• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • FROM WHERE MUKUL ROY WILL OPERATE IN SECOND INNINGS SPECULATION OVER THE QUESTION AKD

Mukul Roy| পুরনো ঘরেই কি ফিরবেন মুকুল? জল্পনা তুঙ্গে জোড়াফুলের অন্দরে

তৃণমূলে ফিরেছেন। পুরনো ঘরেই ফিরবেন মুকুল রায়?

Mukul Roy| কাল তাঁর প্রত্যাবর্তনে ফের নতুন করে শুরু হয়েছে জল্পনা, অনুরাগীদের প্রশ্ন ফের ভবনের পুরনো ঘরেই ফিরছেন মুকুল রায়?

  • Share this:

#কলকাতা: একটা সময় ছিল, যখন মুকুল রায়কে বলা হত সেকেন্ড ইন কমান্ড। ই এম বাইপাসের ধারে তৃণমূল ভবনে মুকুল রায়কে ঘিরেই থাকত জোড়া ফুল শিবিরের বিভিন্ন অনুরাগীদের ভিড়। রাজনৈতিক মহলের বক্তব্য ছিল, মমতা বন্দোপাধ্যায়ের পরে মুকুল রায় একমাত্র ব্যক্তি যাঁকে দলের সমস্ত স্তরের কর্মীরা চিনতেন। তেমনই মুকুল রায়ও দলের সমস্ত কর্মীদের চিনতেন। সেই মুকুল রায় তাঁর নিজাম প্যালেসের নিজস্ব অফিস ছাড়াও বসতেন তৃণমূল ভবনের অফিসে। কাল তাঁর প্রত্যাবর্তনে ফের নতুন করে শুরু হয়েছে জল্পনা, অনুরাগীদের প্রশ্ন ফের ভবনের পুরনো ঘরেই ফিরছেন মুকুল রায়?

২০১৫ সালের আগে মুকুল রায় তৃণমূল ভবনের গ্রাউন্ড ফ্লোরে কোণের ঘরে বসতেন। ২০১৫ সাল থেকে তৃণমূল ভবনের লাগোয়া নতুন ঘরে তিনি বসতেন। যে ঘরে ২০১৪ সালের লোকসভা ভোটের পর থেকেই চলত মুকুল অনুগামীদের রাজনৈতিক আড্ডা। মুকুল রায় ইঙ্গিত দিয়েছেন সেই ঘরটাকে তিনি 'মিস' করতেন। মুকুল রায় জানাচ্ছেন, "এই ঘরে আজকের এই সময়ে নিজেকে ভালো লাগছে। পুরনোদের সাথে দেখা হচ্ছে।" আর এর পরেই শুরু হয়েছে জল্পনা।

২০১৫ সাল থেকেই মুকুল রায়ের সাথে দূরত্ব তৈরি হয় তৃণমূল কংগ্রেসের। বিজেপিতে যোগ দেওয়ার আগে ২০১৭ সালের ১১ অক্টোবর রাজ্যসভার সদস্য পদ ছাড়েন প্রাক্তন রেলমন্ত্রী। ২০১৭ সালের ৩ নভেম্বর আনুষ্ঠানিক ভাবে যোগ দেন বিজেপিতে। তার আগে তৎকালীন কেন্দ্রীয় অর্থ মন্ত্রী অরুণ জেটলি এবং বিজেপির নেতা কৈলাশ বিজয়বর্গীর সাথে বৈঠক করায় মুকুলকে ৬ বছরের জন্যে সাসপেন্ড করে তৃণমূল কংগ্রেস। যদিও সেই সব এখন অতীত। মুকুল রায় 'ঘরের ছেলে' বলে উল্লেখ করে দিয়েছেন দলের সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাই মুকুল রায় ভবনে ফের জাঁকিয়ে বসবেন বলাই বাহুল্য।

ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর দায়িত্ব নেওয়ার পরেই অবশ্য ভোল বদলে যায় তৃণমূল কংগ্রেসের অন্দর মহলের। এখন আছে বিশাল হল ঘর। সাংবাদিক সম্মেলন করার জন্যে আলাদা মঞ্চ। রয়েছে মনিটরিং সেল। রয়েছে দলীয় নেতাদের বৈঠক করার আলাদা জায়গা। গোটা অফিস সাজানো 'বাংলা নিজের মেয়েকেই চায়' এই কাটআউটে। সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেসের পোস্টার-ফ্লেক্স দেওয়া ব্যাকড্রপ। ফলে দল এখন আধুনিক। দলের বহিরঙ্গ এখন কর্পোরেট। সেই অফিসেই বসতে পারেন মুকুল রায়। ইতিকধ্যেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন,"মুকুল আগে যে দলে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতেন এখনও তাই করবেন।" কিন্তু আসন কোথায় পাতা হবে তাঁর! নিশ্চিত খবর পাওয়া যাবে কয়েক ঘণ্টাতেই।

Published by:Arka Deb
First published: