কলকাতা

corona virus btn
corona virus btn
Loading

দাউ দাউ করে জ্বলছে মানিকতলার ব্যাটারি কারখানা, যুদ্ধকালীন তৎপরতায় চলছে উদ্ধারকাজ

দাউ দাউ করে জ্বলছে মানিকতলার ব্যাটারি কারখানা, যুদ্ধকালীন তৎপরতায় চলছে উদ্ধারকাজ

মানিকতলায় ব্যাটারির গুদামে বিধ্বংসী আগুন। দাউ দাউ করে জ্বলছে আগুন। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় আগুন নেভানোর কাজ করছেন দমকলকর্মীরা।

  • Share this:

#কলকাতা: মানিকতলায় ব্যাটারির গুদামে বিধ্বংসী আগুন। দাউ দাউ করে জ্বলছে আগুন। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় আগুন নেভানোর কাজ করছেন দমকলকর্মীরা। এই মুহূর্তে ঘটনাস্থলে রয়েছে দমকলের ১০টি ইঞ্জিন। ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী। ঘিঞ্জি বসতি এলাকার মধ্যে কারখানা হওয়ায় আগুন ছড়ানোর আশঙ্কা রয়েছে। ফলে চরম আতঙ্কের প্রহর গুনছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। ঘটনাস্থলে রয়েছে বড়তলা থানার বিশাল পুলিশবাহিনী।

দমকল সূত্রে জানা গিয়েছে, গুদামে প্রচুর পরিমাণে গাড়ির পুরনো ব্যাটারি মজুত ছিল। তার জেরেই আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে। স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, বুধবার সকাল এগারো'টা নাগাদ প্রথম কারখানা থেকে ধোঁয়া বেরোতে দেখা যায়। কথা চাউর হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই খবর দেওয়া হয় দমকলে। তবে কারখানা এবং সংলগ্ন গুদামে প্রচুর পরিমাণে দাহ্য পদার্থ মজুত থাকায় নিমেষের মধ্যে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। খবর পাওয়ার পর এক, দুই...করে প্রথমে দমকলের পাঁচটি এসে পৌঁছয়। কিন্তু আগুন অ্যারেস্ট করা যায়নি। এরপর একে একে ১০টি ইঞ্জিন ঘটনাস্থলে পৌঁছয়। বর্তমানে দমকলের ১০টি ইঞ্জিন অগ্নি নির্বাপণের কাজ করছে। আগুন আপাতত নিয়ন্ত্রণে। তবে কোনও পকেট ফায়ার আছে কিনা, তা খতয়ে দেকগছেন দমকলের আধিকারিকরা। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছে, আগুন লাগার পরে দু'জন কারখানার কর্মী ভেতরে আটকে পড়েছিলেন।  তাঁদের উদ্ধার করে হয়েছে।

উত্তর কলকাতার ডিভিশনাল ফায়ার অফিসার অসীম সরকার বলেন, "আগুন কী থেকে লাগল, তা স্পষ্ট নয়। তবে হতাহতের খবর নেই। কারখানায় নিয়মিত আগুন নিয়ে কাজ হলে, কোনও ধরনের ফায়ার সেফটি বা অগ্নি নির্বাপণ ব্যবস্থা নজরে পড়েনি।"

তথ্য: সুশোভন ভট্টাচার্য 

Published by: Shubhagata Dey
First published: January 13, 2021, 2:34 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर