7th Phase Bengal Election: রাসবিহারীতে তৃণমূল এজেন্টের শ্লীলতাহানির অভিযোগে আটক বিজেপির এজেন্ট

7th Phase Bengal Election: রাসবিহারীতে তৃণমূল এজেন্টের শ্লীলতাহানির অভিযোগে আটক বিজেপির এজেন্ট

রাসবিহারীতে ধুন্ধুমার।

বিজেপির এক্স আর্মি সংগঠনে কনভেনার মোহন রাওকে পুলিশ আটক করায় ঘটনাস্থলে রীতিমতো হইচই পড়ে যায়।

  • Share this:

#কলকাতা: রাসবিহারীত তৃণমূল প্রার্থীর মহিলা এজেন্টকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে আটক করা হল বিজেপির এজেন্ট মোহন রাও। বিজেপির এক্স আর্মি সংগঠনে কনভেনার মোহন রাওকে পুলিশ আটক করায় ঘটনাস্থলে রীতিমতো হইচই পড়ে যায়।

অভিযোগ নিউ আলিপুর এলাকার বিদ্যাভারতী স্কুল চৌহদ্দিতে ভোটারদের সন্ত্রস্ত করছিল তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা।  শাসানো হয় বাহিনীকেও। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যান সুব্রত সাহার এজেন্ট মোহন রাও। পোলিং এজেন্টের সঙ্গে বচসা বাধে তাঁর। উত্তেজনা তৈরি হয় বুথের মধ্যে। এই সময়েই তাঁর বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানীর অভিযোগ আনে তৃণমূলের এজেন্ট। পুলিশ তাঁকে আটক করে নিয়ে যায়। শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী তাঁকে ছেড়েও দেওয়া হয়েছে।

তৃণমূলের পাল্টা অভিযোগ, বাহিনী ভোটারদের প্রভাবিত করছিল। কোভিড বিধি না মানারও অভিযোগ ওঠে। সেই অভিযোগ নিয়ে প্রশাসনের তরফে এখনও কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি। বিজেপি দক্ষিণ কলকাতার সভাপতি ছিলেন মোহন রাও। দীর্ঘদিন গেরুয়া শিবিরে প্রত্যক্ষ ভাবে কাজ করার ফলে এলাকায় তিনি চেনামুখ। তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠায় স্বাভাবিক ভাবেই নড়েচড়ে বসে বিজেপি। এই অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে বিজেপির তরফে।

প্রসঙ্গত আপাত শান্ত সপ্তম দফার ভোটে প্রথম থেকেই বিক্ষিপ্ত অশান্তি চলছে রাসবিহারীতে। সকালেই কেন্দ্রীয় বাহিনীর সঙ্গে বচসায় জড়িয়ে পড়েন তৃণমূল প্রার্থী দেবাশিস কুমার।  দেবাশিসবাবুর অভিযোগ, তাঁর বুথে ঢোকা নিয়ে আপত্তি তোলে কেন্দ্রীয় বাহিনী। দেবাশিস কুমারও পাল্টা প্রশ্ন করেন, কেন প্রার্থী বুথে যেতে পারবে না?  কেন্দ্রীয় বাহিনী তাঁকে পরামর্শ দেয় বুথে না ঢুকে, দরজায় দাঁড়িয়েই এজেন্টের সঙ্গে কথা বলতে। বচসা দীর্ঘস্থায়ী হয়নি। দেবাশিস কুমার বাহিনীর কথাই মেনে নেন।

এজেন্টের সঙ্গে সঙ্গে দূর থেকে কথা বলেই বুথ ছেড়েছেন। ইতিমধ্যে তিনি নির্বাচন কমিশনে ঘটনা নিয়ে অভিযোগও দায়ের করেছেন। তৃণমূল বলছে, বুথে ঢোকা প্রার্থীর অধিকার। এক্ষেত্রে সেই অধিকার খর্ব করা হচ্ছে।

Published by:Arka Deb
First published: