ভুয়ো পুলিশকর্তা সেজে জালিয়াতির অভিযোগে গ্রেফতার মহিলা

ভুয়ো পুলিশকর্তা সেজে জালিয়াতির অভিযোগে গ্রেফতার মহিলা

অভিযোগ, সরকারি চাকরি দেওয়ার নাম করে ৫ লক্ষ টাকার প্রতারণা করেছেন মহিলা

  • Share this:

#কলকাতা: ভুয়ো পুলিশকর্তা সেজে জালিয়াতির অভিযোগ এক মহিলার বিরুদ্ধে ৷ সোমবার বাঁশদ্রোণী এলাকার সত্যব্রত বসুরায় নামে বছর ২৩- এর এক যুবকের দায়ের করা অভিযোগ থেকে ঘটনা প্রকাশ্যে আসে। নকল পুলিশ অফিসার সেজে  চাকরি দেওয়ার নামে পাঁচ লক্ষ টাকা হাতায় অচিরা যাদব নামে অভিযুক্ত মহিলা ৷ চাকরি তো পানইনি সত্যব্রত, উল্টে টাকা ফেরত চাইলে অচিরা তাঁকে হুমকি দেওয়া শুরু করে।

সত্যব্রত বসুরায়ের অভিযোগ দায়ের করার পরেই শুরু হয় তদন্ত।  পুলিশ অভিযুক্তের বাড়ি পৌঁছে দেখেন অদ্ভুত এক ঘটনা। গাড়িতে নীল বাতির মাথায় লেখা ‘গভর্নমেন্ট অফ ইন্ডিয়া, ইনটালিজেন্স ব্যুরো।’ নিজেকে পুলিশকর্তা বলে পরিচয় দিতেন অচিরা ৷ এলাকায় সবাই জানেন তিনি পুলিশ অফিসার। বাড়ির সামনে যদি কেউ অসাধু উদ্দেশ্যে ঘুরে বেড়ায়, ধরা পরে সিসিটিভিতে ।  কোনও ব্যাক্তি অচিরা যাদবের সঙ্গে কথা বলতেন না, রীতিমত দুরত্ব বজায় রাখতেন এলাকার বাসিন্দারাও। যাতায়াতের সময় অচিরা ব্যবহার করতেন দামী গাড়ি৷

গ্রেফতার করার পর পুলিশ অচিরা যাদবের কাছ থেকে বিভিন্ন কথা জানতে চান ৷ জেরার মুখে তিনি জানান, অচিরার স্বামী কাস্টমসে কাজ করতেন। সেই সূত্রেই তার কলকাতা বন্দর এবং শহরের বেশ কিছু আমলার সঙ্গে পরিচয় হয়েছিল। সেই পরিচয় কাজে লাগিয়েই অচিরা নিজেকে ইনটেলিজেন্স ব্য়ুরোর আইজি  বলে পরিচয় দিতেন। তার কাছ থেকে একটি ভুয়ো পরিচয়পত্রও পেয়েছে পুলিশ।

অচিরার বাবা প্রাক্তন বনকর্তা। স্নাতক পর্যায় পর্যন্ত তার পড়াশোনা তিনসুকিয়াতে। স্নাতোকত্তর পর্যায়ে লেখাপড়া গুয়াহাটিতে। ‘গ্লোবাল টেররিজম’ বা বিশ্বব্যাপী সন্ত্রাস নিয়ে অচিরা গবেষণাও করেন। তার দাবি  জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পিএইচডি করেছেন তিনি।

মঙ্গলবার তাকে আলিপুর আদালতে পেশ করা হয়৷ পুলিশ তাকে তাঁদের হেফাজতে নিতে চায়। চলতি মাসের ৮ তারিখ পর্যন্ত পুলিশি হেফাজতের নির্দেশ দেয় আদালত। এবার তার থেকে জানা হবে  কেন তিনি এই কাজ করতেন? এই চক্রে কে কে আছে? পরিচয় নকল করে বা ভুয়ো পরিচয়ে  কতজন প্রতারিত ?

Susovan Bhattacharjee
First published: February 4, 2020, 9:28 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर