প্রচারে ব্যবহার করা যাবে না, বাবুলের গান বন্ধের নির্দেশ দিল কমিশন

প্রচারে ব্যবহার করা যাবে না, বাবুলের গান বন্ধের নির্দেশ দিল কমিশন
বাবুল সুপ্রিয় ৷ ফাইল চিত্র ৷
  • Share this:

#কলকাতা: ধারালো শব্দ, প্রাণবন্ত সুর দিয়ে একটা মারকাটারি থিম সং তৈরি করেছিলেন বিজেপি নেতা তথা গায়ক বাবুল সুপ্রিয় ৷ যে গানটি নিয়ে বিতর্ক কিছুতেই থামতে চাইছে না ৷ বরং বলা ভাল জলঘোলা হয়েই চলেছে ৷ এ বার বাবুল সুপ্রিয়র সেই গান বন্ধের নির্দেশ দিল নির্বাচন কমিশন ৷

কমিশনের তরফে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে প্রচারে ব্যবহার করা যাবে না বাবুলের গাওয়া সেই গান ৷ অন্যদিকে গত কয়েকদিন আগে বিজেপির তরফে জানানো হয়েছিল, তাঁরা ভোটের 'থিম সং' পরিবর্তনের কথা ভাবছেই না । উল্টে দলীয় সাংসদ বাবুল সুপ্রিয়র গাওয়া গানটি অবিকৃত রেখেই যাতে কমিশন ছাড়পত্র দেয়, তার জন্য চিঠি দিতে চলেছে তারা। দলীয় স্তরে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, নির্বাচন কমিশনের নির্দেশ মেনে কোনও ভাবেই গানটির একটি শব্দও পরিবর্তন করা হবে না। কমিশনের নিষেধাজ্ঞার তোয়াক্কা না-করে রাজ্যের বিভিন্ন লোকসভা কেন্দ্রের ভোট প্রচারে বিতর্কিত গানটি বিজেপি বাজাচ্ছে বলেও অভিযোগ উঠতে শুরু করেছে। যদিও বিজেপি নেতাদের যুক্তি, সোশ্যাল মিডিয়ার যুগে কোনও কিছু আটকে রাখা কঠিন। গানটি ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। ফলে বিষয়টি আর তাঁদের হাতে নেই।

এ বারের লোকসভা ভোটের প্রচারের জন্য বিজেপি একটি 'থিম সং' তৈরির পরিকল্পনা করেছিল। বাবুল সুপ্রিয়র উপর গানটি তৈরির ভার পড়েছিল। কিন্তু আনুষ্ঠানিক ভাবে 'থিম সং'টি রিলিজ হওয়ার আগেই তা সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে। গানটির কথা নিয়ে কমিশনে আপত্তি জানায় তৃণমূল। এর পর সব দিক খতিয়ে দেখে কমিশনের তরফে বিজেপিকে জানানো হয়, গানের ২৯টি লাইনের পুরোপুরি পরিবর্তন করতে হবে। এবং দু'টি লাইনের আংশিক পরিবর্তন করতে হবে। রাজ্য বিজেপির সহ-সভাপতি জয়প্রকাশ মজুমদার এই প্রসঙ্গে বলেন, 'আমরা গানের একটি লাইনও পরিবর্তন করব না। কমিশনকে আমরা ফের চিঠি দিয়ে অনুরোধ করব যাতে বাবুলের তৈরি ওই থিম সংটিতে অনুমোদন দেওয়া হয়।' তাঁর যুক্তি, 'তৃণমূলের থিম সংটিতে যদি কমিশন ছাড়পত্র দিতে পারে, তবে আমাদের গানেও কোনও আপত্তি থাকার কথা নয়।' তবে শেষ পর্যন্ত সেই গানটিতে নিষেধাজ্ঞা দিয়ে দিল নির্বাচন কমিশন ৷

First published: April 6, 2019, 7:02 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर