তর বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপ তৈরি হবে বলে জানাচ্ছেন আবহাওয়াবিদরা। এর প্রভাবে পূর্ব ও মধ্য ভারতে বৃষ্টির পরিমাণ বাড়বে। রবিবার থেকে ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা ওড়িশা, ছত্তিশগড় এবং মধ্যপ্রদেশ এলাকায়। রবিবার থেকে বুধবার পর্যন্ত ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস। ওড়িশা সংলগ্ন পশ্চিমবঙ্গের জেলাগুলিতেও প্রভাব পড়বে।

মৌসুমী অক্ষরেখা গুজরাতের ভুজ হয়ে মধ্যপ্রদেশের নিম্নচাপ এলাকা এবং গুজরাত, জব্বলপুর, ঝাড়সুগাদা, চাঁদবালি হয়ে দক্ষিণ-পূর্ব দিকে এগিয়ে পূর্ব মধ্য বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত।

মৌসুমী অক্ষরেখার পশ্চিমাংশ আজ, শুক্রবার থেকে কিছুটা উত্তরের দিকে সরে হিমালয়ের পাদদেশে এলাকায় অবস্থান করবে। এর প্রভাবে উত্তর-পশ্চিম ভারতের রাজ্যগুলিতে বৃষ্টির পরিমাণ বাড়বে। পঞ্জাব ,হরিয়ানা, চন্ডিগড়, দিল্লি, উত্তরপ্রদেশের কিছুটা অঞ্চল এবং হিমাচল প্রদেশ, উত্তরাখণ্ড এবং জম্মু-কাশ্মীরে বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

মৌসুমী অক্ষরেখা অতি সক্রিয় আরবসাগর সংলগ্ন উপকূলে। দক্ষিণী ও পশ্চিমী বাতাসে ভর করে প্রচুর জলীয় বাষ্প ঢুকছে আরব সাগর থেকে। কেরল এবং কর্ণাটক উপকূলে ঝোড়ো হাওয়া বইবে ৫০ থেকে ৬০ কিলোমিটার গতিবেগে। আগামী চার-পাঁচ দিন ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনা তামিলনাডু, কেরল ও কর্ণাটক উপকূল এলাকায়। আগামী ২৪ ঘণ্টায় ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি গুজরাতে ৷ বিশেষ করে উপকূলবর্তী এলাকায়। ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি হবে কোঙ্কন, গোয়া এবং মহারাষ্ট্রে।

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: August 7, 2020, 9:39 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर