corona virus btn
corona virus btn
Loading

সেরেস্তা বন্ধ, সামাজিক দায়বদ্ধতায় রক্ত দিতে হাইকোর্ট পাড়ায় আইনজীবীরা

সেরেস্তা বন্ধ, সামাজিক দায়বদ্ধতায় রক্ত দিতে হাইকোর্ট পাড়ায় আইনজীবীরা

সেরেস্তা বন্ধ আড়াই মাস। প্র্যাকটিস শিকেয়। অতি জরুরি মামলার শুনানি হচ্ছে ভিডিও কনফারেন্সে। কাজেই হাইকোর্টে যাওয়ার প্রয়োজন নেই আইনজীবীদের।

  • Share this:

#কলকাতা: সেরেস্তা বন্ধ আড়াই মাস। প্র্যাকটিস শিকেয়। অতি জরুরি মামলার শুনানি হচ্ছে ভিডিও কনফারেন্সে। কাজেই হাইকোর্টে যাওয়ার প্রয়োজন নেই আইনজীবীদের। তবু আইনজীবীরা হাইকোর্ট পাড়ায় গেলেন,  দিলেন রক্ত। গরমে রক্তের আকাল। তার ওপর করোনা ও লকডাউনে রক্তদান শিবির সেভাবে করা সম্ভব হচ্ছে না। পুলিশ কর্মীরা নিয়মিত রক্তদান করছিলেন।

শুক্রবার সেই তালিকায় সংযুক্ত হলো কলকাতা হাইকোর্টের আইনজীবীরাও। প্রায় ৪০ জন আইনজীবী রক্ত দিলেন এদিন। হাইকোর্টের ডি গেটের বিপরীতে ৬ নম্বর ওল্ড পোস্ট অফিস স্ট্রিট। টেম্পল চেম্বার নামেই পরিচিত । মূলতঃ একাধিক আইনজীবীর চেম্বার ও অফিস রয়েছে এই বাড়িটিতে। হাইকোর্ট পাড়ার একাধিক কাজকর্মের সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিরা থাকেন এই টেম্পল চেম্বারে। সেখানে এক আইনজীবীর চেম্বারে একজন জুনিয়র আইনজীবীর করোনা পজিটিভ আসে দিনকয়েক আগে। তাই কিছুটা ঝুঁকি নিয়েই রক্ত দেওয়ার কাজে এগিয়ে আসেন আইনজীবীরা। লকডাউন এর কয়েকদিন আগে থেকেই হাইকোর্টের শুনানি বন্ধ। অতি জরুরী মামলাগুলোর শুনানি হচ্ছে ভিডিও কনফারেন্সে। নিয়মিত জীবাণুমুক্তকরণের কাজ হচ্ছে হাইকোর্টের তিনটি ভবনে। ওল্ড পোস্ট অফিস স্ট্রিট, কিরণশঙ্কর রায় রোডের দুই ধারে আইনজীবীদের চেম্বার।

চতুর্থ দফার লকডাউনের শেষের দিকে একটু একটু করে স্বাভাবিক হওয়ার পথে হাঁটছিলো হাইকোর্ট পাড়া। সেখানে কলকাতার বর্তমান করোনা সংক্রমণ গ্রাফ উদ্বেগ বাড়িয়েছে। যদিও জীবন বাজি রেখে ঝুঁকি নিয়ে গ্রীষ্মকালীন রক্তের সঙ্কটের কথা মাথায় রেখে এগিয়ে এলেন হাইকোর্টের আইনজীবীরা। মূলতঃ তৃণমূল কংগ্রেস আইনজীবী সেলের উদ্যোগে শুক্রবার রক্তদান কর্মসূচি।  ভ্রাম্যমান বাতানুকূল বাসের মধ্যে হয় রক্তদান শিবির। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের মন্ত্রী তথা আইনজীবী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য। উপস্থিত ছিলেন আইনজীবী ভাস্কর বৈশ্য, সঞ্জয় বর্ধন, প্রসূন দত্ত, রাতুল বিশ্বাস সহ আরও অনেকে। কিছুদিন আগে ৯ রকমের সবজির হাট বসিয়ে দুঃস্থদের হাতে তুলে দেওয়া হয়। শুধু মক্কেল নয় সমাজের পাশে থাকার বার্তা নিয়েই এমন উদ্যোগ জানাচ্ছেন মন্ত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য।

Published by: Akash Misra
First published: May 30, 2020, 12:09 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर