আচার্যের ক্ষমতা খর্ব করতে নতুন বিধি আনার পর আজ উপাচার্যদের সঙ্গে বৈঠকে শিক্ষামন্ত্রী

আচার্যের ক্ষমতা খর্ব করতে নতুন বিধি আনার পর আজ উপাচার্যদের সঙ্গে বৈঠকে শিক্ষামন্ত্রী
  • Share this:

#কলকাতা: 'পশ্চিমবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজ আইন'-এ আচার্যের ক্ষমতা নিয়ে নতুন বিধি প্রণয়নের পর আগামীদিনে কীভাবে বিশ্ববিদ্যালয়গুলি পরিচালনা হবে? পরামর্শ দিতে আজ উপাচার্যদের নিয়ে বৈঠক ডাকলেন শিক্ষামন্ত্রী। বিধি জারির পরই এক প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তন স্থগিত হয়ে যায়। কলকাতা ও যাদবপুরের সমাবর্তন নিয়েও তৈরি হয়েছে সংশয়। বৈঠকে আলোচনা হবে সমাবর্তন নিয়েও।

এক্তিয়ারের বাইরে গিয়ে রাজ্যপালের বিরুদ্ধে অতিসক্রিয়তার অভিযোগ। রাজ্য বারবার অভিযোগ করলেও জগদীপ ধনখড় তা মানেননি। এই আবহেই মঙ্গলবার পশ্চিমবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজ আইনে নতুন বিধি প্রণয়ন করে রাজ্য সরকার। যাতে আচার্যের ক্ষমতায় কাটছাঁট করা হয়। এতদিন আচার্যের অনুমতি নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনার একাধিক কাজ করতেন উপাচার্যরা। এবার তাহলে উপাচার্যরা কী করবেন? পরামর্শ দিতেই নয়া বিধি জারির বাহাত্তর ঘণ্টার মধ্যে উপাচার্যদের নিয়ে বৈঠক ডাকলেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়।

নতুন বিধিতে বলা হয়,

- বিশ্ববিদ্যালয়গুলিকে নির্দেশ দেওয়ার আগে বা উপাচার্যের সঙ্গে যোগাযোগের জন্য আচার্যকে উচ্চশিক্ষা দফতরকে জানাতে হবে

- কোনও কমিটিতে আচার্যের মনোনীত সদস্য বাছাইয়ে শিক্ষামন্ত্রীই তিনজনের নাম দেবেন। এরমধ্যে থেকে একজনকে বেছে নিতে হবে আচার্যকে।

- উপাচার্য বাছাইয়ের সময়েও যে নামের তালিকা পাঠানো হবে তা আচার্যকে মানতে হবে

- বিশ্ববিদ্যালয়ের সেনেট বা সিন্ডিকেটের বৈঠক হলে অনুমতি নিতে হবে উচ্চশিক্ষা দফতরের, আচার্যকে শুধু জানালেই হবে

এতদিন সমাবর্তন অনুষ্ঠানও আচার্যের অনুমতি নিয়েই হত। কিন্তু নয়া বিধি অনুযায়ী, আর আচার্যের অনুমতি নেওয়ার প্রয়োজন নেই। এরপরই,

- বৃহস্পতিবার মৌলানা আবুল কালাম আজাদ প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তন স্থগিত হয়ে যায়

- ২৪ ডিসেম্বর যাদবপুর ও ২৮ জানুয়ারি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তন অনুষ্ঠান হওয়া নিয়েও সংশয় তৈরি হয়েছে

উচ্চশিক্ষা দফতর সূত্রে খবর,

- বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা ব্যবস্থা-সহ সামগ্রিক পরিচালনা পদ্ধতি নিয়ে উপাচার্যদের সঙ্গে আলোচনা করবেন শিক্ষামন্ত্রী।

- আলোচনা হবে সমাবর্তনের ভবিষ্যৎ নিয়েও।

শুক্রবারের বৈঠক নিয়ে উপাচার্যরা অবশ্য এখনই কোনও কথা বলতে চাননি।

First published: 12:11:03 PM Dec 13, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर