Dilip Ghosh Boycott Swearing in Ceremony of Mamata Banerjee: আমন্ত্রণ পেয়েও মমতার শপথ বয়কট দিলীপের! অনুপস্থিত সৌরভও, কিন্তু কেন?

Dilip Ghosh Boycott Swearing in Ceremony of Mamata Banerjee: আমন্ত্রণ পেয়েও মমতার শপথ বয়কট দিলীপের! অনুপস্থিত সৌরভও, কিন্তু কেন?

মমতার শপথে নেই সৌরভ-দিলীপ

বাংলায় ফল পরবর্তী যে হিংসা চলছে, তাতে বিজেপি কর্মীদের খুন, বাড়িছাড়া করা হচ্ছে বলে অভিযোগ বিজেপির। সেই অভিযোগ উঠে এসেছে দিলীপের মুখেও।

  • Share this:

    কলকাতা: সৌজন্যের খাতিরেই আমন্ত্রণ পত্র গিয়েছিল তাঁর কাছে। কিন্তু তৃতীয় বারের জন্য মুখ্যমন্ত্রী পদে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে ডাক পেয়েও গেলেন না BJP-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)। বিজেপির পরিষদীয় দলনেতা মনোজ টিগ্গার সঙ্গে দিলীপকেও এদিন আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল। তবে, তিনি সেই অনুষ্ঠান বয়কট করেন। কিন্তু কী কারণে বয়কট? দিলীপ জানিয়েছেন, বাংলায় ফল পরবর্তী যে হিংসা চলছে, তাতে বিজেপি কর্মীদের খুন, বাড়িছাড়া করা হচ্ছে বলে অভিযোগ বিজেপির। সেই অভিযোগ উঠে এসেছে দিলীপের মুখেও। তিনি বলেছেন, 'ভোটের পর আমাদের কর্মীদের উপর আক্রমণ হচ্ছে। সেই কারণেই শপথ অনুষ্ঠানে যাব না।'

    প্রসঙ্গত, ফল প্রকাশের দিন থেকেই দলীয় কর্মীদের উপর হামলার অভিযোগ তুলে সরব হয়েছেন দিলীপ ঘোষ। রাজ্যপালের কাছে এ নিয়ে অভিযোগও জানিয়েছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি। শুধু তাই নয়, মঙ্গলবার বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডার সঙ্গে আক্রান্ত কর্মীদের সঙ্গে দেখাও করেন দিলীপ। রাজ্যের পরিস্থিতির প্রেক্ষিতে শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান স্থগিত রাখার দাবিও তুলেছিলেন তিনি। ফলে দিলীপ ঘোষ যে আজকের অনুষ্ঠানে থাকবেন না, তা স্পষ্টই ছিল একপ্রকার।

    অপরদিকে, আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক তথা বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়কেও (Sourav Ganguly)। কিন্তু তিনিও আসেননি। গতকালই চলতি বছরের IPL অনির্দিষ্ট কালের জন্য স্থগিত করে দেওয়া হয়েছে। সূত্রের খবর, কলকাতাতেই রয়েছেন সৌরভ। তা সত্ত্বেও কেন তিনি মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়ের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে এলেন না, তা নিয়ে জল্পনা ছড়িয়েছে।

    আমন্ত্রণ করা হয়েছিল রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যকেও। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরেই অসুস্থতার কারণে প্রায় শয্যাশায়ী বুদ্ধ বাবু। তাই তাঁর না আসা নিশ্চিতই ছিল। কিন্তু আমন্ত্রণ পেয়েও আসেননি বামফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসুও। কংগ্রেসের তরফে আমন্ত্রণ পেয়েছিলেন প্রদীপ ভট্টাচার্য, অধীর চৌধুরী ও আবদুল মান্নানকে। কেবলমাত্র প্রদীপ বাবুই এদিনের অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন।

    তৃণমূলের তরফে অবশ্য উপস্থিত ছিলেন সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, বিধায়ক পার্থ চট্টোপাধ্যায়, ফিরহাদ হাকিম, সাংসদ দেব, সুব্রত বক্সী, এবং অতি অবশ্যই তৃণমূলের ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর।

    Published by:Suman Biswas
    First published: