corona virus btn
corona virus btn
Loading

আজ রাত থেকেই শক্তি আরও বাড়াবে ‘আমফান’, ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাব এ রাজ্যে কতটা পড়তে পারে ?

আজ রাত থেকেই শক্তি আরও বাড়াবে ‘আমফান’, ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাব এ রাজ্যে কতটা পড়তে পারে ?

ঘূর্ণিঝড় আমফানের প্রভাবে মঙ্গল ও বুধবার গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে।

  • Share this:

#কলকাতা: যত সময় এগোচ্ছে, ততোই বঙ্গোপসাগরে শক্তি বাড়াচ্ছে আমফান ৷ আবহাওয়াবিদরা জানিয়েছেন, বঙ্গোপসাগরে নিম্নচাপের শক্তি বেড়েছে ৷ আজ, শনিবার রাতেই সেটি ঘূর্ণিঝড়ের আকার নিতে পারে ৷ আগামিকাল, রবিবার পর্যন্ত সেটি উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরের দিকে এগোবে ৷ তারপর উত্তর-পূর্বে বাঁক নিয়ে সেটি বঙ্গোপসাগরের দিকে এগোতে পারে ৷

ঘূর্ণিঝড় আমফানের প্রভাবে মঙ্গল ও বুধবার গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। ঘণ্টায় ৮০ থেকে ৯০ কিলোমিটার গতিবেগে ঝড়ো হাওয়া বইবে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের উপকূলের জেলাগুলিতে। কলকাতা-সহ উপকূল ও উপকূল সংলগ্ন ৭ জেলায় ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

সোমবার থেকে মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যেতে মানা। ওড়িশা ও পশ্চিমবঙ্গের মৎস্যজীবীদের জন্য চরম সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে। যারা সমুদ্রে রয়েছেন, তাদের রবিবারের মধ্যেই উপকূলে ফেরার নির্দেশ আবহাওয়া দফতরের। ওড়িশা, পশ্চিমবঙ্গ, বাংলাদেশের মত উত্তর বঙ্গোপসাগর সংলগ্ন উপকূলে এর প্রভাব বেশি পড়বে বলে আবহাওয়াবিদদের অনুমান। ঘূর্ণিঝড় আমফান স্থলভাগে কোথায় প্রবেশ করবে তা নিয়ে এখনও পর্যন্ত অবশ্য কিছু জানাতে পারেনি আবহাওয়া দফতর।

ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে সোমবার থেকেই আবহাওয়ার পরিবর্তন হবে এ রাজ্যে। সোমবার অন্ধ্র ও ওড়িশা উপকূলে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। মঙ্গলবার ওড়িশা ও পশ্চিমবঙ্গের উপকূলের ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস। বুধবার পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের উপকূলে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস। সঙ্গে ৮০ থেকে ৯০ কিলোমিটার বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইবে। এ রাজ্যে সব থেকে বেশি বৃষ্টির সম্ভাবনা বুধবার।

মঙ্গলবার উপকূলের জেলাগুলিতে ৬৫ থেকে ৮৫ কিলোমিটার ঘণ্টায় গতিবেগে ঝড়ো হাওয়া বইতে পারে। ৭০ থেকে ১১০ মিলিমিটার পর্যন্ত বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা উপকূলের জেলাগুলিতে। মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টি ও সঙ্গে ঝড়ো হাওয়া বইবে উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, কলকাতা, হাওড়া, হুগলি, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুরে।বুধবার বৃষ্টির প্রভাব বাড়বে উপকূলের জেলাগুলিতে ঝড়ো হাওয়া অব্যাহত থাকবে ৷ হাওয়ার গতিবেগ ৭০ থেকে ৯০ কিলোমিটার পর্যন্ত বাড়বে। গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের প্রায় সব জেলাতেই বৃষ্টির সম্ভাবনা বুধবার।

শনিবার সন্ধ্যায় গভীর নিম্নচাপ ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হবে আন্দামান সাগর সংলগ্ন দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে। এদিকে আজ শনিবার এই নিম্নচাপের টানে দক্ষিণ পশ্চিম মৌসুমি বায়ু প্রবেশ করছে আন্দামান-নিকোবরে। আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন আর এক দিনের মধ্যেই বর্ষা প্রবেশ করবে আন্দামান-নিকোবর এবং আন্দামান সাগর সংলগ্ন এলাকায়।

 
Published by: Siddhartha Sarkar
First published: May 16, 2020, 7:46 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर