CoronaVirus। করোনা সম্পর্কে নিজে সচেতন হোন, অন্যকে সচেতন করুন, বার্তা সিপির

CoronaVirus। করোনা সম্পর্কে নিজে সচেতন হোন, অন্যকে সচেতন করুন, বার্তা সিপির
ফাইল ছবি

লালবাজার থেকে কলকাতার সবকটি থানার ওসি ও ডিসিদের কাছে পৌঁছে গিয়েছে সিপির বার্তা।

  • Share this:

#কলকাতা: কী করলে করোনা ভাইরাসের আক্রমণ ঠেকানো যায় সে সম্পর্কে আগে নিজে সচেতন হোন। নিজের পরিবারকে সচেতন করুন এবং সেই সচেতনতা ছড়িয়ে দিন মানুষের মধ্যে। কলকাতা পুলিশের সর্বস্তরের কর্মীদের উদ্দেশ্যে শনিবার এই বার্তা দিয়েছেন পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা।

এদিন লালবাজার থেকে কলকাতার সবকটি থানার ওসি ও ডিসিদের কাছে পৌঁছে গিয়েছে সিপির বার্তা। সেই বার্তায় অনুজ শর্মা বলেছেন, "এই মুহূর্তে আমাদের প্রথম কাজ আগে নিজেদের সচেতনতা। কী করলে করোনা ভাইরাসের আক্রমণ ঠেকানো যায়, সেই সম্পর্কে ভাল করে জানা। দ্বিতীয় কাজ সমস্ত স্তরের পুলিশকর্মীদের এ সম্পর্কে সচেতন করা এবং তাঁদের পরিবারের লোকেদেরও করোনা ভাইরাস কী এবং কী করলে তার আক্রমণ প্রতিরোধ করা সম্ভব সে সম্পর্কে জানান। তৃতীয় যে কাজটি সব থেকে জরুরি তা হল জনসাধারণকে এ সম্পর্কে সবদিক থেকে সচেতন করা।"

সিপি তাঁর বার্তায় স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন, কলকাতা পুলিশ যে সামাজিক প্রকল্পগুলি চালায় তার মাধ্যমেও প্রচার চালাতে হবে। এর মধ্যে প্রণাম, তেজস্বিনী-সহ একাধিক প্রকল্প উল্লেখ করেছেন তিনি। এই প্রকল্পের মাধ্যমে এবং পোস্টার লিফলেট বিলি করে মানুষকে সচেতন করতে হবে। অযথা আতঙ্কিত না হয়ে কিভাবে সতর্ক থাকলে ভাইরাসের আক্রমণ থেকে দূরে থাকা যায়, সে সম্পর্কে মানুষকে জানানোর পরামর্শ দিয়েছেন।

চিকিৎসকেরা পরামর্শ দিচ্ছেন করোনা ভাইরাসের আক্রমণ ঠেকাতে মাস্ক ব্যবহারের এবং বারবার হ্যান্ড স্যানিটাইজার দিয়ে বারবার হাত ধোওয়ার কথা বলছেন। সেই বিষয়টি মাথায় রেখেই পুলিশ কমিশনার এবার নির্দেশ দিয়েছেন, কোথাও যেন মাস্ক বা হ্যান্ড স্যানিটাইজারের কালোবাজারি না হয় সেদিকে নজর রাখতে হবে। প্রসঙ্গত, এতদিন এই মাস্ক এবং হ্যান্ড স্যানিটাইজারের কালোবাজারি রুখতে লাগাতার অভিযানে চালাচ্ছে এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চ। এবার থানা গুলিও তাদের এলাকায় সর্বত্র যাতে নজর রাখে সেই পরামর্শ দিতে চেয়েছেন তিনি। একইসঙ্গে রাজ্য সরকার সচেতনতার জন্য যে লিফলেট প্রকাশ করেছে সেগুলো যাতে সর্বত্র ছড়িয়ে দেওয়া হয় সেই পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। সিপির নির্দেশ পেতেই সব থানার অফিসাররা মানুষকে সচেতন করার কাজ শুরু হয়ে দিয়েছেন। লিফলেট বিলি এবং দোকানে নজরদারিও শুরু হয়েছে।

SUJOY PAL

First published: March 14, 2020, 8:25 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर