হোম /খবর /কলকাতা /
আনোয়ার শাহ এলাকায় বস্তিতে প্রচার সারলেন, রাসবিহারী বিধানসভার বিজেপি প্রার্থী

আনোয়ার শাহ এলাকায় বস্তিতে প্রচার সারলেন, রাসবিহারী বিধানসভার বিজেপি প্রার্থী

প্রায় দু'ঘণ্টা বস্তিতে প্রতিটি মানুষের দরজায় দরজায় গিয়ে তাঁদের অভাব-অভিযোগের কথা শুনলেন তিনি।

  • Last Updated :
  • Share this:

#কলকাতা: রাসবিহারী কেন্দ্রের এ বারের বিজেপি প্রার্থী প্রাক্তন লেফটেন্যান্ট কর্নেল সুব্রত সাহা - আনোয়ার শাহ সংলগ্ন ৯৩ নম্বর বস্তিতে তাঁর প্রচার সারলেন। হাতেগোনা কয়েকজন কর্মীকে নিয়ে শুরু করেছিলেন প্রচার। কলকাতার বস্তি সমস্যা চিরদিনের। অল্প পরিসরে হাজার হাজার মানুষের বাস। সব সময়ই তাঁদের চাওয়া পাওয়ার একটা দাবী থাকে। বস্তিগুলোতে যাঁরা বাস করেন, তাঁরা বেশিরভাগই আর্থিক দিক থেকে অনেকটা পিছিয়ে। এ বার বিজেপি থেকে প্রার্থী হয়েছেন প্রাক্তন সেনা কর্তা। সাধারণভাবেই সেনাবাহিনী কিংবা সেনা কর্তাদের প্রতি সাধারণ মানুষের আলাদা একটা আবেগ কাজ করে।

এ দিন মসজিদ বাড়ি বস্তিতে দেখা গিয়েছিল প্রাক্তন সেনাকে । তাঁকে দেখে সবাইয়ের চাওয়া-পাওয়ার আবেগটা যেন মুখ ফুটে বেরিয়ে আসছিল। খুবই নমনীয় ভাবে নিখুঁত দু-তিনটি ইস্যু নিয়ে সবাইকে মনে করিয়ে দিলেন সুব্রত বাবু। নালার সমস্যা, জলের সমস্যা এবং জমে যাওয়া নোংরা থেকে রোগ ছড়ানোর সমস্যা। দেখা গেল কালো বোরখার আড়ালে থেকে কোন এক মহিলা বলে উঠলেন তাঁরা দীর্ঘদিন আবেদন করেও তাঁদের সমস্যা মেটেনি।

প্রায় দু'ঘণ্টা বস্তিতে প্রতিটি মানুষের দরজায় দরজায় গিয়ে  তাঁদের অভাব-অভিযোগের কথা শুনলেন তিনি। বললেন 'আমি দেশ পাহারা দিয়েছি। সাধারণ মানুষের অভাব অভিযোগ শুনেছি। কিন্তু সময় পায়নি তাঁদের পাশে এসে দাঁড়ানোর। আগামী ২ মে, বিজেপি সরকার রাজ্য আসছে। সরকার এলে শিক্ষা-স্বাস্থ্য এ গুলো নিয়ে বেশি করে সচেতন হবে। বেকারত্ব ঘোচানোর চেষ্টা করবে।' এর আগে বেশ কিছু বিজেপি নেতা বিভিন্ন জায়গায় বাড়ি বাড়ি গিয়ে জন সম্পর্ক করতে গিয়েছে । তাঁরা  বার বার প্রতিবাদ প্রতিরোধের মুখে পড়েছেন। আজ সকালে দেখা গেল, প্রাক্তন লেফটেন্যান্ট কর্নেল সুব্রত সাহা - অতি সহজে বস্তিবাসীর সঙ্গে তাঁর জন সম্পর্ক স্থাপন করলেন। বস্তিবাসীরাও তাঁকে সময় দিলেন। বেলা ১১ টা নাগাদ, তিনি তার সকালের কর্মসূচি শেষ করে বাড়িতে ফিরে যান।

Published by:Simli Raha
First published:

Tags: BJP, West Bengal Assembly Election 2021