কলকাতা

corona virus btn
corona virus btn
Loading

ডিমের দামও আকাশছোঁয়া, হেঁসেল চালাতে হিমসিম খাচ্ছে মধ্যবিত্ত 

ডিমের দামও আকাশছোঁয়া, হেঁসেল চালাতে হিমসিম খাচ্ছে মধ্যবিত্ত 

বাসিন্দারা বলছেন, মাছ মাংসের দাম আকাশছোঁয়া। ডিম খেয়ে কোনওরকমে দিন কাটানো যাচ্ছিল। সেই ডিমও এখন মহার্ঘ্য হয়ে উঠেছে।

  • Share this:

#কলকাতা: এমনিতেই জিনিসপত্রের দাম আকাশছোঁয়া।ডাল, সরষের তেল থেকে শুরু করে আলু,পেঁয়াজ সব কিছুর দাম বেড়েই চলেছে। তার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে অস্বাভাবিক ভাবে দাম বেড়েছে ডিমেরও। বাসিন্দারা বলছেন, মাছ মাংসের দাম আকাশছোঁয়া। ডিম খেয়ে কোনওরকমে দিন কাটানো যাচ্ছিল। সেই ডিমও এখন মহার্ঘ্য হয়ে উঠেছে।

লকডাউনের সময়ও পাইকারি বাজারে চার টাকা পিস দরে ডিম বিক্রি হয়েছিল। খুচরা বাজারে তা মিলছিল সাড়ে চার টাকায়। সেই ডিম এখন খুচরো বাজারে সাড়ে ছ টাকা দামে বিক্রি হচ্ছে। দাম আরও বাড়তে পারে বলে মনে করছেন ব্যবসায়ীরা। এমনিতেই আলুর দাম তিরিশ টাকার ওপরে। পেঁয়াজ চল্লিশ টাকা ছাড়িয়ে গিয়েছে। সব সবজির দামই চড়া। সরষের তেলের কেজিপ্রতি দর একশো তিরিশ টাকা। এরপর ডিমের দামও ধরাছোঁয়ার বাইরে চলে যেতে থাকায় হেঁসেল সামলাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে মধ্যবিত্ত, নিম্ন মধ্যবিত্তদের।

পোল্ট্রির ডিমের জন্য এ রাজ্য বরাবরই অন্য রাজ্যের উপর নির্ভরশীল। এরাজ্যে ডিমের যে চাহিদা তার আশি থেকে ৮৫ শতাংশ আসে অন্ধ্রপ্রদেশ থেকে। সেই যোগান কমে যাওয়ায় ডিমের দাম বেড়েছে বলে জানাচ্ছেন পাইকারি বিক্রেতারা। কেন যোগান কম? বিক্রেতারা বলছেন, গত চার বছর সেভাবে ডিমের দাম বাড়েনি।অন্যদিকে, মুরগির খাবার সহ সবকিছুর দাম বেশ খানিকটা বেড়েছে। আবার জ্বালানি তেলের দাম বাড়ায়় বেড়েছে পরিবহন খরচ। এর ওপর হায়দ্রাবাদেে মুরগির মড়ক লেগেছে। তার ফলে উৎপাদন কমেছে। অন্যান্যবার পুজোর পর শীতের সময় উৎপাদন কম থাকায় ডিমের দাম বাড়ে। এবার ডিমের দাম তার অনেক আগে থেকেই বৃদ্ধি পেয়েছে।

পাইকারি বিক্রেতারা বলছেন, দেড় মাস আগে একশোটি ডিমের দাম ছিল ৪০০ টাকা। সেই দাম এখন বেড়ে ৫৮০ টাকায় গিয়ে পৌঁছেছে। বাছাই করে নিলে দাম পড়ছে ৫৮৫ টাকা। খুচরা বিক্রেতারা সেই ডিম সাড়ে ছয় টাকা করে বিক্রি করছে। হঠাৎ করে ডিমের দাম বেড়ে যাওয়ায় সমস্যায় ক্রেতারা।

Published by: Dolon Chattopadhyay
First published: October 10, 2020, 9:15 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर