পথ চলা শুরু তৃতীয় লিঙ্গের জন্য শহরের বিশেষ ক্লিনিকের, প্রথম দু'দিনেই মিলল ব্যাপক সাড়া !

পথ চলা শুরু তৃতীয় লিঙ্গের জন্য শহরের বিশেষ ক্লিনিকের, প্রথম দু'দিনেই মিলল ব্যাপক সাড়া !

২৭ ফেব্রুয়ারি উদ্বোধনের পরেই ওই ক্লিনিকে চিকিৎসকদের পরামর্শ নিতে এসেছেন অন্তত ৩৫ জন।

  • Share this:

#কলকাতা: অবশেষে পথ চলা শুরু হল তৃতীয় লিঙ্গের (ট্রান্সজেন্ডার) মানুষদের জন্য বিশেষ ক্লিনিক। কলকাতায় যা প্রথম। প্রথম দু'দিনেই ক্লিনিকে অভাবনীয় সাড়া মিলেছে। উদ্যোক্তারা জানিয়েছেন, ২৭ ফেব্রুয়ারি উদ্বোধনের পরে ওই ক্লিনিকে চিকিৎসকদের পরামর্শ নিতে এসেছেন অন্তত ৩৫ জন।

কলকাতা শহরে এখনও তৃতীয় লিঙ্গের মানুষেরা ব্রাত্য। মূলস্রোতে ভাসতে গেলে তাঁদের ভাগ্যে অনেক সময়েই জোটে ব্যঙ্গ-বিদ্রুপ। এই অবস্থায় ট্রান্সজেন্ডারেরা যাতে নিজেদের সমস্যার কথা অকপটে বলতে পারেন, সে জন্যই 'অ্যাসোসিয়েশন অফ ট্রান্সজেন্ডার অ্যান্ড হিজড়াস অফ বেঙ্গল' এবং 'প্রান্ত কথা'র উদ্যোগে তৈরি হয়েছে ওই ক্লিনিক। সংস্থার অন্যতম কর্ণধার বাপ্পাদিত্য মুখোপাধ্যায় বলেন, "এটা শুধু বাংলাতেই নয়, গোটা উত্তর-পূর্ব ভারতের প্রথম ট্রান্সজেন্ডারদের জন্য ক্লিনিক। এটি খুবই যুগোপযোগী একটি সিদ্ধান্ত। আপাতত ছ'জন ডাক্তার নিয়ে এই ক্লিনিক শুরু হয়েছে। প্রয়োজন বুঝে এই সংখ্যা আরও বাড়ানো হতে পারে।"

বাপ্পাদিত্যবাবু জানান, শুধুমাত্র তৃতীয় লিঙ্গের জন্য তৈরি এই ক্লিনিকে ১২টি শয্যা থাকছে। প্রয়োজনে রোগীদের ভর্তি করেও এখানে শুশ্রুষা করা হবে। ক্লিনিক খোলা থাকবে প্রতি মাসে দু'দিন করে।

রূপান্তরকামী মহিলা রঞ্জিতার কথায়, "এত দিন আমাদের জন্য রাজ্য এবং কেন্দ্রীয় সরকার অনেক প্রতিশ্রুতি দিলেও কিছু করেনি। এই বেসরকারি সংস্থা প্রথম আমাদের জন্য কিছু করেছে। আমরা খুবই খুশি। অনেক ক্ষেত্রেই আমরা আমাদের সমস্যা সর্বত্র বলতে পারি না। এখানে আমরা সেটা পারব এবং বিনা পয়সায় চিকিৎসা করাতে পারব। প্রথম দিন ডাক্তার দেখিয়ে আমি খুব খুশি।"

রূপান্তরকামী পুরুষ শিবাংশ ঠাকুর এক দিন ভর্তি ছিলেন ওই ক্লিনিকে। তাঁর কথায়, "প্রচণ্ড মাইগ্রেনের সমস্যা নিয়ে ভর্তি হয়েছিলাম। আগে আমি অন্য হাসপাতালে ভর্তি হয়েছি। কিন্তু এ রকম ভাল ব্যবহার আগে কখনও পাইনি। আমি তো খুব খুশি।"

Shalini Datta

First published: February 29, 2020, 9:20 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर