corona virus btn
corona virus btn
Loading

মুকুল রায়, শমীক ভট্টাচার্যের গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় গ্রেফতার ১২, রিপোর্ট চাইল কমিশন

মুকুল রায়, শমীক ভট্টাচার্যের গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় গ্রেফতার ১২, রিপোর্ট চাইল কমিশন
representative image
  • Share this:

#কলকাতা: দমদমে মুকুল রায়, শমীক ভট্টাচার্যের গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় ১২ জনকে গ্রেফতার করল পুলিশ ৷ ঘটনার রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছে নির্বাচন কমিশন ৷ বৃহস্পতিবার রাতে রণক্ষেত্র দমদমের নাগেরবাজার। ভাঙচুর করা হয় মুকুল রায়, শমীক ভট্টাচার্যের গাড়ি। চলে বিক্ষোভ। বিক্ষোভকারীদের হটাতে লাঠিচার্জ করে পুলিশ।

টাকা দিয়ে ভোট করাচ্ছে বিজেপি। বার বার অভিযোগ তুলছে বিরোধীরা। বৃহস্পতিবার রাতে সিপিএম ও বিজেপির মধ্যে গোপন বৈঠকে টাকা লেনদেনের অভিযোগে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে নাগেরবাজার।

বৃহস্পতিবার, রাত ৯ নাগাদ দমদমের বিজেপি নেতা রাজু সরকারের বাড়িতে আসেন মুকুল রায়, শমীক ভট্টাচার্য। সেখানে ছিলেন সিপিএম নেতা পল্টু দাশগুপ্তও। সেই সময়েই আচমকা খবর রটে যায়, সিপিএমের সঙ্গে গোপন বৈঠক করছেন মুকুল রায়। চলছে টাকার লেনদেন। বেশ কয়েকজন জড়ো হয়ে যায় রাজুর বাড়ির নীচে। শুরু হয় বিক্ষোভ।

ভাঙচুর করা হয় মুকুল রায়, শমীক ভট্টাচার্যের গাড়ি। ভাঙা হয় সিপিএম নেতার গাড়িও। দক্ষিণ দমদমের স্থানীয় কাউন্সিলর অমিত পোদ্দারের নেতৃত্বে চলে বিক্ষোভ ৷ খবর পেয়ে আসে দমদম থানার পুলিশ। পুলিশের সামনেই মুকুল রায়ের গাড়ি ঘিরে চলে বিক্ষোভ।

এরপরই এলাকা ফাঁকা করতে লাঠিচার্জ করে পুলিশ। পুরো এলাকা ঘিরে ফেলে কেন্দ্রীয় বাহিনী। আটক করা হয় পঁচিশজনকে। এরপরই মুকুল রায় ও শমীক ভট্টাচার্যকে নিরাপত্তার ঘেরাটোপ বের করে নিয়ে যাওয়া হয়। মুকুলের দাবি, রাজুর স্ত্রীর জন্মদিনের নিমন্ত্রণ রক্ষা করতেই তাঁরা এসেছিলেন। তৃণমূল এ ঘটনায় জড়িত নয়। দাবি করেছেন জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। মুকুল রায়, শমীক ভট্টাচার্য-সহ তিনজনের গাড়ি তল্লাশির জন্য থানায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

First published: May 17, 2019, 3:27 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर