মমতার সভার শুরুতেই বড় চমক, তৃণমূলে যোগ দিলেন সায়নী ঘোষ

তৃণমূলে সায়নী ঘোষ।

তাঁর সঙ্গেই মঞ্চে যোগ দিলেন জুন মালিয়া, কাঞ্চন মল্লিক, রাজ চক্রবর্তীরা। মঞ্চ থেকে শুরুতেই স্লোগান উঠল, খেলা হবে।

  • Share this:

    #সাহাগঞ্জ: মোদির সভার পাল্টা সভায় শুরুতেই যোগ দিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর উপস্থিতিতে অভিনেতা সায়নী ঘোষ যোগ দিলেন তৃণমূলে। তাঁর সঙ্গেই মঞ্চে যোগ দিলেন জুন মালিয়া, কাঞ্চন মল্লিক, রাজ চক্রবর্তীরা। মঞ্চ থেকে সভার শুরুতেই স্লোগান উঠল, খেলা হবে।

    এদিন সায়নী মমতার হাত থেকে ব্যাটন নিয়ে বলেন, "মহিলাদের আত্মসম্মান দিদি দিতে পারবে। ভোটের আগে বাংলা উট পাখির চোখ হতে পারে না। আমাদের ওপর বিশ্বাস রাখুন।" মমতা সায়নীর প্রসঙ্গে আজ বলেন, "দুটো ট্যুইটের জন্য সায়নীকে রোজ থ্রেট করেছে। বিজেপি নেতারা যা তা কথা বলেছে। অপমান করেছে দেবলীনাকে।"

    সম্প্রতি একটি টিভি অনুষ্ঠানের তর্কের জেরে  অত্যান্তরে পড়েন সায়নী। তাকে ধর্ষণের হুমকি দেওয়া হতে থাকে। বিজেপি নেতা তথাগত রায় তাঁর একটি পুরনো পোস্ট নিয়ে তাঁর বিরুদ্ধে এফআইআর-ও করেন। তাঁকে নিয়ে কুরুচিকর মন্তব্য করে বিতর্ক বাড়িয়েছিলেন বিজেপি নেতা সৌমিত্র খাঁ-ও। সেই সময়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে পাশে পেয়ে যান সায়নী। মমতা সে সময়ে  জনসভা থেকে বলেন, সায়নীর গায়ে হাত দিয়ে দেখাক।

    সাহাগঞ্জে তৃণমূলের সভা। সাহাগঞ্জে তৃণমূলের সভা।

    সেই সময় থেকেই জল্পনা তৈরি হয়েছিল, সায়নী তৃণমূলে যোগ দেন কিনা তাই নিয়ে। সেই ঘটনাই ঘটল। প্রসঙ্গত এদিন সায়নীদের পাশাপাশিই তৃণমূলে যোগ দিলেন ক্রিকেটার  মনোজ তিওয়ারিও।

    আজকের মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হুগলির সভা নানা কারণেই গুরুত্বপূর্ণ। অভিষেকের বাড়িতে সিবিআই-নোটিস পাঠানোর দিনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ভাষাদিবসের মঞ্চ থেকে কারও নাম না করে বলেছিলেন বন্দুকের নলে ভয় পাইনি, এই চমকানি ধমকানিতে ভয় পাব না। তারপরের ৪৮ ঘণ্টায় আরও জলঘোলা হয়েছে। রুজিরার বাড়িতে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য যান সিবিআই-এর কর্তারা। সেই কারণে এদিন মমতা কতটা ঝাঁঝ বাড়ান সেই দিকেই নজর ছিল গোটা রাজ্যের। পাশাপাশি ৪৮ ঘণ্টা আগে সাহাগঞ্জের মাঠেই সভা করে গিয়েছেন নরেন্দ্র মোদি, সেই কারণে দলীয় কর্মীরাও মুখিয়ে ছিলেন নেত্রীর বার্তা শুনতে। তবে নেত্রী বলার আগেই সারপ্রাইজে শুরুতেই চাঙ্গা হয়ে গেলেন দলীয় নেতৃত্বরা।

    Published by:Arka Deb
    First published: