Home /News /kolkata /
'কম অক্সিজেনেই এমন, ঠিকঠাক গেলে কেমন হত!' অনুব্রতর গ্রেফতারিতে কটাক্ষ দিলীপের

'কম অক্সিজেনেই এমন, ঠিকঠাক গেলে কেমন হত!' অনুব্রতর গ্রেফতারিতে কটাক্ষ দিলীপের

অনুব্রতকে কটাক্ষ দিলীপের

অনুব্রতকে কটাক্ষ দিলীপের

Dilip Ghosh: সাংবাদিক সম্মেলন করে দলের তরফে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতিক্রিয়া দেন রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার। ঘণ্টাখানেক পর ভিডিওবার্তায় প্রতিক্রিয়া দেন লকেট চট্টোপাধ্যায়।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি : সিবিআইয়ের হাতে অনুব্রত মণ্ডল ওরফে কেষ্ট গ্রেফতার হতেই নয়াদিল্লিতে সরব হলেন বঙ্গ বিজেপির তিন মুখ। পরপর প্রতিক্রিয়া দিলেন দিলীপ ঘোষ, সুকান্ত মজুমদার এবং লকেট চট্টোপাধ্যায়। সকাল ১১টা, নয়াদিল্লির নর্থ অ্যাভিনিউয়ের বাড়িতে সাংবাদিকদের সঙ্গে সময় কাটান দিলীপ ঘোষ। আধঘণ্টা পর সাংবাদিক সম্মেলন করে দলের তরফে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতিক্রিয়া দেন রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার। ঘণ্টাখানেক পর ভিডিওবার্তায় প্রতিক্রিয়া দেন লকেট চট্টোপাধ্যায়।

অনুব্রত মণ্ডলের গ্রেফতারি নিয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন তিনজনেই। সুকান্ত মজুমদার বলেন, পরবর্তীকালে তৃণমূলের আরও অনেক নেতা গ্রেফতার হবেন। তিনি বলেন, "বেশ কিছুদিন ধরেই আমি বলছিলাম, আজ না হয় কাল তিনি গ্রেফতার হবেনই। কারণ, সংবাদমাধ্যম মারফৎ তেমনই খবর পাওয়া যাচ্ছিল। সেখান থেকেই প্রমাণ কয়লা পাচার, গরু পাচার সহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে তাঁর সক্রিয় ভূমিকা ছিল। তৃণমূলের শীর্ষ নেতৃত্ব পর্যন্ত তাঁর যোগাযোগ ছিল এবং দলের সর্বোচ্চ নেতাদের হাত ছিল তাঁর মাথায়।"

আরও পড়ুন: আর পথ নেই পার্থর! এক নথিতেই সব ফাঁস, পরিবারের দিকে চোখ দিতেই চক্ষু চড়কগাছ ইডি-র

অনুব্রত মণ্ডলের মতোই বঙ্গ রাজনীতিতেই রসিক বক্তা হিসেবে খ্যাত বিজেপি নেতা ও সাংসদ দিলীপ ঘোষ। বীরভূমের কেষ্টর গ্রেফতারি নিয়ে তিনি বলেন, "এবার চড়াম চড়াম ঢাকের আওয়াজ হওয়া উচিত। এবার নকুল দানা, গুড় বাতাসা আর জল খেয়েই তাঁকে বাঁচতে হবে।" মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দাবি করেছিলেন, কেষ্টর শরীরে অক্সিজেন কম যায়। তা নিয়ে দিলীপ ঘোষ বলেন, কম অক্সিজেন যায়, তাতেই এই দাপট, পুরো অক্সিজেন গেলে কী হবে? রাখি পূর্ণিমার দিনে অনুব্রত হাতে সিবিআই রাখি পরিয়েছে বলে মত দিলীপ ঘোষের।

আরও পড়ুন: যে নিজাম প্যালেস এড়াচ্ছিলেন বারবার, আজ রাত থেকে সেই ঠিকানাতেই অনুব্রত মণ্ডল

অন্যদিকে, লকেট চট্টোপাধ্যায় ভিডিও বার্তায় বলেন, যাঁরা গরু পাচার, কয়লা পাচার, বালি খাদান লুঠ করে কোটি কোটি টাকা করেছে, তাঁদের আয়ের উৎস কী। তাঁর অভিযোগ, নোট বাতিলের সময় গাড়িতে করে টাকা পাচার করেছেন তৃণমূল নেতা। বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টা নাগাদ আসানসোলের সিবিআই আদালতে পেশ করা হয় বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলকে । সন্ধ্যা ৬টা নাগাদ শেষ হয় শুনানি। এদিন, অনুব্রতকে ২০ অগাস্ট পর্যন্ত সিবিআই হেফাজতের নির্দেশ দিল আসানসোল আদালত। অনুব্রতর তরফে কোনও জামিনের আবেদন করা হয়নি। তাঁকে ১৪ দিনের হেফাজতে চায় সিবিআই। আদালতে কেষ্ট জানান, 'আমি অসুস্থ, সেই বুঝে বিবেচনা করুন'। আসানসোল আদালতে অনুব্রতকে পেশ করার সময় দলীয় পতাকা হাতে বিক্ষোভ দেখান সিপিএম ও বিজেপির দলীয় সমর্থেকরা।

Published by:Suman Biswas
First published:

Tags: Anubrata Mondal, Dilip Ghosh, Locket Chatterjee, Sukanta Majumdar

পরবর্তী খবর