corona virus btn
corona virus btn
Loading

লকডাউনে শিশুদের উপহার দিয়ে কাউন্সিলর যেন হঠাৎ করে আসা স্যান্টাক্লজ

লকডাউনে শিশুদের উপহার দিয়ে কাউন্সিলর যেন হঠাৎ করে আসা স্যান্টাক্লজ

'ছোটদের লকডাউন' নামক এই কর্মসূচির মাধ্যমে প্রায় একহাজার শিশুদের হাতে উপহার তুলে দেওয়ার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

  • Share this:

#কলকাতা: স্কুল নেই আবার ছুটিও নেই। মা বাবা বাড়িতেই আছেন অথচ তাঁদের হাত ধরে বেড়াতে যাওয়া নেই। আবার স্কুলের বন্ধুদের সঙ্গে হৈহৈ করাও নেই। লকডাউন পরিস্থিতিতে এক অদ্ভুত বন্দিজীবন কাটাতে হচ্ছে। আর এই সময়ে মানসিক ভাবে অস্থিরতায় পড়ছে শিশুমন। তাই এই দমবন্ধ করা পরিস্থিতিতে কচিকাঁচাদের জীবনে একটু আনন্দ দিতে অভিনব উদ্যোগ নিলেন ১০১ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর বাপ্পাদিত্য দাশগুপ্ত।

'ছোটদের লকডাউন' নামক এই কর্মসূচির মাধ্যমে প্রায় একহাজার শিশুদের হাতে উপহার তুলে দেওয়ার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এই উপহারে যেমন শিশুদের পছন্দের কেক, চকোলেট, নুডুলস রয়েছে তেমনই তাঁদের পুষ্টির দিকে লক্ষ্য রেখে দেওয়া হয়েছে দুধ, আটা, হেলথ ড্রিংক, ডিম, ফ্রুট জুস, গ্লুকোজ, ডালিয়া, সয়াবিন, কর্নফ্লেক্স। সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে মাস্ক, স্যানেটাইজারের পাশাপাশি টুথপেষ্ট ও টুথব্রাশ দেওয়া হয়েছে। লেখাপড়ায় উৎসাহ দিতে খাতা, পেন্সিল দেওয়া হয়েছে তেমনই তুলে দেওয়া হয়েছে রঙ পেন্সিল। একই সঙ্গে দুষণের কথা মাথায় রেখে প্লাস্টিকের বদলে চটের ব্যাগ ও বেতের ঝুড়ি ব্যবহার করা হয়েছে প্যাকেজিংয়ের জন্য।

শুক্রবার শুরু হওয়া এই কর্মসূচিতে অংশ গ্রহণ করেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়, তিনি এই উদ্যোগের ভূয়সী প্রশংসা করেন। তিনি বলেন "শৈশব যদি পায় শিক্ষা ও পুষ্টি তবেই হবে শক্তিশালী দেশ সৃষ্টি। প্রত্যেকটি জনপ্রতিনিধির আগামী প্রজন্মের জন্য এরকম কর্মসূচি নেওয়া উচিত।" বাপ্পাদিত্য জানিয়েছেন, "লকডাউনের কুয়াশায় শৈশবের আলো যেন আড়াল না হয় তাই এই প্রচেষ্টা। আগামী কয়েক দিনের মধ্যেই দ্বিতীয় পর্যায়ে আরো ১০০০ টি প্রান্তিক শিশুর হাতে এই উপহার তুলে দেওয়া হবে।" উপহার দেওয়ার ক্ষেত্রেও সামাজিক দুরত্বের কথা মাথায় রেখে প্রতি শিশুর বাড়িতেই তা পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে।

আর হঠাৎ এই রকম উপহার পেয়ে বেজায় খুশি কচিকাঁচারা। তাঁদের মধ্যে একজনের বক্তব্য, "পুজো নয়, বড়দিন নয়, পরীক্ষায় ভালো ফল করে অথবা কোনও প্রতিযোগিতায় জিতে পুরস্কার পাওয়াও নয়। লকডাউনে দিনের পর দিন বাড়িতে বসে থাকার পর এই উপহার পেয়ে মনে হচ্ছে অসময় হঠাৎ করে স্যান্টাক্লজ এসে যেন উপহার দিচ্ছে।"

UJJAL ROY

Published by: Ananya Chakraborty
First published: May 16, 2020, 12:55 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर