শিক্ষামন্ত্রীর সিদ্ধান্তে অবশেষে কাটল জট, মাটিতে বসে আর পড়তে হবে না ছাত্রীদের

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Apr 25, 2017 08:00 PM IST
শিক্ষামন্ত্রীর সিদ্ধান্তে অবশেষে কাটল জট, মাটিতে বসে আর পড়তে হবে না ছাত্রীদের
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Apr 25, 2017 08:00 PM IST

#কলকাতা: শিক্ষামন্ত্রীর সিদ্ধান্তে অবশেষে কাটল জট। বিনোদিনী হাইস্কুলে এবার থেকে আলাদা দুটি বিভাগ নয়। থাকবে একটিই ইনটিগ্রেটেড স্কুল। প্রথম থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত। শিক্ষামন্ত্রীর সিদ্ধান্তে সমস্যা সমাধানের পথ দেখছেন শিক্ষিকারা। ক্লাসরুমের অভাবে গত কয়েকদিন মাটিতে বসেই পড়াশোনা করছিল প্রাথধমিক বিভাগের কয়েকজন ছাত্রী। দুই বিভাগের সমন্নয়ের অভাবেই এই জটিলতা, জানালেন শিক্ষামন্ত্রী ।

ঢাকুরিয়ার বিনোদিনী গার্লস হাইস্কুল। একই বিল্ডিংয়ে প্রাথমিক ও উচ্চমাধ্যমিকের ক্লাস চলে। প্রাথমিক বিভাগে পাঁচশো আঠারজন ছাত্রী। বরাদ্দ বারটি ক্লাসরুম। গত শিক্ষাবর্ষ থেকে ছাত্রী সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় আরও একটি ঘরের প্রয়োজন হয়। আবেদন করেও ঘর মেলেনি বলে অভিযোগ প্রাথমিক বিভাগের প্রধান শিক্ষিকার। অগত্যা মাটিতে বসেই ক্লাস করতে হচ্ছিল কয়েকজন খুদে ছাত্রীকে।

হাইস্কুল কর্তৃপক্ষের দিকেই অভিযোগের তির। যদিও হাইস্কুল কর্তৃপক্ষের পালটা দাবি, প্রাথমিকের পড়ুয়াদের সঠিক হিসেব-ই পাচ্ছিলেন না তাঁরা।

ঘটনার কারণ জানতে সোমবারই ডিআই-কে রিপোর্ট দেওয়ার নির্দেশ দেন শিক্ষামন্ত্রী। তার পর চব্বিশ ঘণ্টাও কাটেনি। সমস্যা মেটাতে নিজে স্কুলে হাজির হন শিক্ষামন্ত্রী । কিছুটা বেনজিরভাবেই। প্রায় চল্লিশ মিনিট কথা বলেন দুই বিভাগের প্রধান শিক্ষিকার সঙ্গে। বেরিয়ে আসে সমাধান।

এবার একটাই স্কুল থাকবে। প্রথম থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত । তবে এই স্কুল ক্যাম্পাসে গত চল্লিশ বছর ধরে চলা প্রি-প্রাইমারি সেকসন শিশু নিকেতন নিয়ে প্রশ্ন তোলেন শিক্ষামন্ত্রী।

স্কুলের প্রশাসককে সরিয়ে দায়িত্ব দেওয়া হল কলকাতা জেলার প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শককে। এবার থেকে তিনি সামলাবেন স্কুল পরিচালনার দায়িত্ব।

First published: 07:57:34 PM Apr 25, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर