ভাঙড় থেকে শিক্ষা, বিদ্যুতের উন্নয়নের কাজে সমস্যা এড়াতে মুখ্যমন্ত্রীর দাওয়াই

ভাঙড়ের ঘটনার পুনরাবৃত্তি রুখতে এবার সাবধানী রাজ্যের বিদ্যুৎ দফতর।

Akash Misra | News18 Bangla
Updated:Feb 16, 2017 11:00 AM IST
ভাঙড় থেকে শিক্ষা, বিদ্যুতের উন্নয়নের কাজে সমস্যা এড়াতে মুখ্যমন্ত্রীর দাওয়াই
Akash Misra | News18 Bangla
Updated:Feb 16, 2017 11:00 AM IST

#কলকাতা: ভাঙড়ের ঘটনার পুনরাবৃত্তি রুখতে এবার সাবধানী রাজ্যের বিদ্যুৎ দফতর। স্থানীয় বিধায়ক ও বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলেই বিদ্যুৎ সংক্রান্ত যে কোনও নির্মাণ কাজ করতে হবে। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে ইতিমধ্যেই এই কাজ শুরু হয়েছে। ৩০ বিধায়ককে এব্যাপারে চিঠি দিচ্ছেন বলে আজ বিধানসভায় জানান বিদ্যুৎমন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়।

ভাঙড়কাণ্ডের পর থেকেই সাবধানী রাজ্য। বিক্ষোভ-অশান্তি এড়াতে বিদ্যুৎ সংক্রান্ত যে কোনও ব্যাপারেও দেখেশুনে পা ফেলতে চাইছে নবান্ন। বিদ্যুৎ ক্ষেত্রে কীভাবে পৌঁছন যাবে নির্ধারিত লক্ষ্যে? বিধানসভায় এনিয়ে প্রশ্নোত্তর পর্বে বিদ্যুৎমন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় জানান,

বিধানসভায় বিদ্যুৎমন্ত্রীর উত্তর

বেশ কিছু জায়গায় বিদ্যুৎ সংক্রান্ত নানা সমস্যা হচ্ছে, সেই জটিলতা এড়াতে স্থানীয় বিধায়কদের সঙ্গে আলোচনার ভিত্তিতে কাজ করা হবে। স্থানীয় বাসিন্দাদের সঙ্গেও কথা বলেই প্রকল্প।

ইতিমধ্যেই ৩০ জন বিধায়ককে এনিয়ে চিঠি দিচ্ছেন বিদ্যুৎমন্ত্রী। বিদ্যুৎ দফতরের সমীক্ষায় উঠে এসেছে, রাজ্যের ১৭১টি গ্রাম পঞ্চায়েতে নানা সমস্যার কথা। সেসব সমস্যা মোকাবিলায় কী করবে বিদ্যুৎ দফতর? এনিয়ে বিদ্যুৎমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনায় বসেন মুখ্যমন্ত্রী।

Loading...

মুখ্যমন্ত্রীর বার্তা

- এলাকায় বিদ্যুৎ সংক্রান্ত কাজের জন্য সাধারণ মানুষের ওপর বলপ্রয়োগ করা যাবে না

- আলোচনার মাধ্যমেই এলাকায় বিদ্যুৎ উন্নয়নের কাজ এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে

ইভিও- মুখ্যমন্ত্রীর দাওয়াইয়ে ইতিমধ্যেই সাফল্য মিলছে। খড়গপুর গ্রামীণ এলাকায় সমস্যার মুখে পড়ে বিদ্যুৎ প্রকল্প। কিন্তু, স্থানীয় বিধায়ক ও সাধারণ মানুষের সঙ্গে কথা বলেই সেই জট কাটে। এই ফর্মুলাতেই আশার আলো দেখছে নবান্ন।

First published: 11:00:40 AM Feb 16, 2017
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर