Home /News /kolkata /
Rampurhat Violence: 'ঘরবন্দি করে মানুষকে পুড়িয়ে মারা!' স্বতঃপ্রণোদিত মামলা হাই কোর্টের, নজরে দুপুর দুটো

Rampurhat Violence: 'ঘরবন্দি করে মানুষকে পুড়িয়ে মারা!' স্বতঃপ্রণোদিত মামলা হাই কোর্টের, নজরে দুপুর দুটো

বড় পদক্ষেপ কলকাতা হাইকোর্টের!

বড় পদক্ষেপ কলকাতা হাইকোর্টের!

Rampurhat Violence: বুধবার কলকাতা হাই কোর্টের প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তব স্পষ্ট করে দেন, রামপুরহাটের ঘটনায় আদালত স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে মামলা গ্রহণ করল।

  • Share this:

#কলকাতা: রামপুরহাট হত্যাকাণ্ডে আগেই জনস্বার্থ মামলা দায়ের করার অনুমতি দিয়েছিল কলকাতা হাই কোর্ট। এই ঘটনা নিয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করতে আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিল বিজেপি। মঙ্গলবার প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তব এবং বিচারপতি রাজর্ষি ভরদ্বাজের ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ হয়ে আদালতকে স্বতঃপ্রণোদিত মামলা করার অনুরোধ করে। এরপরই প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তব এই মামলা করার অনুমতি দিয়েছিলেন। আর বুধবার কলকাতা হাই কোর্টের প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তব স্পষ্ট করে দেন, রামপুরহাটের ঘটনায় আদালত স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে মামলা গ্রহণ করল।

প্রধান বিচারপতি এদিন বলেন, ''রামপুরহাটের ঘটনা খুবই দুঃখজনক। এই ধরনের ঘটনা সিরিয়াস ক্রাইম। অবিলম্বে কঠিন তদন্ত করা উচিত। ১০টি বাড়ি জ্বালিয়ে দেওয়া হল। ঘরবন্দি করে মানুষকে পুড়িয়ে মারা হল। এই ধরনের ঘটনার পেছনে যারা আছে, তাদের চিহ্নিত করে উপযুক্ত শাস্তি দেওয়া দরকার।'' প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তব জানিয়েছেন, বুধবার দুপুর দুটোয় হবে এই মামলার শুনানি।

বুধবার সকালে রাজ্যের অ্যাডভোকেট জেনারেল ও সরকারি আইনজীবীকে এজলাসে ডেকে স্বতঃপ্রণোদিত হয়ে হাই কোর্টের মামলা গ্রহণের বিষয়টি জানিয়ে দেন প্রধান বিচারপতি।

আরও পড়ুন: উত্তর প্রদেশ পুলিশের কাছে এল ভয়ংকর ইমেল, গোটা দিল্লিজুড়ে জারি হাই অ্যালার্ট!

বিজেপি-র অভিযোগ, তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল বলেছেন, শট সার্কিট থেকে আগুন লাগার ফলেই এই ঘটনা ঘটেছে। কিন্তু এটা স্পষ্ট যে, এই আগুন ইচ্ছাকৃত লাগানো। তাই এই ঘটনার সঠিক তদন্ত হওয়া উচিত। মামলাকারী নিজের আবেদনে আরও জানিয়েছেন, ক্ষতিগ্রস্তদের পর্যাপ্ত ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হোক রাজ্যকে।

আরও পড়ুন: গরম থেকে রেহাই দিতে আসছে বৃষ্টি? বাংলার জন্য জরুরি পূর্বাভাস! কতটা বদলাবে পরিস্থিতি?

প্রসঙ্গত, গত সোমবার তৃণমূল নেতা ভাদু শেখের মৃত্যুর ঠিক পরের দিনই অগ্নিগর্ভ চেহারা নেয় রামপুরহাটের বগটুই গ্রাম। বোমা হামলায় স্থানীয় তৃণমূল নেতা ভাদু শেখের মৃত্যু হয়েছিল। এর পর সোমবার রাতেই বগটুই গ্রামের ১০টি বাড়িতে আগুন লাগে। এই ঘটনায় দমকল ১০ জনের মৃত্যু হওয়ার কথা নিশ্চিত করলেও পুলিশের দাবি মৃত্যু হয়েছে আট জনের। তবে বীরভূমের পুলিশ সুপার নগেন্দ্রনাথ ত্রিপাঠি প্রথমে জানিয়েছিলেন, এই ঘটনায় মোট সাত জনের মৃত্যু হয়েছে। তবে কী ভাবে এই আগুন লাগে, সেই বিষয়ে এখনও বিস্তারিত কিছু জানায়নি পুলিশ-প্রশাসন। এই পরিস্থিতিতে ওই ঘটনায় স্বতঃপ্রণোদিত মামলা গ্রহণ করল কলকাতা হাই কোর্ট।

Published by:Suman Biswas
First published:

Tags: Calcutta High Court, Rampurhat Violence

পরবর্তী খবর